রেল বাজেটে বাংলার প্রতি বঞ্চনার অভিযোগে বিধানসভায় আলোচনা চাইছে সরকার পক্ষ। আজ, বৃহস্পতিবার বাজেট অধিবেশনের শেষ দিনে বিধানসভায় ১৮৫ ধারায় এই বিষয়ে প্রস্তাব আনবে তারা। সরকার পক্ষের আশা, রাজ্যের প্রতি এই বঞ্চনার বিরুদ্ধে বিরোধী বাম ও কংগ্রেস সরকারের পাশে থাকবে।

বুধবার প্রাথমিক ভাবে শাসক দলের তরফে রেল-বঞ্চনা নিয়ে প্রস্তাব পেশের তোড়জোড় শুরু হয়েছিল। বিধানসভার কার্য উপদেষ্টা কমিটির বৈঠকে পরিষদীয় মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় বিষয়টি উত্থাপন করেন। কিন্তু ওই বৈঠকে বিরোধী বাম-কংগ্রেস অনুপস্থিত ছিল। পরে বিষয়টি জানাজানি হওয়ার পরে পরিষদীয় মন্ত্রীর সঙ্গে আলোচনায় বাম ও কংগ্রেস তাদের সহমত ব্যক্ত করেছে। রেল-ব়ঞ্চনার বিরুদ্ধে এ রাজ্য থেকে সর্বদল প্রস্তাবই কেন্দ্রের কাছে পাঠাতে চায় সরকার পক্ষ। তবে আদৌ কতটা বরাদ্দ বন্ধ হয়েছে, তা খতিয়ে দেখার দাবি জানিয়েছেন বাম পরিষদীয় দলনেতা সুজন চক্রবর্তী এবং কংগ্রেসের সচেতক মনোজ চক্রবর্তী। সুজনবাবুর কথায়, ‘‘বারুইপুর পর্যন্ত মেট্রো সম্প্রসারণের কাজ বন্ধ করেছে বলা হচ্ছে। কিন্তু যতদূর জানি, ওই প্রকল্প কোনওদিনই কেন্দ্র অনুমোদন করেনি। ফলে বাস্তবে ক’টি প্রকল্প বন্ধ হয়েছে, তা জানা জরুরি।’’