আধার নম্বর সংযুক্তিকরণের সময়সীমা বাড়াবে সরকার। তবে, শর্ত সাপেক্ষে। এ কথাই বৃহস্পতিবার সুপ্রিম কোর্টে কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে জানানো হয়েছে।
অ্যাটর্নি জেনারেল কে কে বেনুগোপাল এ দিন শীর্ষ আদালতে জানিয়েছেন, ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট-সহ বিভিন্ন সরকারি প্রকল্পের সঙ্গে আধার নম্বর সংযুক্তিকরণের সময় সীমা চলতি বছরের ৩১ ডিসেম্বর থেকে বাড়িয়ে আগামী বছরের ৩১ মার্চ করা যেতে পারে। তবে, সকলের ক্ষেত্রে এই নিয়ম কার্যকরী হচ্ছে না। বেনুগোপাল জানিয়েছেন, এখনও পর্যন্ত যাঁদের আধার নম্বর নেই, তাঁদের ক্ষেত্রেই এই সময়ের ছাড় মিলবে।
তবে, মোবাইল নম্বরের সঙ্গে আধার সংযুক্তিকরণের শেষ দিন ৬ ফেব্রুয়ারিই থাকছে। বেনুগোপাল জানিয়েছেন, ওই সময়সীমা বাড়ানোর কোনও প্রশ্ন নেই। কারণ, ওই সময়সীমা শীর্ষ আদালতের নির্দেশ মেনেই বেঁধে দেওয়া হয়েছে। আধার কার্ড সংযুক্তিকরণের বর্ধিত সময়সীমা সংক্রান্ত নয়া ওই নোটিস আগামী কাল শুক্রবার জারি করা হবে।
এমনিতেই আধার কার্ড সংক্রান্ত একাধিক মামলা ঝুলে রয়েছে শীর্ষ আদালতে। সেই মামলাগুলি খতিয়ে দেখতে আদালত সাংবিধানিক বেঞ্চও গঠন করেছে। এ দিন কেন্দ্রের নয়া এই নির্দেশের বিরুদ্ধে মামলাকারীরা ফের আপত্তি জানিয়েছে। একটি মামলার আবেদনকারী উদয়াদিত্য বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন, আধার কার্ড সংযুক্তিকরণ বাধ্যতামূলক করার বিরুদ্ধেই তাঁদের মামলা। আদালতের কাছে তাঁদের আর্জি ছিল, আধার কার্ডের বিভিন্ন তথ্য অপব্যবহার করা হতে পারে। এবং তার প্রমাণও মিলেছে। তাঁর কথায়, ‘‘আধার প্রকল্প নিয়ে প্রশ্ন তুলেই আমরা শীর্ষ আদালতে চ্যালেঞ্জ করেছি। সেখানে এ রকম শর্ত সাপেক্ষে একটা অংশের নাগরিকদের জন্য সময় বাড়ানোর প্রয়োজন কী, তা বোধগম্য হচ্ছে না। আমরা এই নির্দেশের ক্ষেত্রে অন্তর্বর্তীকালীন স্থগিদাদেশের আবেদন জানিয়েছি আদালতে।’

আরও পড়ুন
ট্রাম্পের বিতর্কিত ঘোষণা: জেরুসালেম ইজরায়েলের রাজধানী

আগামী সপ্তাহে শীর্ষ আদালতে সেই আবেদনের শুনানি। আবেদনকারীদের আশা, আদালত তাঁদের বক্তব্য জেনে নিশ্চিত ভাবেই অন্তর্বর্তীকালীন স্থগিতাদেশ দেবে।