Advertisement
২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২

Partha Chatterjee: মন্ত্রিত্বের সঙ্গে দলীয় পদ হারানো পার্থকে বিধানসভার কমিটিতেও না রাখার ভাবনা

বিধানসভার কোনও কমিটিতেই স্থান দেওয়া হবে না বেহালা পশ্চিমের বিধায়ক পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে। সম্প্রতি তৃণমূল পরিষদীয় দল সূত্রে এমনটাই খবর।

পার্থ চট্টোপাধ্যায়।

পার্থ চট্টোপাধ্যায়। ফাইল চিত্র

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ১৬ অগস্ট ২০২২ ১৯:৪৭
Share: Save:

মন্ত্রিত্বের সঙ্গে দলীয় পদ আগেই হারিয়েছিলেন। এ বার সিদ্ধান্ত বিধানসভার কোনও কমিটিতেও রাখা হবে না পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে। সম্প্রতি এমনই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বিধানসভার তৃণমূলের পরিষদীয় দলের তরফে।এ বিষয়ে প্রকাশ্যে মুখ খুলতে চাননি তৃণমূল পরিষদীয় দলের কোনও সদস্য। এক বিধায়কের কথায়, ‘‘আপাতত দল সিদ্ধান্ত নিয়েছে, কোনও কমিটিতেই পার্থকে রাখা হবে না।’’

প্রসঙ্গত, পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভায় ২৬টি স্ট্যান্ডিং ও ১৫টি অ্যাসেম্বলি কমিটি রয়েছে। ২৯৪ জন সদস্যকে এই মোট ৪১টি কমিটিতে জায়গা দেওয়া হয়। তবে মন্ত্রীরা কোনও কমিটিতে থাকেন না। শাসক ও বিরোধী দলের বিধায়কদের নিয়ে তৈরি হয় এক একটি কমিটি। ১৫ দিন অন্তর এই সব কমিটির বৈঠকে যোগ দিলে ভাতা পান বিধায়করা।একজন বিধায়ক সর্ব্বোচ্চ তিনটি ও সর্বনিন্ম দু’টি কমিটির সদস্য হয়ে থাকেন। সম্প্রতি পশ্চিমবঙ্গ মন্ত্রিসভার সম্প্রসারণ ঘটিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নতুন আটজন বিধায়ক মন্ত্রী হয়েছেন। আর পার্থ-সহ পাঁচজন মন্ত্রিসভা থেকে বাদ গিয়েছেন। পান্ডুয়ার বিধায়ক রত্না দে নাগ, ডেবরার বিধায়ক হুমায়ূন কবীর, তমলুকের বিধায়ক সৌমেন মহাপাত্র ও মেখলিগঞ্জের বিধায়ক পরেশ অধিকারী মন্ত্রিসভা থেকে বাদ গিয়েছেন। অন্য দিকে, মন্ত্রী হয়েছেন উদয়ন গুহ, স্নেহাশিস চক্রবর্তী, বাবুল সুপ্রিয়, সত্যজিৎ বর্মণ, প্রদীপ মজুমদার, বিপ্লব রায় চৌধুরী, তাজমুল হোসেন ও পার্থ ভোমিক। এই আটজন বিধায়ক মন্ত্রী হওয়ায় অ্যাসেম্বলি ও স্ট্যান্ডিং কমিটি থেকে স্বাভাবিক কারণেই সরে গিয়েছেন তাঁরা। আর তাঁদের ছেড়ে যাওয়া কমিটিগুলিতেই জায়গা দেওয়া হচ্ছে মন্ত্রিত্ব হারানো বিধায়কদের।

ওই কমিটিগুলিতে পরেশ-সৌমেন-হুমায়ুনরা জায়গা পেলেও, জায়গা হবে না বেহালা পশ্চিমের বিধায়ক পার্থের। তৃণমূলের এক বর্ষীয়ান বিধায়কের কথায়, ‘‘পার্থ কবে থেকে বিধানসভায় আসতে পারবেন তা জোর দিয়ে বলা যাচ্ছে না। এমতাবস্থায় যদি তাঁকে কোনও কমিটিতে না রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়, তাতে ভুল কিছু নেই।’’

কমিটিতে না রাখারপাশাপাশি, বিধানসভায় তৃণমূল পরিষদীয় দলের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের স্বাক্ষরকারীর দায়িত্ব থেকেও অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে পার্থকে। এতদিন ফিরহাদ হাকিম ও জ্যোতিপ্রিয় মল্লিকের সঙ্গে এই দায়িত্বে ছিলেন পার্থ। কিন্তু তৃণমূল তাঁকে সাসপেন্ড করায়, এই দায়িত্ব আনা হয়েছে পরিষদীয় মন্ত্রী শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়কে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.