• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

বঞ্চনার অভিযোগে বড় আন্দোলনের পথে, ওলা-উবর চালকদের পাশে মদন

madan
প্রেস ক্লাবে মদন মিত্র।—নিজস্ব চিত্র.

Advertisement

অ্যাপ ক্যাব সংস্থাগুলির বিরুদ্ধে বঞ্চনার অভিযোগে সরব গাড়ির মালিকেরা। তাঁদের অভিযোগ, ক্যাব সংস্থাগুলি যাত্রীদের ঠকিয়ে বেশি টাকা আদায় করছে। কিন্তু তাঁদের সেই তুলনায় কমিশন দেওয়া হচ্ছে না। ফলে গাড়ি চালিয়ে মুনাফা হচ্ছে না। উল্টে ব্যবসায় লোকসান হচ্ছে। এর পর বিভিন্ন কারণ দেখিয়ে, সংস্থার তরফে জরিমানা করা হচ্ছে। এই সমস্যার দ্রুত সমাধান না হলে, আন্দোলনের পথে যাওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন গাড়ির মালিক এবং চালকেরা। ফলে যাত্রী পরিষেবা আগামী দিনে ব্যহত হওয়ার আশঙ্কাও তৈরি হয়েছে।

শনিবার গাড়ির চালকদের পাশে দাড়িয়ে প্রেস ক্লাবে সাংবাদিক সম্মেলন করে মদন মিত্র বলেন, আমার এর তীব্র প্রতিবাদ করছিল। ১০ তারিখের মধ্যে সমস্যা মিটিয়ে না নিলে প্রথমে বুকে কালো ব্যাচ লাগিয়ে প্রতিবাদ জানাব। তার পর মিছিল করব। তাতেও যদি সমস্যার সমাধান না হয়, তাহলে রাস্তায় গাড়ি দাঁড়িয়ে যাবে। সব চালক ওলা-উবরের দফতরে গিয়ে চাবি জমা দিয়ে আসবে।

এমনিতেই ওলা-উবরের বিরুদ্ধে যখন-তখন অতিরিক্ত ভাড়া নেওয়া অভিযোগ করে থাকেন যাত্রীরা। এ নিয়ে আগেই সতর্ক করেছিল রাজ্যের পরিবহণ দফতর। নির্দিষ্ট হারে সার্জ চার্জ যাতে নেয় ক্যাব সংস্থাগুলি, সে বিষয়ে একটি নজরদারি কমিটিও গঠন করা হয়েছে। যাত্রীদের অভিযোগ, এর পরেও আপন মর্জিতে চলছে ওলা-উবের। এ বিষয়েও সরব হন মদন মিন্ত্র। তিনি বলেন, “রাজ্য সরকার নিজেই অন লাইন ক্যাব নামাতে পারে। তাতে যেমন বেকার যুবকেরা চাকরি পাবে। আবার ভাড়াও নিয়ন্ত্রণে থাকবে।”

আরও পড়ুন: হ্যাল ধুঁকছে আর্থিক সঙ্কটে! প্রকাশ্যে এল রিপোর্ট​

আরও পড়ুন: কর্মী নেই, রেকের দুর্দশা, মেট্রোর বেহাল ছবি, অন্তর্তদন্তে আনন্দবাজার​

তাঁর অভিযোগ, এত টাকা কেটে নিচ্ছে ওলা-উবর, যে গাড়ির মালিকেরা মাসিক কিস্তি দিতে পারছে না। কালো ব্যাচ লাগিয়ে কাজ না হলে, গাড়িতে কালো পতাকা লাগানো হবে। তবে তিনি চালকদের মনে করিয়ে দেন এ নিয়ে ধর্মঘট করা হবে না।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন
বাছাই খবর

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন