Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৯ অক্টোবর ২০২১ ই-পেপার

WB Election: ‘আর কোনও আসনে দাঁড়াব না’, মমতার স্পষ্ট জবাবে কটাক্ষের তির মোদী-শাহকে

নিজস্ব সংবাদদাতা
দিনহাটা ০২ এপ্রিল ২০২১ ২১:৫৫


গ্রাফিক: শৌভিক দেবনাথ।

আর অন্য কোনও কেন্দ্র থেকে ভোটে লড়বেন না মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এ বার স্পষ্ট ভাষায় সে কথা জানিয়ে দিলেন তিনি। নন্দীগ্রাম ছাড়া অন্য কোনও আসনে মমতা লড়বেন না বলে বৃহস্পতিবারই জানিয়েছিল তৃণমূল। এ বার মুখ খুললেন মমতা। শুক্রবার দিনহাটার জনসভা থেকে নিজেই সে কথা জানিয়ে দিলেন মমতা। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর কটাক্ষের জবাব দিয়ে সাফ বললেন, নীলবাড়ির লড়াইয়ে নন্দীগ্রাম ছাড়া দ্বিতীয় কোনও আসনে প্রার্থী হচ্ছেন না তিনি। একই সঙ্গে অমিত শাহ সম্পর্কে মোদীর উদ্দশে মমতার বার্তা, ‘হোম মিনিস্টারকে আগে কন্ট্রোল করুন’।

শুক্রবার উত্তরবঙ্গ সফরে গিয়েছেন মমতা। বিধানসভা নির্বাচনের চতুর্থ দফায় ১০ এপ্রিল কোচবিহারের ৯টি আসনে ভোটগ্রহণ। তার মধ্যে দিনহাটা, তুফানগঞ্জ কেন্দ্রও রয়েছে। শুক্রবার ওই দু’জায়গাতেই জনসভা করেন তৃণমূলনেত্রী। দিনহাটার সভায় তিনি বলেন, ‘‘নন্দীগ্রাম ছাড়া দ্বিতীয় কোনও আসনে দাঁড়াব না।’’

দ্বিতীয় আসনে দাঁড়ানো নিয়ে উত্তরবঙ্গের জনসভা থেকে মোদীর পাশাপাশি কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকেও আক্রমণ করেছেন মমতা। তিনি বলেন, ‘‘প্রধানমন্ত্রীকে বলব, আপনি আপনার হোম মিনিস্টারকে আগে কন্ট্রোল করুন। তার পর আমাদের কন্ট্রোল করতে আসবেন। আমি আপনার দলের লোক নই যে আপনি আমাকে কন্ট্রোল করতে পারবেন। আর আমি আপনার দলের লোক নই যে আর এক জায়গা থেকে ইলেকশনে দাঁড়াতে আপনি আমাকে পরামর্শ দেবেন।’’

Advertisement

প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবার দক্ষিণ ২৪ পরগনার মথুরাপুরের সভা থেকে মমতাকে কটাক্ষ করেন মোদী। নন্দীগ্রামে ভোটগ্রহণের দিনে তাঁর মন্তব্য, ‘‘দিদি, এটা কি সত্যি যে আপনি নন্দীগ্রাম ছাড়াও অন্য আসনে মনোনয়ন জমা দিচ্ছেন? প্রথমে আপনি নন্দীগ্রামে গেলেন। মানুষ তার জবাব দিয়েছে। এ বার যদি অন্যত্র যান, তবে বাংলার মানুষও আপনাকে সঠিক জবাব দেওয়ার জন্য তৈরি রয়েছে।’’

এর পরেই তৃণমূলের তরফে মোদীকে আক্রমণ করা হয়েছে। মোদীকে খোঁচা দিয়ে টুইটারে তৃণমূলের পরামর্শ দেয়, ‘২০২৪-এ ( আগামী লোকসভা নির্বাচনে) বারাণসী ছাড়াও অন্য কোনও নিরাপদ আসনের খোঁজ করুন। কারণ, ওই আসনে কঠিন চ্যালেঞ্জের মুখে পড়বেন’।


নিজের বরাবরের কেন্দ্র ভবানীপুর ছেড়ে নন্দীগ্রামে দাঁড়ানোর কথা ঘোষণা করেছিলেন মমতা। তার পরেও রাজনৈতিক মহলে জল্পনা ছিল, হয়তো ভবানীপুরেও দাঁড়াতে পারেন তিনি। তেমন ইঙ্গিত তিনিই দিয়েছিলেন। সেটা না হলেও এখনও মনোনয়ন জমা দেওয়ার সময় রয়েছে এমন কোনও আসনে মমতা প্রার্থী হতে পারেন বলে গেরুয়াশিবির দাবি করছিল। তবে বৃহস্পতিবারই তৃণমূলের শীর্ষ নেতৃত্ব জানিয়ে দেয় যে, নন্দীগ্রাম ছাড়া অন্য কোনও আসনে দেখা যাবে না দলের নেত্রীকে। মোদীর কটাক্ষের জবাবে তৃণমূলের তরফে টুইট করে বলা হয়, ‘নন্দীগ্রামে দিদিই জিতছেন। তাঁর অন্য কোনও আসনে দাঁড়ানোর প্রশ্নই নেই।’ ওই টুইটেই মোদীকে কটাক্ষ করে তৃণমূল বলে, ‘নরেন্দ্র মোদীজি, মানুষকে ভুলপথে চালিত করার চেষ্টা থেকে বিরত হোন। না হলে মনোনয়ন শেষ হওয়ার আগেই পশ্চিমবঙ্গের মানুষ আপনার মিথ্যা ধরে ফেলবে’।

আরও পড়ুন

Advertisement