Advertisement
১৬ জুন ২০২৪
Pension Scheme

চাপের মুখে পেনশন প্রকল্প শোধরাতে কমিটি কেন্দ্রের

বর্তমানে চালু জাতীয় পেনশন প্রকল্পে পেনশনের অঙ্কের কোনও নিশ্চয়তা না থাকায় রাজ্যে রাজ্যে পুরনো পেনশন প্রকল্প ফেরানোর দাবি উঠেছে।

Picture of Nirmala Sitharaman.

কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন। ফাইল চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ২৫ মার্চ ২০২৩ ০৭:০২
Share: Save:

২০২৪-এর লোকসভা ভোটের আগে সরকারি কর্মচারীদের ক্ষোভ নিরসনে বাজপেয়ী সরকারের আমলে চালু জাতীয় পেনশন প্রকল্প শোধরানোর সিদ্ধান্ত নিল নরেন্দ্র মোদী সরকার।

বর্তমানে চালু জাতীয় পেনশন প্রকল্পে পেনশনের অঙ্কের কোনও নিশ্চয়তা না থাকায় রাজ্যে রাজ্যে পুরনো পেনশন প্রকল্প ফেরানোর দাবি উঠেছে। বেশ কিছু কংগ্রেস ও অন্যান্য বিরোধী শাসিত রাজ্য পুরনো পেনশন প্রকল্পে ফেরার সিদ্ধান্তও নিয়েছে। ২০২৪-এর লোকসভা নির্বাচনের আগে কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীরাও পুরনো পেনশন প্রকল্প ফেরানোর দাবি তুলবেন বলে ইঙ্গিত মিলেছে।

এই চাপের মুখে আজ মোদী সরকার জাতীয় পেনশন প্রকল্প পর্যালোচনার সিদ্ধান্ত ঘোষণা করল। আজ কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন লোকসভায় অর্থ বিল পাশের সময় ঘোষণা করেছেন, বর্তমান পেনশন ব্যবস্থা খতিয়ে দেখতে কেন্দ্রীয় অর্থসচিবের নেতৃত্বে একটি কমিটি তৈরি হবে। এমন একটি ব্যবস্থা তৈরির চেষ্টা হবে, যেখানে সরকারি কর্মচারীদের অভাব-অভিযোগও মেটে, আবার সরকারি কোষাগারে চাপও না পড়ে। এমন ভাবে নতুন পেনশন ব্যবস্থা তৈরি হবে, যা কেন্দ্র ও রাজ্য, দুই জায়গাতেই চালু করা যায়। সরকারি সূত্রের বক্তব্য, বর্তমানে চালু জাতীয় পেনশন প্রকল্পে পেনশনের কোনও ন্যূনতম গ্যারান্টি নেই। কোনও ভাবে পেনশনের ন্যূনতম গ্যারান্টির ব্যবস্থা করা যায় কি না, তারই পথ খোঁজা হবে। অর্থমন্ত্রী সংসদে বলেছেন, ‘‘সরকারি কর্মীদের জাতীয় পেনশন প্রকল্প আরও ভাল করার প্রয়োজন রয়েছে বলে সরকারের কাছে আর্জি জমা পড়েছে। এ বিষয়ে খতিয়ে দেখতে অর্থসচিবের নেতৃত্বে কমিটি তৈরির প্রস্তাব রাখছি।’’

অটলবিহারী বাজপেয়ী সরকারের শেষবেলায় ২০০৪-এর ১ জানুয়ারি থেকে কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারীদের পুরনো পেনশন প্রকল্প তুলে দিয়ে নতুন পেনশন প্রকল্প চালু হয়েছিল। কেন্দ্রের দেখাদেখি প্রতিটি রাজ্যেও একই ব্যবস্থা চালু হয়েছে। এক মাত্র পশ্চিমবঙ্গ ছাড়া। আগের ব্যবস্থায় ২০ বছর চাকরির পরে অবসর নিলে শেষ পাওয়া মূল বেতনের ৫০ শতাংশ পেনশন মিলত। নতুন পেনশন প্রকল্পে চাকুরিরত অবস্থায় কর্মীদের মূল বেতন ও মহার্ঘ ভাতার ১০ শতাংশ কেটে নিয়ে পেনশন তহবিলে জমা হয়। কেন্দ্র বা রাজ্য সরকার কর্মীদের পেনশন খাতায় জমা করে ১৪ শতাংশ। পেনশন তহবিলের টাকা শেয়ার বাজারে লগ্নি করে যা লাভ হয়, সেটাই পেনশন দেওয়া হয়। সেটা মূল বেতনের ৫০ শতাংশ হতে পারে। ৫ শতাংশও হতে পারে। কোনও গ্যারান্টি নেই।

ঠিক মতো পেনশন না মেলায় রাজ্য সরকারি কর্মীদের দাবির মুখে ছত্তীসগঢ়, রাজস্থান, পঞ্জাব, ঝাড়খণ্ড, হিমাচলে রাজ্য সরকার পুরনো পেনশন প্রকল্প ফেরানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ভোটমুখী কর্নাটক, মধ্যপ্রদেশে সরকারি কর্মীরা পুরনো পেনশন প্রকল্প ফেরানোর দাবিতে আন্দোলনে নামছেন। মহারাষ্ট্রে ১৭ লক্ষ কর্মী ধর্মঘটে নেমেছেন। এত দিন কেন্দ্রীয় সরকার এর বিরোধিতা করেছে। কিন্তু সম্প্রতি কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারী সংগঠনগুলিও পুরনো পেনশন প্রকল্প ফেরানোর দাবি তুলতে শুরু করেছে। সরকারি সূত্রের ব্যাখ্যা, কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মীদের আন্দোলন শুরুর আগেই ধামাচাপা দিতে আজকের সিদ্ধান্ত।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Pension Scheme Nirmala Sitharaman
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE