Advertisement
০৩ মার্চ ২০২৪
G-20

জি-২০ বৈঠকে যোগ দিতে দিল্লি আসছেন আমেরিকার বিদেশসচিব, যোগ দেবেন কোয়াড, রাইসিনা সংলাপেও

রাইসিনা সংলাপের সহ-আয়োজক ‘অবজার্ভার রিসার্চ ফাউন্ডেশন’-এর তরফে ইরানের সাম্প্রতিক হিজাব বিরোধী আন্দোলনের ছবি প্রচার করার প্রতিবাদে এই কর্মসূচি থেকে সরে দাঁড়িয়েছে তেহরান।

US Secretary of State Antony Blinken to attend Raisina Dialogue, G20 Foreign Ministers

তিন দিনের দিল্লি সফরে আসছেন আমেরিকার বিদেশসচিব অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেন। ফাইল চিত্র।

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ ০৯:৩২
Share: Save:

নতুন বছরে রাজধানী দিল্লিতে আয়োজিত প্রথম আন্তর্জাতিক সম্মেলন ‘রাইসিনা সংলাপে’ যোগ দেবেন আমেরিকার বিদেশ সচিব অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেন। আগামী সপ্তাহে ওই কর্মসূচিতে যোগ দেওয়ার পর বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্করের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে অংশ নেবেন তিনি। এর পর যোগ দেবেন জি-২০ এবং ‘কোয়াডের’ (ভারত, আমেরিকা, জাপান এবং অস্ট্রেলিয়াকে নিয়ে গঠিত চতুর্দেশীয় অক্ষ) বিদেশমন্ত্রী স্তরের বৈঠকে।

আমেরিকার বিদেশ দফতরের তরফে এ কথা জানিয়ে বলা হয়েছে, আগামী ১-৩ মার্চ ৩ দিনের ভারত সফরে ‘রাইসিনা সংলাপ’, জি-২০ এবং ‘কোয়াড’ বৈঠকে যোগ দেবেন ব্লিঙ্কেন। প্রসঙ্গত, গত ১ ডিসেম্বর ইন্দোনেশিয়ার বালিতে জি-২০ রাষ্ট্রগোষ্ঠীর শীর্ষবৈঠকে আনুষ্ঠানিক ভাবে সংগঠনের সভাপতি নির্বাচিত হয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

ব্লিঙ্কেনের পাশাপাশি ইরানের বিদেশমন্ত্রী হোসেন আমির-আবদোল্লাহিঁয়া দিল্লিতে অনুষ্ঠিত ‘রাইসিনা সংলাপে’ হাজির হলে তা বাড়তি কূটনৈতিক গুরুত্ব পেত। মার্কিন ড্রোন হামলায় ২০২০ সালে ইরানের সামরিক কমান্ডার কাসেম সোলেমানির হত্যার পর এই প্রথম সে দেশের কোনও শীর্ষস্তরের মন্ত্রী দেশের বাইরে পা রাখার কথা ছিল। কিন্তু রাইসিনা সংলাপের সহ-আয়োজক ‘অবজার্ভার রিসার্চ ফাউন্ডেশন’-এর তরফে ইরানের সাম্প্রতিক হিজাব বিরোধী আন্দোলনের ছবি প্রচার করার প্রতিবাদে শেষ মুহূর্তে এই কর্মসূচি থেকে সরে দাঁড়িয়েছে তেহরান।

অন্য দিকে, বৈঠকে ইউক্রেন যুদ্ধের ফলে ধাক্কা লাগা সামগ্রিক অর্থনীতিতে স্থিতাবস্থা ফেরানো নিয়ে আলোচনা হতে পারে। সেই সঙ্গে চিনের উপর চাপ বাড়িয়ে উন্নয়নশীল দেশগুলির ঋণের বোঝা কমানোর উপায় খোঁজার নিয়েও কথা হওয়ার সম্ভাবনা। শ্রীলঙ্কার দেউলিয়া হওয়ার উদাহরণ তুলে ধরে আমেরিকা-সহ পশ্চিমি দুনিয়ার বক্তব্য, চিন যে হেতু কম ও মাঝারি আয়ের দেশগুলিকে বিপুল ঋণ দিয়েছে, সেগুলি আংশিক মকুব করার কথা ভাবুক। পাশাপাশি, বিশ্বজুড়ে খাদ্য সঙ্কটের সমাধানে ১,৩৫০ কোটি ডলারের (প্রায় ১ লক্ষ ১২ হাজার কোটি টাকা) সহায়তা কর্মসূচি ঘোষণা করেত পারেন তিনি।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE