২১ জুলাই ২০২৪
Alliance University

‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’: দক্ষিণ ভারতের শিক্ষা ক্ষেত্রে আমূল বদলের দিশারী

‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’ তার গবেষণাকেন্দ্রিক শিক্ষাপদ্ধতি নিয়ে যথেষ্ট গর্বিত। কারণ এখানে গবেষণাকে সমস্ত শেখার ও কিছু জানার কার্যক্রমের মূল ভিত্তি হিসেবে বিবেচনা করা হয়।

‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’

‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’

এবিপি ডিজিটাল ব্র্যান্ড স্টুডিয়ো
শেষ আপডেট: ২৫ জুন ২০২৪ ১১:৪০
Share: Save:

‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’, দক্ষিণ ভারতের প্রথম বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়, যা উচ্চশিক্ষায় উৎকর্ষ ও উদ্ভাবনের এক নতুন মডেল হিসেবে বিবেচিত হয়েছে। কর্নাটকে ২০১০ সালের ৩৪ নং আইনে প্রতিষ্ঠিত এবং নয়াদিল্লির ‘ইউনিভার্সিটি গ্র্যান্ট কমিশন’ (UGC) স্বীকৃত ‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’ ইতিমধ্যেই তার স্নাতক, স্নাতকোত্তর এবং ডক্টরাল প্রোগ্রামের মাধ্যমে এক উচ্চ মানদণ্ড স্থাপন করেছে। এ ছাড়াও বাণিজ্য, ইঞ্জিনিয়ারিং, আইন, ডিজ়াইন, লিবারাল আর্টস, অর্থনীতি, বিজ্ঞান, ফিল্ম এবং মিডিয়া স্টাডিজ় সহ বিভিন্ন বিষয়ে শিক্ষাদান করে থাকে এই বিশ্ববিদ্যালয়।

‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’ তার গবেষণাকেন্দ্রিক শিক্ষাপদ্ধতি নিয়ে যথেষ্ট গর্বিত। কারণ এখানে গবেষণাকে সমস্ত শেখার ও কিছু জানার কার্যক্রমের মূল ভিত্তি হিসেবে বিবেচনা করা হয়। এ ছাড়াও এই বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তনীদের সুবিশাল নেটওয়ার্ক রয়েছে, যার আওতাভুক্ত প্রায় ৩২ হাজারেরও বেশি স্নাতক। বিজ্ঞান ও কলা শাখা থেকে শুরু করে যাঁরা আজ সরকার প্রদত্ত বিভিন্ন ক্ষেত্রে বিশ্বব্যাপী নেতৃত্বের ভূমিকায় রয়েছেন।

‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’তে শিক্ষার্থীদের সাফল্যের একটি প্রধান উপাদান হল তার নির্দিষ্ট প্লেসমেন্ট সেল, কেরিয়ার অ্যাডভান্সমেন্ট এবং নেটওয়ার্কিং (CAN) অফিস। এই অফিসটি নিয়োগের ক্ষেত্রে ৮০০-রও বেশি শীর্ষস্থানীয় সহযোগী সংস্থার সঙ্গে সংযোগ স্থাপন করে। পাশাপাশি, শিক্ষার্থীদের ভবিষ্যতে সঠিক কেরিয়ার গঠনের দিকে পরিচালিত করার জন্যে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ নানা সময়ে বিশেষ অতিথিদের বক্তৃতা, কর্পোরেট ইভেন্ট, সেমিনার, ইন-প্লান্ট প্রশিক্ষণ, সার্টিফিকেট প্রোগ্রাম, কর্মশালা, লাইভ প্রজেক্টস এবং শিল্পক্ষেত্র পরিদর্শনের মতো বিভিন্ন কার্যকলাপের আয়োজন করে থাকে।

এই বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের নতুন কিছু শেখার ও উদ্ভাবনের জন্যে রয়েছে ৬০+ একর সবুজ ক্যাম্পাস। যেখানে বিশ্বমানের যাবতীয় পরিকাঠামোসহ রয়েছে একটি অত্যাধুনিক ল্যাবরেটরি। ‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’র শিক্ষকদের মধ্যে ৩৫০-এরও বেশি কোর এবং আন্তর্জাতিক স্তরের পরিদর্শনকারী অধ্যাপক রয়েছেন। যাঁদের অভিজ্ঞ শিক্ষাদান শিক্ষার সমৃদ্ধ ও বৈচিত্র্যময় অভিজ্ঞতাকে সুনিশ্চিত করে। এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ৮০টিরও বেশি আন্তর্জাতিক সংযোগ তার বৈশ্বিক দৃষ্টিভঙ্গিকে আরও শক্তিশালী করে তুলেছে। ‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য এবং ইউরোপীয় ইউনিয়নের শীর্ষস্থানীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে পড়ুয়া বিনিময় এবং বিশ্ব জুড়ে গবেষণা ল্যাব ব্যবহারের অংশীদারিত্বের মাধ্যমে তাদের আন্তর্জাতিক সংযোগকে আরও উন্নত করছে।

শিক্ষাক্ষেত্রে অসাধারণ উন্নয়ন, অভিজ্ঞ শিক্ষক, বৈচিত্র‍ এবং পড়াশোনার সহজসাধ্যতার নিরিখে ‘কিউএস (QS) ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটি’ র‍্যাঙ্কিং ২০২৪ অনুযায়ী, দক্ষিণ এশিয়ার শীর্ষ ১ শতাংশ বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে জায়গা করে নিয়েছে ‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’। QS I-Gauge-এর ডায়মন্ড রেটিংও তাদের ঝুলিতে। এ ছাড়াও, ‘অটল ইনোভেশন মিশন’-এর এআইসি-রেইসের (AIC-RAISE) দ্বারা ‘ন্যাশনাল সাসটেনেবিলিটি ইমপ্যাক্ট ইনস্টিটিউশনস র‍্যাঙ্কিং’ (NSIIR)-এর শীর্ষ স্থান অর্জন টেকসই উন্নয়ন এবং শ্রেষ্ঠত্বের প্রতি এই বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিশ্রুতিকেই সুনিশ্চিত করে।

‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’র বাণিজ্যিক প্রোগ্রামগুলি আন্তর্জাতিক ‘এক্রেডিটেশন কাউন্সিল ফর বিজ়নেস এডুকেশন’ (IACBE)-এর বিশেষ স্বীকৃতি পেয়েছে। পাশাপাশি এই বিশ্ববিদ্যালয় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ‘অ্যাসোসিয়েশন টু অ্যাডভান্স কলেজিয়েট স্কুলস অফ বিজ়নেস’ (AACSB)-এরও গর্বিত সদস্য। এনআইআরএফ (NIRF) ২০২৩-তে আইন শিক্ষায় ২৫তম স্থান এবং ‘টাইমস বি-স্কুল র‌্যাঙ্কিংস’ ২০২৪ অনুযায়ী, দক্ষিণ ভারতে তৃতীয় সেরা ‘বি-স্কুল’ এবং ভারতে প্লেসমেন্টের জন্য সপ্তম সেরা বিজ়নেস স্কুল-সহ ধারাবাহিক উচ্চ র‍্যাঙ্কিং শীর্ষ মানের শিক্ষাদানে ‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’র নিষ্ঠাকেই তুলে ধরে।

এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ফ্যাকাল্টি হিসেবে যাঁরা রয়েছেন, প্রত্যেকেই প্রতিভাধর, দূরদর্শী এবং নানা শীর্ষস্থানীয় আন্তর্জাতিক সম্মানে ভূষিত। শিক্ষাক্ষেত্রের সীমানাকে নিত্য প্রসারিত করে বিশ্বের সামগ্রিক উন্নয়নের লক্ষ্যে কাজ করে চলেছেন তাঁরা। তাই ‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’ কেবল একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নয়, এটি শিক্ষা ক্ষেত্রে রূপান্তরের এক অনুঘটক, যা শিক্ষার্থীদের সমালোচনামূলক ভাবনা এবং গোটা বিশ্বকে পালটে দেওয়ার ক্ষমতা অর্জনে সক্ষম করে তোলে।

এই প্রতিবেদনটি ‘অ্যালায়েন্স ইউনিভার্সিটি’র সঙ্গে আনন্দবাজার ব্র্যান্ড স্টুডিয়ো দ্বারা যৌথ উদ্যোগে প্রকাশিত।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

bengaluru Education university
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:

Share this article

CLOSE