লরির চাকায় পিষে মৃত্যু হল কর্তব্যরত এক এসআইয়ের। সোমবার সকালে দুর্ঘটনাটি ঘটে দক্ষিণ ২৪ পরগনার সোনারপুরের বৈকন্ঠপুরে। নিহত ওই পুলিশ অফিসারের নাম রাজেশ দাস। সোনারপুর থানায় কর্মরত ছিলেন তিনি।

পুলিশ সূত্রে খবর, এ দিন সকালে বাইকে করে ডিউটিতে যোগ দিতে আসার সময়  রাজেশ দাসকে পিছন থেকে ধাক্কা মারে একটি লরি। লরিটির পিছনের চাকা রাজেশের পেটের উপর দিয়ে চলে যায়। গুরুতর আহত অবস্থায় তাঁকে সোনারপুর গ্রামীণ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানেই চিকিৎসকরা মৃত বলে ঘোষণা করেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, বাইকের সমানে এক জন মহিলা চলে আসায় তাঁকে পাশ কাটাতে গিয়ে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেন রাজেশ। তখনই পিছন থেকে আসা লরিটি তাঁর পেটের উপরে উঠে যায়। পুলিশ ঘাতক লরিটিকে আটক করেছে। যদিও চালক পলাতক। তাঁর খোঁজ চলছে।

আরও পড়ুন: ‘ফোন নিও না কাকু, আমাদের বাঁচাও’

নদীয়ার রানাঘাটের বাসিন্দা রাজেশ সোনারপুর থানায় অ্যান্টি ক্রাইম বিভাগে কর্মরত ছিলেন। এটি নিছক দুর্ঘটনা নাকি এর পিছনে অন্য রহস্য রয়েছে সে বিষয়টি খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

এ দিকে, এ দিনই ভিআইপি রোডে বাঙুরে বাস থেকে নামতে গিয়ে পড়ে যান এক মহিলা। বাসের চাকা পায়ের উপর দিয়ে চলে যায় ওই মহিলার। হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। মৃত ওই মহিলার নাম উষা দাস (৬০)। তিনি পরিচারিকার কাজ করতেন।