গুরুতর অভিযোগ। ৪৮তম আন্তর্জাতিক ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে (আইএফএফআই) ১৩ সদস্যের বাছাই করা দু’টি ছবি বাতিল করেছে তথ্যও সম্প্রচার মন্ত্রক। এই ১৩ সদস্যই ইন্ডিয়ান প্যানোরমা বিভাগের সদস্য। সেই প্যানেলেরই প্রধান পরিচালক সুজয় ঘোষ সরে দাঁড়িয়েছেন তাঁর পদ থেকে। ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের খবর অনুযায়ী, কেন হঠাৎ সুজয়ের এমন সিদ্ধান্ত তা নিয়ে আলাদা করে কিছু বলতে নারাজ ‘কহানি’ পরিচালক। তাঁর ইস্তফাই তাঁর বক্তব্য বলে জানিয়েছেন তিনি।

আরও পড়ুন, দেশবিদেশের সিনেমা-নাবিকেরা নোঙর ফেলুক কলকাতায়

আরও পড়ুন, ফিল্ম ফেস্ট: মঙ্গলবারের মাস্টওয়াচ ছবি কোনগুলি

ঘটনাটা আসলে কী?

গত ৯ নভেম্বর তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রক এ বারের ৪৮তম আন্তর্জাতিক ফিল্ম ফেস্টিভ্যালের ‘ফিচার’ ও ‘নন-ফিচার’ বিভাগে নির্বাচিত ছবির তালিকা প্রকাশ করেছে। গোয়ায় এই ফেস্টিভ্যাল হবে আগামী ২০ থেকে ২৮ নভেম্বর। তালিকা প্রকাশের পরই প্যানেলের বেশ কয়েকজন জুরি সদস্য আপত্তি তুলেছিলেন। পরিচালক সনল শশীধরনের মালয়ালাম ছবি ‘এস দুর্গা’ এবং রবি যাদবের মরাঠি ছবি ‘ন্যুড’ বাদ পড়েছে তালিকা থেকে। জুরি সদস্যদের অভিযোগ, এই বাদ দেওয়া নিয়ে কারও সঙ্গেই কোনও আলোচনা করা হয়নি। এমনকী এই অভিযোগ নিয়ে কোনও মন্তব্যও করেনি মন্ত্রক।

‘এস দুর্গা’ দেশের বাইরে বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্র উৎসবে দেখানো হয়েছে। ‘ন্যুড’ ছবিতেও আর্ট স্কুলের একটি অন্য দিক তুলে ধরা হয়েছে। দু’টি ছবিই মানুষের কাছে সমাদৃত হয়েছে। এমন ছবি বাদ দিয়ে বিনোক কাপরি পরিচালিত হিন্দি ছবি ‘পিহু’কে বেছে নেওয়া হয়েছে ফেস্টিভ্যালেরওপেনিং ছবি হিসেবে।

 

প্যানেলের আর এক জুরি সদস্য অপূর্ব আসরানি টুইটে লিখেছেন, ‘‘সেক্সি দুর্গা ও ন্যুড সেরা কন্টেম্পোরারি ছবি। আজকের ভারতে এই দুই ছবি যথেষ্ট সাহসী এবং প্রাসঙ্গিক...।’’

সুজয় ঘোষ অবশ্য মুখ খোলেননি। নিজের পদ থেকে ইস্তফা দিয়ে নিঃশব্দে প্রতিবাদ জানিয়েছেন।