Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৯ ডিসেম্বর ২০২১ ই-পেপার

তিন ছানাকে পিঠে চাপিয়ে একলা বাবা রাজহাঁসের সাঁতার, আবেগে ভাসল নেটপাড়া

সংবাদ সংস্থা
১১ জুন ২০২১ ১৭:৫৮
প্রতীকী চিত্র।

প্রতীকী চিত্র।

ধবধবে ডানা দু’টো পিঠের উপর আগলে রেখেছে ৩ সন্তানকে। চতুর্থ জনের জায়গা হয়নি, তবে সেও সাদা পালকের লেজের গা ঘেঁষে এগিয়ে চলেছে বাবার পাশে পাশে। বস্টনের এক হংস পরিবারের এই ‘বেঁধে বেঁধে থাকার’ ছবি দেখে আবেগে ভাসছেন নেটাগরিকরা।

ছেলেমেয়েদের সঙ্গে নিয়ে বাবা রাজহাঁসের সময় কাটানোর এই দৃশ্য ধরা পড়েছে পেশাদার আলোকচিত্রী ম্যাথু রইফম্যানের ক্যামেরায়। তিনটি ছবি নিজের ইনস্টাগ্রামে দিয়েছেন ম্যাথু। তাতে দেখা যাচ্ছে দু’টি ডানার ভরে পিঠের উপর তিন ছানাকে বসিয়ে হ্রদের জল কেটে এগিয়ে যাচ্ছে বাবা রাজহাঁস। বাবার গা ঘেঁষে জলে সাঁতরাতে দেখা যাচ্ছে পিঠে জায়গা না হওয়া আর এক সন্তানকেও। বিবরণে ম্যাথু ওই রাজহাঁসকে ‘একলা বাবা’ বলে বর্ণনা করেছেন। জানিয়েছেন তাদের দুঃখের গল্পও।

ম্যাথু লিখেছেন, ‘গত সপ্তাহেই বস্টনে এই চার ছানার জন্ম হয়েছে। তবে তাদের জন্মের পরই অজানা কোনও কারণে মা রাজহাঁসের মৃত্যু হয়। ডুবে মারা যায় একটি ছানাও। আর একটিকে কোনওমতে উদ্ধার করে বস্টনের প্রাণী সুরক্ষা বিভাগ। তারপর থেকে ছেলেমেয়েদের খেয়াল রাখার দায়িত্ব নিয়েছে একলা বাবা রাজহাঁসই।’

Advertisement

বাবা রাজহাঁস যে নিজেই ছানাদের যত্ন-আত্তি করার দায়িত্ব নিয়েছে, সে খবর প্রাণী সুরক্ষা বিভাগের কাছেই পেয়েছিলেন ম্যাথু। সেই থেকেই পরিবারটিকে ক্যামেরা বন্দি করার চেষ্টা করছিলেন তিনি। শেষে রাজহাঁস পরিবারটি ধরা দিল বস্টনের এসপ্ল্যানেড লগুনের জলে।

বাবার পিঠে চড়ে হ্রদের জলে রাজহাঁস ছানাদের সফরের সেই দৃশ্য নেটমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়তে বিশেষ সময় নেয়নি। তাদের কাহিনি শুনে একদিকে যেমন দুঃখ প্রকাশ করেছেন নেটাগরিকরা তেমনই, তাঁরা জানিয়েছেন, ছেলেমেয়েদের নিয়ে একা-বাবা রাজহাঁসের এই জল সফরের দৃশ্য দেখে মন ভাল হয়ে গিয়েছে তাঁদের।

আরও পড়ুন

Advertisement