• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

‘রাজনীতি শুরু হয়েছে’, রাশিয়া বিঁধল ট্রাম্পকে

করোনা নিয়ে চিনকে আড়াল করার অভিযোগে গত কাল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু)-কে ব্যাপক ভাবে বিঁধেছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। হু-কে পাকাপাকি ভাবে অনুদান বন্ধ করে দেওয়ার হুমকিও দিয়েছেন তিনি। আজ তার পাল্টা জবাব দিয়ে ট্রাম্পকে বিঁধল রাশিয়া— ‘‘আমেরিকা আর তাদের কিছু সঙ্গী দেশ রাজনীতি শুরু করেছে।’’ চিন-আমেরিকা-রাশিয়া ‘ত্রিকোণ’ বাগযুদ্ধ চলছেই। 
 
গোড়া থেকেই হু-কে আক্রমণ করে আসছেন ট্রাম্প। তাঁর অভিযোগ, ভাইরাস সংক্রমণের উৎসস্থল চিন। কিন্তু সে সব নিয়ে যাবতীয় তথ্য গোপন করে আসছে তারা। আর তাদের মদত দিয়ে যাচ্ছে হু। কিছু দিন আগে ট্রাম্প এ-ও মনে করিয়ে দিয়েছিলেন, হু-কে সব চেয়ে বেশি অঙ্কের অনুদান দিয়ে আসে আমেরিকা। চিন তার ধারেকাছেও যায় না। এর পরেই গত কাল তিনি সরাসরি চিঠি লেখেন হু-র প্রধান টেড্রস অ্যাডানম গেব্রিয়েসাসকে। যা আবার পরে টুইট-ও করেন। চিঠিতে ট্রাম্প লেখেন, ‘‘অতিমারি সামলাতে আপনি ও আপনার সংস্থা যে ভূমিকা নিয়েছে এবং যে ভাবে বারবার ভুল পদক্ষেপ করেছে, তার মূল্য গোটা বিশ্বকে চোকাতে হচ্ছে।’’ আগামী ৩০ দিনের মধ্যে সংস্থার ভূমিকায় কোনও ‘গুরুত্বপূর্ণ বদল’ না এলে গবেষণা ও চিকিৎসার জন্য দেওয়া অনুদান বন্ধ করার হুমকি দিয়েছেন ট্রাম্প। রাশিয়ার উপ-বিদেশমন্ত্রী সের্গেই রিয়াবকভ বলেন, ‘‘ব্যবস্থাপনা আরও ভাল করার সুযোগ রয়েছে ঠিকই... এবং আমরা প্রস্তুত রয়েছি, আগের মতোই— সক্রিয় ভূমিকা নিতে। কিন্তু শুধুমাত্র একটা দেশের রাজনৈতিক-ভূরাজনৈতিক পছন্দ-অপছন্দের জন্য পুরনো যা রয়েছে, সব কিছু ভেঙে দেওয়ার পক্ষপাতী নই।’’ আরও বলেন, ‘‘আমেরিকা ও তার সঙ্গে অন্য কিছু দেশ উঠেপড়ে লেগেছে। কোভিড-১৯ সংক্রান্ত যা কিছু নিয়ে রাজনীতি করার বিপক্ষে আমরা।’’ 
 

বিশ্বে করোনা

মৃত 
৩,২৭,৪৬২
আক্রান্ত 
৫০,৪৫,৪৬৬
সুস্থ 
১৯,৯৮,৭৭৯

 

 
গোটা বিশ্বে সংক্রমণের সংখ্যা ৫০ লাখ ছাড়িয়েছে আজ। মৃত্যু পেরিয়ে গিয়েছে ৩ লাখ ২৫ হাজার। আমেরিকায় মৃতের সংখ্যা সাড়ে ৯৩ হাজার। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে মৃত্যু হয়েছে ২৮ জনের। সাম্প্রতিক কালে যা খুবই কম। রাশিয়াতে সংক্রমণ তিন লাখ ছাড়িয়েছে। কিন্তু মৃত্যুহার অনেকটাই কম। সে দেশে মারা গিয়েছেন মোট ২৯৭২ জন। 
 
ইউরোপও ধীরে ধীরে সেরে উঠছে। স্পেন, ইটালি, ব্রিটেনে নতুন করে বড় কোনও দুঃসংবাদ নেই। এক দিনে সব চেয়ে বেশি মৃত্যুর খবর মিলেছে আজ মেক্সিকো থেকে— ৩৩৪ জন । এর মধ্যেই দীর্ঘ লকডাউনের পরে ‘দরজা’ খুলছে একাধিক দেশ। বাইরে অবশ্য অপেক্ষা করছে এক ‘নয়া স্বাভাবিক’ দুনিয়া। স্কুল খুলেছে, কাজ শুরু হয়েছে অফিসে, গণপরিবহণ ব্যবস্থাও চালু হয়েছে, বার-রেস্তরাঁতেও লোকে যাচ্ছেন— কিন্তু সবটাই অন্য রকম। পারস্পরিক দূরত্ব বজায় রাখার নিয়ম মেনে লকডাউন পরবর্তী নতুন জীবন। 
 
রাষ্ট্রপুঞ্জের মহাসচিব আন্তোনিয়ো গুতেরেস অবশ্য আরও বড় বিপদের আশঙ্কা করছেন। তাঁর কথায়, ‘‘এ বার আফ্রিকায় ভয়াবহ রূপ নিতে চলেছে করোনাভাইরাস। শুধু তা-ই নয়, যার জেরে লক্ষ লক্ষ লোক দুর্ভিক্ষের কবলে পড়বেন।’’ এ পর্যন্ত রাষ্ট্রপুঞ্জের হাতে থাকা খবর অনুযায়ী, আফ্রিকার সব দেশে ঢুকে পড়েছে করোনা। মৃত্যু গুটি গুটি পায়ে ছুঁয়েছে ২৫০০। কিন্তু ‘এ সবে শুরু’ বলেও জানিয়ে দিয়েছে রাষ্ট্রপুঞ্জ।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন