Advertisement
২৭ জানুয়ারি ২০২৩

ভারতীয় পর্যটকের পথ চেয়ে পেনাং‌

যে সব দেশের বিভিন্ন সংস্থার ব্যবসায়িক সম্মেলন ওখানে হয়, তাদের প্রথম পাঁচটি দেশের মধ্যে আছে ভারত। সেই জন্যই ভারত থেকে নিখাদ পর্যটকের পাশাপাশি বাণিজ্য-পর্যটক টানাও পিসিইবি-র লক্ষ্য।

নিজস্ব সংবাদদাতা
শেষ আপডেট: ১৭ জানুয়ারি ২০১৮ ০২:৩৬
Share: Save:

এ বার তবে পেনাং যাত্রা!

Advertisement

কুয়ালা লামপুর মানে ঝাঁ চকচকে ও ঐতিহ্যের শহর। লঙ্কাভি মানে সমুদ্রতট। গেনতিং হাইল্যান্ড বলতে পাহাড়। আর এই তিনটেই এক সঙ্গে পাওয়া যাবে পেনাংয়ে। মূলত এই কথা বলে দেশের উত্তর-পশ্চিমের ওই দ্বীপরাজ্যকে আকর্ষক পর্যটনকেন্দ্র হিসেবে তুলে ধরছে মালয়েশিয়া।

পেনাং-কে সে দেশের ভোজন-রাজধানী বলা হয়। এত বৈচিত্র্যময় খাদ্যের সম্ভার সেখানে। আবার চিনা নববর্ষ-সহ বেশ কিছু জমকালো, রঙিন উৎসবও হয় সেখানে। তিনতারা হোটেলে এক দিন থাকার খরচ ভারতীয় মুদ্রায় ৩০০০ টাকা। মালয়েশিয়ার ওই জায়গাটিকে তুলে ধরতে ট্যুরিজম মালয়েশিয়ার অধীন, সরকারি সংস্থা ‘পেনাং কনভেনশন অ্যান্ড এগজিবিশন সেলস ব্যুরো’র (পিসিইবি) পাখির চোখ এ বার ভারত। তাদের এমন উদ্যোগ এই প্রথম। সাত দিন ব্যাপী এই সংগঠিত পদক্ষেপের সূচনা আজ, বুধবার কলকাতাতেই হবে। এর পর ১৯ তারিখ হবে দিল্লি, ২২ মুম্বই ও ২৪ তারিখ বেঙ্গালুরুতে।

তবে পিসিইবি-র বক্তব্য, পেনাং শুধু বিনোদন ভ্রমণের জন্য নয়, বাণিজ্যিক অধিবেশনেরও কেন্দ্র। যে সব দেশের বিভিন্ন সংস্থার ব্যবসায়িক সম্মেলন ওখানে হয়, তাদের প্রথম পাঁচটি দেশের মধ্যে আছে ভারত। সেই জন্যই ভারত থেকে নিখাদ পর্যটকের পাশাপাশি বাণিজ্য-পর্যটক টানাও পিসিইবি-র লক্ষ্য। পিসিইবি-র চিফ এগ্‌জিকিউটিভ অফিসার অশ্বিন গুণশেখরনের কথায়, ‘‘বাণিজ্যিক কর্মসূচি ও সম্মেলনের আয়োজন ও পরিকল্পনা করে, ভারতের এমন নানা সংস্থা গত দু’বছরে পেনাং নিয়ে প্রচুর উৎসাহ দেখিয়েছে।’’

Advertisement

কলকাতা থেকে এখন এয়ার এশিয়ার উড়ান সরাসরি কুয়ালা লামপুর যাচ্ছে। সেখান থেকে বিমানে পেনাং এক ঘণ্টা। কুয়ালা লামপুর থেকে ছাড়ছে বিলাসবহুল বাসও। পেনাং যেতে যা সময় নেয় পাঁচ ঘণ্টা। ভাড়া প্রায় ১২০০ টাকা।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.