Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০২ জুলাই ২০২২ ই-পেপার

Road Trip : কলকাতা থেকে একটু দূরে গাড়ি নিয়েই বেরিয়ে পড়তে চান? জেনে নিন সঙ্গে নেবেন কী কী

দীঘা বা দার্জিলিং, পুরী কিংবা পুরুলিয়া, গাড়ি চালিয়ে যাওয়া সম্ভব সর্বত্রই। তবে রাস্তায় কয়েক ঘণ্টা কাটালে সঙ্গে কিছু জিনিস প্রয়োজন।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১১:৫০

বসন্তে এখন বেরিয়ে পড়তে ইচ্ছা হয় মহানগর থেকে দূরে কোথাও

কলকাতা শহরে বছরের এই সময়টায় আবহাওয়া বড্ড মনোরম। শীতের ঠকঠকানি নেই, আবার গ্রীষ্মকালীন দাবদাহের সূত্রপাতও ঘটেনি এখনও। বসন্তে এখন তাই বেরিয়ে পড়তে ইচ্ছা হয় মহানগর থেকে দূরে কোথাও। তবে পরিকল্পনা হঠাৎ করে হলে টিকিট কাটার ঝঞ্ঝাটে না গিয়ে অনেকেই বেরিয়ে পড়েন নিজস্ব বাহনে। দীঘা হোক বা দার্জিলিং, পুরী কিংবা পুরুলিয়া, রাস্তা জানা থাকলে কয়েক ঘণ্টার ড্রাইভে পৌঁছে যাওয়া সম্ভব এখন সর্বত্রই। তবে রাস্তার কয়েক ঘণ্টা কাটাতে হলে সঙ্গে কিছু জিনিস অবশ্যই রাখা প্রয়োজন। না হলে কিন্তু আপনার ছুটির আনন্দ মাটি হতে পারে আচমকাই।

গাড়ির প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র
গাড়িতে যেতে হলে সেই গাড়ি সংক্রান্ত সব আইনানুগ কাগজপত্র যেন সঙ্গে থাকে। যিনি গাড়ি চালাবেন তাঁর ড্রাইভিং লাইসেন্স সঙ্গে রাখতে ভুলবেন না। গাড়ির বিমা, আপনার এবং সঙ্গীদের পরিচয়পত্রের দরকার পড়তেই পারে যে কোনও সময়ে। বিশেষ করে কলকাতার বাইরে যদি অন্য রাজ্যে ঘুরতে যান, তবে এই ধরনের যাবতীয় জিনিস হাতের কাছে থাকতেই হবে। এ ছাড়া সঙ্গে প্রয়োজন গাড়ির জ্বালানি তেল, অতিরিক্ত স্টেপনি ইত্যাদি। ছোটখাটো প্রয়োজনে যাতে আপনি নিজেই গাড়ি সংক্রান্ত সমস্যার সমাধান করে ফেলতে পারেন।

ওষুধ
বেড়াতে বেরিয়ে স্বাস্থ্যের অবহেলা করলে চলবে না। আপনি এবং আপনার সহযাত্রীদের সব প্রয়োজনীয় ওষুধ সঙ্গে রাখা উচিত। বিশেষ করে কারও মাথা ঘোরা, রক্তচাপ ইত্যাদির সমস্যা থাকলে জরুরি ওষুধ সঙ্গে না রাখলে বিপদ হতে পারে। কলকাতা থেকে দূরে কোনও পাহাড়ি রাস্তায় গাড়ি চললে অনেকেই হঠাৎ অসুস্থ বোধ করতে পারেন। সেই দিকে খেয়াল রেখে আগে থেকে প্রয়োজনীয় সব রকম ওষুধ গুছিয়ে সঙ্গে নেবেন। এ ছাড়া গাড়িতে যেন সর্বক্ষণ থাকে একটি ফার্স্ট এইড কিট।

Advertisement
রাস্তার কয়েক ঘণ্টা কাটাতে হলে সঙ্গে কিছু জিনিস অবশ্যই রাখা প্রয়োজন

রাস্তার কয়েক ঘণ্টা কাটাতে হলে সঙ্গে কিছু জিনিস অবশ্যই রাখা প্রয়োজন


খাবার
গন্তব্যের দূরত্বের কথা মাথায় রেখে পরিকল্পনা করতে হবে আপনাকে। কলকাতা থেকে আপনার গন্তব্য যদি হয় টাকি কিংবা দেউলটি তা হলে গাড়িতে দুই থেকে আড়াই ঘণ্টার মধ্যেই পৌঁছে যাওয়া সম্ভব। সে ক্ষেত্রে অল্প কিছু শুকনো খাবার সঙ্গে রাখলেই কাজ চলে যাবে। কিন্তু যদি যান বোলপুর কিংবা ঘাটশিলা, তা হলে ড্রাইভ করতে হবে এর দ্বিগুণ সময় বা আরও বেশি। ফলে একটু বেশি করে খাবার সঙ্গে রাখতেই হবে তখন। পরিবারের ছোট সদস্যের জন্য চকলেট, বাদাম, মিষ্টি ইত্যাদি রাখা দরকার হাতের কাছেই। বয়স্ক কেউ যদি হন সহযাত্রী তা হলে তাঁর ওষুধপত্রের সময় অনুযায়ী ঠিক সময় খাবার খেতে হবে। সেই অনুযায়ী ফল, রান্না করা হালকা খাবার, সেদ্ধ ডিম, ফলের রস ইত্যাদি নিতে হবে গাড়িতে।
রাস্তার বিবরণ
যেখানে যাচ্ছেন সেই গন্তব্যে পৌঁছনোর সঠিক দিকনির্দেশ যেন থাকে আপনার কাছে। গাড়িতে গেলে নতুন রাস্তা, ফ্লাইওভার, নো এন্ট্রি ইত্যাদি সম্পর্কে একটু আগে থেকে খোঁজখবর নিয়ে রাখা ভাল। গুগ্‌ল ম্যাপ এই বিষয়ে হতে পারে বিশেষ ভরসা। কিন্তু ইন্টারনেটের সংযোগে ঘাটতি হলে রাস্তা যাতে ভুল হয়ে না যায় তা খেয়াল রাখা দরকার।

বৈদ্যুতিন সরঞ্জাম
গাড়িতে ঘুরতে বার হলে আপনার সর্বক্ষণের সঙ্গী মুঠোফোনটিকে ভুলে যাবেন না যেন! সেই সঙ্গে গাড়িতে লাগানোর চার্জার, পাওয়ার ব্যাঙ্ক, ব্লু টুথ স্পিকার, ইয়ারফোন ইত্যাদিও যেন সঙ্গে থাকে। যত কম বা বেশি দূরত্বের গন্তব্যেই পাড়ি দিন না কেন, নিজের গাড়িতে অবশ্যই রাখবেন টর্চ এবং ইমার্জেন্সি লাইট।

Advertisement