Advertisement
০৩ মার্চ ২০২৪
National News

পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষ, বাহিনীতে আসছে দেশের সেরা ক্ষেপণাস্ত্র

সরকারি সূত্র্রের খবর, গোটা চিনকে পাল্লার মধ্যে নিয়ে আসার সেই আন্তর্মহাদেশীয় ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র (আইসিবিএম) ‘অগ্নি-৫’-এর যাবতীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষাই প্রায় শেষ পর্যায়ে। ভারতের প্রথম আইসিবিএম ‘অগ্নি-৫’-এর পাল্লা সাড়ে ৫ হাজার কিলোমিটারেরও বেশি।

‘অগ্নি-৫’। -ফাইল চিত্র।

‘অগ্নি-৫’। -ফাইল চিত্র।

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ০১ জুলাই ২০১৮ ১৫:৩৫
Share: Save:

তূণীরের সেরা ‘বাণ’টি আর কিছু দিনের মধ্যেই আসতে চলেছে ভারতের সেনাবাহিনীর অস্ত্রভাঁড়ারে।

সরকারি সূত্র্রের খবর, গোটা চিনকে পাল্লার মধ্যে নিয়ে আসার সেই আন্তর্মহাদেশীয় ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র (আইসিবিএম) ‘অগ্নি-৫’-এর যাবতীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষাই প্রায় শেষ পর্যায়ে। ভারতের প্রথম আইসিবিএম ‘অগ্নি-৫’-এর পাল্লা সাড়ে ৫ হাজার কিলোমিটারেরও বেশি। তার মানে, বেজিং, সাংহাই, গুয়াংঝৌ-সহ চিনের সবক’টি গুরুত্বপূর্ণ শহরই এসে পড়বে ‘অগ্নি-৫’-এর আওতায়। থাকবে হংকংও।

আইসিবিএম: ষষ্ঠ দেশ ভারত

এই আইসিবিএমের থাকবে পরমাণু অস্ত্র বহন করার ক্ষমতা। আমেরিকা, চিন, রাশিয়া, ফ্রান্স ও উত্তর কোরিয়ার পর এ বার আইসিবিএম আসছে ভারতীয় সেনাবাহিনীর অস্ত্রভাঁড়ারেও।

প্রতিরক্ষা মন্ত্রক সূত্রের খবর, দু’-এক মাসের মধ্যেই ‘অগ্নি-৫’-কে নিয়ে আসা হবে ভারতীয় সেনাবাহিনীর স্ট্র্যাটেজিক ফোর্সেস কম্যান্ড (এসএফসি)-র অস্ত্রভাঁড়ারে। গত মাসেই ওডিশার উপকূলে পরীক্ষামূলক উৎক্ষেপণ হয় ‘অগ্নি-৫’-এর। আগামী কয়েক সপ্তাহে আরও কয়েক বার হবে ‘অগ্নি-৫’-এর পরীক্ষামূলক উৎক্ষেপণ।

আরও পড়ুন- প্রথম উৎক্ষেপণেই তীব্র উদ্বেগ প্রকাশ করেছিল চিন, জেনে নিন অগ্নি-৫ ঠিক কী?

আরও পড়ুন- ‘অগ্নি ৫’-এর সফল উত্‌ক্ষেপণ করল ভারত​

সেনাবাহিনীর এক কর্তা জানিয়েছেন, ‘অগ্নি’ সিরিজের (অগ্নি-১, অগ্নি-২, অগ্নি-৩, অগ্নি-৪ এবং অগ্নি-৫) যতগুলি ক্ষেপণাস্ত্র এখনও পর্যন্ত ভারত বানিয়েছে দেশীয় প্রযুক্তিতে, তাদের মধ্যে প্রযুক্তি, পাল্লা ও পরমাণু অস্ত্র বহনের ক্ষমতা, সব দিক থেকেই অনেকটা এগিয়ে রয়েছে ‘অগ্নি-৫’।

‘অগ্নি-৫’-এর বিশেষত্ব

৫০ হাজার কিলোগ্রাম ওজনের প্রায় সাড়ে ১৭ মিটার লম্বা ‘অগ্নি-৫’ (ব্যাস সাড়ে ৬ ফুটের কিছু বেশি) বহন করতে পারবে দেড় হাজার কিলোগ্রাম ওজনের পরমাণু অস্ত্র। ভারত ‘অগ্নি’ সিরিজের আরও একটি ক্ষেপণাস্ত্র বানাচ্ছে। ‘অগ্নি-৬’। যার পাল্লা হবে গোটা বিশ্ব।

ভারতের তরফে ‘অগ্নি-৫’-এর পাল্লা সাড়ে ৫ হাজার কিলোমিটারের বেশি বলে দাবি করা হলেও, চিন বলছে, ওই ক্ষেপণাস্ত্রের পাল্লা আদতে ৮ হাজার কিলোমিটার। তার মানে চিনের গোটা ভূখণ্ডই থাকবে ‘অগ্নি-৫’-এর পাল্লার মধ্যে। দেশীয় প্রযুক্তিতে ভারতের বানানো প্রথম ক্ষেপণাস্ত্র ‘অগ্নি-১’-এর পাল্লা ছিল ৭০০ কিলোমিটার। ‘অগ্নি-২’-এর পাল্লা ছিল প্রায় আড়াই হাজার কিলোমিটার। আর ‘অগ্নি-৩’ এবং ‘অগ্নি-৪’-এর পাল্লা আড়াই হাজার থেকে সাড়ে ৩ হাজার কিলোমিটারের কিছু বেশি। ‘অগ্নি’ সিরিজের আগের ক্ষেপণাস্ত্রগুলির কোনওটিই ছিল না আইসিবিএম। দেশের প্রথম আইসিবিএম ‘অগ্নি-৫’।

‘অগ্নি-৫’-এর পরীক্ষামূলক উৎক্ষেপণের দিনক্ষণ

দেশের প্রথম আইসিবিএম ‘অগ্নি-৫’-এর প্রথম পরীক্ষামূলক উৎক্ষেপণ হয়েছিল ২০১২-র ১৯ এপ্রিল। দ্বিতীয় উৎক্ষেপণটি হয় ২০১৩ সালের ১৫ সেপ্টেম্বর, তৃতীয়টি ২০১৫-র ৩১ জানুয়ারিতে। চতুর্থ পরীক্ষামূলক উৎক্ষেপণটি হয়েছিল ২০১৬ সালের ২৬ ডিসেম্বর আর আপাতত সর্বশেষ উৎক্ষেপণটি হয়েছে গত ১৮ জানুয়ারি।

গ্রাফিক: শৌভিক দেবনাথ।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE