রাজ্যে গণতন্ত্রকে ধ্বংস করতে শাসক দল বীরভূম জেলাকে ‘মডেল’ হিসেবে তৈরি করেছে— এমনই অভিযোগ তুলল সিপিএম। পাশাপাশি দলীয় নেতৃত্ব জানালেন, আগামী দিনে তা-ই বীরভূম থেকেই শাসকের বিরুদ্ধে প্রত্যাঘাত শুরু হবে। ৩০ সেপ্টেম্বর থেকে ২ অক্টোবর পর্যন্ত জেলা জুড়ে পালিত হবে সিপিএমের ‘লং মার্চ’ কর্মসূচি। তা নিয়ে বুধবার রামপুরহাটে দলীয় কার্যালয়ে সাংবাদিক সম্মেলন করলেন দলের জেলা সম্পাদক মনসা হাঁসদা।

তিনি বলেন, ‘‘রাজ্যে ক্রমশ ছড়িয়ে পড়ছে সাম্প্রদায়িকতার রাজনীতি। সঙ্গে জুড়েছে স্বৈরাচার, প্রতারণা এবং দুর্নীতি। এ সব থেকে মুক্ত হওয়ার জন্য প্রতিবাদ করা জরুরি।’’ তিনি জানান, সেই কারণেই জেলায় ২০০ কিলোমিটার দীর্ঘ পথে ৩০ সেপ্টেম্বর থেকে ২ অক্টোবর পর্যন্ত পদযাত্রা কর্মসূচির ডাক দেওয়া হয়েছে। তাতে সিপিএম প্রভাবিত শ্রমিক, কৃষক, খেতমজুর, মহিলা, যুব এবং ছাত্র সংগঠন যোগ দেবে। জেলার ৩ হাজার ২১টি বুথের প্রতিটি থেকে এক জন করে বুথকর্মীও তাতে সামিল হবেন।

সিপিএম সূত্রে খবর, ৩০ সেপ্টেম্বর সকাল সাড়ে ৯টায় বীরভূম জেলার চারটি প্রান্ত থেকে পদযাত্রা শুরু হবে। মিছিল হবে লোহাপুর থেকে সিউড়ি, দুবরাজপুর থেকে সিউড়ি, রাজনগর থেকে সিউড়ি এবং কোটাসুর থেকে সিউড়ির দিকে। ওই কর্মসূচির পরে ২ অক্টোবর সিউড়ি জেলা স্কুল মাঠে প্রকাশ্য সমাবেশে বক্তব্য রাখবেন সূর্যকান্ত মিশ্র।

সিপিএম জেলা সম্পাদক জানান, ওই কর্মসূচি চলাকালীন জেলার বিভিন্ন প্রান্তে ২৩টি জনসভা, ১৮–২২ সেপ্টেম্বর ব্লকভিত্তিক কনভেনশন, ১০-২০ সেপ্টেম্বর বুথভিত্তিক পদযাত্রা পোস্টার প্রদর্শনী, পথনাটক হবে।

বুধবার রামপুরহাটের দলীয় কার্যালয়ে ওই সাংবাদিক বৈঠকে জেলা সম্পাদক মণ্ডলীর সদস্য সঞ্জীব বর্মণ, অন্য নেতারা উপস্থিত ছিলেন। সঞ্জীববাবু বলেন, ‘‘কর্মসূচির দাবিগুলির কথা জানাতে বুথস্তরের কর্মীরা বাড়ি বাড়ি ঘুরবেন।’’

দলীয় সূত্রে খবর, যে দাবিগুলি নিয়ে সিপিএম নেতৃত্ব ওই কর্মসূচির ডাক দিয়েছে সেগুলির মধ্যে রয়েছে— বোলপুরের শিবপুর মৌজার মতো দুবরাপুরের চিনপাইয়ে বারুদ কারখানা, রাজনগরে সিসল ফার্ম, আমোদপুর চিনিকল সরকার অধিগৃহীত শিল্পতালুকে গড়ে তোলা। মহম্মদবাজারে কয়লাশিল্প গড়ে তুলতেও সরকারকে সদর্থক পদক্ষেপ করার দাবি রয়েছে। জেলার পাথর শিল্পাঞ্চল থেকে শাসক দলের সমর্থকদের তোলাবাজি বন্ধ করা, বালি মাফিয়ারাজ বন্ধ করার দাবিও জানানো হবে। দাবি থাকবে আবদারপুর, মুরারই, নলহাটি, রামপুরহাট, সাঁইথিয়ায় রেলের উড়ালপুল দ্রুত নির্মাণেরও। প্রতিবাদ হবে জেলায় আদিবাসী ছাত্রাবাস বন্ধের। ১০০ দিনের কাজ, আবাস যোজনা সহ বিভিন্ন সরকারি ও পুরসভা এলাকায় বিভিন্ন প্রকল্পে দুর্নীতি রুখতে সাধারন মানুষকে পথে নামার ডাক দিয়েছেন সিপিএম নেতৃত্ব।