মিলে গেল বিরাট, সৌরভের দুই হাত! বিরোধের কি ইতি হল এ বারের আইপিএলে?

রবিবার দিল্লি ক্যাপিটালসের মুখোমুখি হয়েছিল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু। সেই ম্যাচ শেষে দেখা গেল সৌরভ এবং বিরাটকে হাত মেলাতে।

Advertisement

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক

কলকাতা শেষ আপডেট: ১৩ মে ২০২৪ ১৮:২৬
Share:

সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের সঙ্গে বিরাট কোহলি। ছবি: পিটিআই।

বিরাট কোহলি এবং সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় মানেই বাগ্‌যুদ্ধ। সৌরভ যখন ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান ছিলেন, তখন বিরাট অধিনায়ক। আবার সেই সময়ই বিরাটের অধিনায়কত্ব থেকে সরে আসা এবং বাদ পড়া। সাংবাদিক বৈঠকে নাম না করে সৌরভকে একপ্রকার মিথ্যেবাদীও বলেছিলেন তিনি। গত আইপিএলেও সৌরভ এবং বিরাটের বিরোধ দেখা গিয়েছিল। এ বারে দেখা গেল অন্য ছবি।

Advertisement

রবিবার দিল্লি ক্যাপিটালসের মুখোমুখি হয়েছিল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু। সেই ম্যাচ শেষে দেখা গেল সৌরভ এবং বিরাটকে হাত মেলাতে। দুই দলের সদস্যেরা হাত মেলাচ্ছিলেন। বিরাট টুপি খুলে দিল্লি দলের সকলের সঙ্গে হাত মেলাতে মেলাতে এগোচ্ছিলেন। সৌরভকে দেখা যায় বিরাটের সঙ্গে হাত মেলানোর আগে টুপিটি খুলে নিতে। দু’জনকে হাত মিলিয়ে হাসিমুখে একে অপরকে কিছু বলতেও দেখা যায়।

ম্যাচ শেষে হাত মেলাচ্ছেন সৌরভ এবং বিরাট। ছবি: এক্স।

গত বছরের ছবিটি সম্পূর্ণ আলাদা ছিল। মাঠেই সৌরভকে রক্তচক্ষু দেখিয়েছিলেন বিরাট। খেলা শেষে আবার বিরাটের সঙ্গে হাত মেলাননি সৌরভ। গত বছর দিল্লি-বেঙ্গালুরু প্রথম ম্যাচে একটি ক্যাচ ধরে বিরাট দিল্লির ডাগআউটের দিকে অদ্ভুত ভাবে তাকান। সেখানে তখন বসে রয়েছেন দিল্লির ‘ডিরেক্টর অব ক্রিকেট’ সৌরভ। সেই সময় সৌরভ পাল্টা কোনও অভিব্যক্তি না দিলেও ম্যাচ শেষে বোঝা যায় যে, তিনিও বিরাটের সঙ্গে কথা বলতে চান না। ম্যাচ শেষে দু’দলের ক্রিকেটার ও সাপোর্ট স্টাফেরা একে অপরের সঙ্গে হাত মেলাচ্ছিলেন। সৌরভের ঠিক সামনেই ছিলেন দিল্লির কোচ রিকি পন্টিং। তিনি যখন বিরাটের সঙ্গে হাত মেলাচ্ছেন, তখন পন্টিংকে টপকে বিরাটের পরে দাঁড়িয়ে থাকা ক্রিকেটারের সঙ্গে হাত মেলান সৌরভ।

Advertisement

তবে গত বছর দ্বিতীয় ম্যাচে যদিও বিরাট এবং সৌরভকে হাত মেলাতে দেখা গিয়েছিল। যাবতীয় বিভেদ, বিতর্ক ভুলে কোহলিকে কাছে টেনে নিয়েছিলেন অগ্রজ। দু’জনে করমর্দন করেছিলেন। এই বছরও তাঁদের হাত মেলাতে দেখা গেল।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

আনন্দবাজার অনলাইন এখন

হোয়াট্‌সঅ্যাপেও

ফলো করুন
অন্য মাধ্যমগুলি:
Advertisement
আরও পড়ুন