ইডলি


এই বেজায় গরমে এমনই কিছু খাওয়া দরকার যা শরীর ঠাণ্ডা রাখে। আর এখন তো বাঙালির অন্দর মহলে ঢুকে পড়েছে নান জায়গার খাবার-দাবার। তাই সকালের জলখাবারে আপনাদের জন্য রইল ইডলি। অত্যন্ত হালকা, কম মশলার এই খাবার গরমের জন্য একদমই উপাদেয়।

ইডলির উপকরণ:

বিউলির ডাল— ১ কাপ

চাল— ২ কাপ

মেথি— আধ চা চামচ

নুন— প্রয়োজন মতো

নারকেল তেল— ২ টেবিল চামচ

প্রণালী:

বিউলির ডাল এবং চাল ভাল করে ধুয়ে আলাদা আলাদা পাত্রে অন্তত চার ঘণ্টা ভিজিয়ে রাখুন। এ বার জল থেকে তুলে আর এক বার ঠাণ্ডা জলে ধুয়ে নিন। তার পর আলাদা আলাদা মিহি ভাবে চাল এবং ডাল বেটে নিন। মেথিও বেটে রাখুন। এ বার চাল বাটা, ডাল বাটা এবং মেথি বাটা এক সঙ্গে একটি পাত্রে মিশিয়ে নিন। সেই পাত্রটি চাপা দিয়ে সারা রাত রাখুন। পরের দিন ইডলি বানানোর সময়ে এক বার হাত দিয়ে ভাল করে নেড়ে নিন। ইডলি বানানোর পাত্রে অল্প করে নারকেল তেল লাগিয়ে নিন। এ বার ইডলির মিশ্রণ ওই মোল্ডে হাতা করে ঢেলে দিন। স্টিমারে ৭-১০ মিনিটের মধ্যেই তৈরি হয়ে যাবে ইডলি।

সম্বর বানাতে যা যা লাগবে:

অড়হর ডাল— ১ কাপ

আলু— ১টি

পেঁয়াজ— ১টি

টোম্যাটো— ১টি

বিন্‌স— ৩-৪টি

ঢ্যাঁড়শ— ২টি

সজনে ডাঁটা— ২টি

বেগুন— আধ খানা

তেঁতুল— ৩ টেবিল চামচ

লঙ্কা গুঁড়ো— ১ চা চামচ

হলুদ গুঁড়ো— আধ চা চামচ

সম্বর পাউডার— ১ টেবিল চামচ

হিং— এক চিমটে

সাদা তেল— ২ টেবিল চামচ

শুকনো লঙ্কা— ৪-৫টি

সরষে— ১ চা চামচ

মেথি— আধ চা চামচ

কারি পাতা— ১০-১২টি

নুন— স্বাদ মতো

প্রণালী:

তেঁতুল জলে ভিজিয়ে রেখে ক্বাথ বের করে নিন। প্রেশার কুকারে ডাল সেদ্ধ করে নিন। ওই সেদ্ধ ডালেই একে একে আলুর টুকরো, পেঁয়াজ কুচি, টোম্যাটো কুচি, বিন্‌স কুচি, ঢ্যাঁড়শের টুকরো দিন। সামান্য জল দিয়ে সেদ্ধ হতে দিন। সব্জি সেদ্ধ হয়ে এলে নুন, হলুদ গুঁড়ো, লঙ্কা গুঁড়ো, হিং, সম্বর পাউডার আর তেঁতুলের ক্বাথ দিয়ে দিন। কিছুক্ষণ নেড়ে নামিয়ে নিন। অন্য একটি পাত্রে তেল গরম করে শুকনো লঙ্কা, সরষে, মেথি আর কারি পাতা ফোড়ন দিন। সম্বর ডালের উপরে ফোড়নের মশলা ঢেলে দিন। আপনার সম্বর তৈরি।

নারকেলের চাটনির জন্য:

নারকেল— ১ মালা

ছোলার ডাল— ১ টেবিল চামচ

কাঁচা লঙ্কা— ৩-৪টি

নুন— স্বাদ মতো

কারি পাতা— ৬-৭টি

সরষে— ১ টেবিল চামচ

তেঁতুল— ১ টেবিল চামচ

সাদা তেল— ১ চা চামচ

প্রণালী:

নারকেল কুচি করে নিন। তেঁতুলের ক্বাথ বের করে রাখুন। এ বার মিক্সিতে নারকেলের কুচি, ভিজিয়ে রাখা ছোলার ডাল, কাঁচা লঙ্কা কুচি, নুন ও তেঁতুলের ক্বাথ এক সঙ্গে দিয়ে মিশিয়ে নিন। কড়াইয়ে সাদা তেল গরম করে সরষে ও কারি পাতা ফোড়ন দিন। নারকেলের চাটনির উপরে ফোড়ন ছড়িয়ে দিন।

(বাড়িতে সাধারণত আমি শুধু নারকেলের চাটনি দিয়েই ইডলি খাওয়া পছন্দ করি। সঙ্গে থাকে কাঁচা লঙ্কা। তবে আপনাদের সকলের জন্য সম্বরের রেসিপিও দিলাম। সম্বর পাউডার যে কোনও দোকানে সিল্‌ড প্যাকেটে করে কিনতে পাওয়া যায়। ইডলির মিশ্রণ সারা রাত ঘরের সাধারণ তাপমাত্রায় রাখাই বাঞ্ছনীয়। কখনই তা ফ্রিজে রাখবেন না। নারকেলের চাটনিতে অনেকে সামান্য পোস্ত বাটাও দিয়ে থাকেন।)