৪ পৌষ ১৪২১ শনিবার ২০ ডিসেম্বর ২০১৪ | কলকাতা, পশ্চিমবঙ্গ weather forecast সর্বোচ্চ : ২৭.৫°C     সর্বনিম্ন : ১৪.৬ °C

সমাধিফলক

শালবনির ২৯৪ একর জমিতে পশ্চিমবঙ্গের শিল্প-ভবিষ্যতের সমাধি রচনার কাজটি অনেকখানি অগ্রসর হইল। ক্ষতিপূরণের টাকা ফেরত না চাহিয়াই জিন্দল গোষ্ঠী স্থানীয় মানুষের নিকট হইতে কেনা জমি ফিরাইয়া দেওয়ার সিদ্ধান্ত করিয়াছে। মুখ্যমন্ত্রী উচ্ছ্বসিত। সারদা হইতে খাগড়াগড়, সর্বব্যাপী অপশাসনের অভিযোগে তাঁহার টালমাটাল রাজনীতি ফের পায়ের নীচে জমি পাইয়াছে বলিয়াই জ্ঞান করিতেছেন হয়তো।

১৯ ডিসেম্বর, ২০১৪

স্বার্থের কল

আলিমুদ্দিন স্ট্রিটে হয়তো অচিরে শোকসভা বসিবে, কারণ কিউবা, খাস কিউবা ‘মার্কিন সাম্রাজ্যবাদ’-এর সহিত হাত মিলাইতেছে। প্রায় ছয় দশক পরে কিউবার সহিত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপিত হইতে চলিয়াছে। এই সিদ্ধান্ত গ্রহণের পিছনে পোপ দ্বিতীয় ফ্রান্সিস-এর নেপথ্য ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ, কানাডার ভূমিকাও।

১৯ ডিসেম্বর, ২০১৪

দায়

একে একে ১৩২টি স্কুলপড়ুয়া শিশুর মৃতদেহ পেশোয়ারে সমাধিস্থ হইতেছে। সকলেই স্কুলের ইউনিফর্ম পরিয়া বাড়ি হইতে বাহির হইয়াছিল, ইউনিফর্মের সাদা জামা রক্তে লাল হইয়া যায়। তেহরিক-ই-তালিবান পাকিস্তান নামক সংগঠনের বীরপুঙ্গবরা এই নিরস্ত্র শিশুদের স্কুলে ঢুকিয়া নির্বিচারে হত্যা করিয়াছে স্রেফ পাক সেনাবাহিনীর উপর প্রতিশোধ লইতে।

১৮ ডিসেম্বর, ২০১৪

চাই দায়বদ্ধতা

বন্দিদের উপর নির্মম নির্যাতন চালাইবার বর্বরতা আধুনিক সভ্যতা নিয়ত প্রত্যক্ষ করিতেছে। সকলের চোখের সামনেই ধর্মান্ধ শস্ত্রধারীরা নিরস্ত্র বন্দিদের গলার নলি কাটিয়া বিশ্ববাসীকে সেই রক্তাক্ত বর্বরতার ভিডিয়ো দৃশ্য প্রদর্শন করিতেছে।

১৮ ডিসেম্বর, ২০১৪

মার্কিন চাপ ও মোদীর ওষুধ নীতি

পরঞ্জয় গুহঠাকুরতা

১৮ ডিসেম্বর, ২০১৪

নতুন সুযোগের সামনে দিল্লি ও ওয়াশিংটন

রিচার্ড এম রসো

১৮ ডিসেম্বর, ২০১৪

বড়দিনের হোমটাস্ক

কেন্দ্রীয় সরকারের মানবসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রকের নায়কনায়িকা এবং আধিকারিকদের হাতে যদি কাজ কম থাকে, তবে তাঁহারা খই ভাজিতে পারেন, চাহিলে পপকর্নও। কিন্তু কাজ নাই বলিয়া উর্বর মস্তিষ্ক হইতে উদ্ভট পরিকল্পনা খুঁড়িয়া বাহির করিবেন এবং তাহার হ্যাপা সামলাইতে বড়দিনের দিন সিবিএসই-র স্কুলে স্কুলে পড়ুয়াদের ‘সু-রাজ দিবস’ লইয়া রচনা প্রতিযোগিতা, ক্যুইজ প্রতিযোগিতা ইত্যাদিতে যোগ দিতে হইবে, ইহা কীরূপ আবদার?

১৭ ডিসেম্বর, ২০১৪

আত্মহত্যার অধিকার

স্বেচ্ছা-মৃত্যুর অধিকার এখনও অর্জিত হয় নাই, তাহা লইয়া বিতর্ক অব্যাহত। কিন্তু আত্মহননের অধিকার সরকারের ছাড়পত্র পাইতে চলিয়াছে। এই মর্মে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০৯ ধারাটি রদ করিতে প্রায় সর্বসম্মতি মিলিয়াছে। যে মানসিক অবসাদ, গ্লানি কিংবা হতাশা মানুষের বাঁচিয়া থাকার উৎসাহ হরণ করিয়া লয়, তাহাই অধিকাংশত মানুষকে আত্মঘাতী করিয়া তোলে।

১৭ ডিসেম্বর, ২০১৪

আমরা সিকিমের কাছে শিখতে পারি

জয়ন্ত বসু

১৭ ডিসেম্বর, ২০১৪

সম্পাদক সমীপেষু

১৭ ডিসেম্বর, ২০১৪

একান্ত ব্যক্তিগত

ভারতীয় জনতা পার্টি একই সঙ্গে ঠিক এবং ভুল। ধর্মান্তরের অধিকার স্বীকার করিলে তাহা যে প্রতিটি ধর্মের ক্ষেত্রেই স্বীকার করা বিধেয়, এই কথাটিতে দ্বিমত হইবার অবকাশ নাই। সংখ্যালঘু-সংখ্যাগুরুর সূক্ষ্মবিচার এ ক্ষেত্রে অবান্তর। নিজের ধর্ম চয়ন এবং অনুশীলনের অধিকার মৌলিক, সংবিধানস্বীকৃত।

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৪

বাহিরে নহে

দ্বিতীয় চিন হইয়া উঠিবার প্রতিজ্ঞাটি যে ভারতকে বিপাকে ফেলিতে পারে, কথাটি স্মরণ করাইয়া দিয়াছেন রিজার্ভ ব্যাঙ্কের গভর্নর রঘুরাম রাজন। তাঁহার সতর্কবার্তাটিকে যথাযোগ্য মর্যাদা দেওয়া বিধেয়। ২০০৮ সালের আর্থিক সংকটের পূর্বাভাস তিনিই দিয়াছিলেন। নরেন্দ্র মোদীর ‘মেক ইন ইন্ডিয়া’ রাজনের চোখে বিপজ্জনক ঠেকিয়াছে। কারণটি সরল।

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৪

‘খেটে খাই, চুরি করি না,’ এই অহঙ্কারটাই নেই

একটা পরিবারে বাবা জেঠা কাকা যদি দুর্নীতিকে দুর্নীতি বলে মনে না করে, তা হলে ছেলেপুলেরা কী শিখবে? অফিসার থেকে মন্ত্রী থেকে দলে দলে দুর্নীতিতে ডুবে আছে, সেটাই স্বাভাবিক বলে মেনে নিচ্ছে, এর প্রভাব তো পড়বেই। বললেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৪

অসংগঠিত ক্ষেত্রের জন্য যা করা দরকার

বিশ্বজিৎ মণ্ডল

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৪