• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ২০ হাজার ছুঁইছুঁই, মৃত বেড়ে ৬৪০

gfx
গ্রাফিক: শৌভিক দেবনাথ।

সাড়ে ১৮ হাজার ছাড়িয়ে গেল দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের রিপোর্ট অনুযায়ী, দেশে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১৮৯৮৫। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ১৩২৯ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ৪৪ জনের। ফলে মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৬০৩। সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৩২৫৯ জন।

আক্রান্তের সংখ্যার নিরিখে দেশের মধ্যে শীর্ষস্থানে রয়েছে মহারাষ্ট্র। সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ইতিমধ্যেই সাড়ে ৪ হাজার ছাড়িয়েছে। মোট আক্রান্ত ৪৬৬৯। মৃত্যুর নিরিখেও শীর্ষে এই রাজ্য। এখনও পর্যন্ত ২৩২ জনের মৃত্যু হয়েছে এই রাজ্যে।

মহারাষ্ট্রের পরই রয়েছে দিল্লি। সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা ২০৮১। মৃত্যু হয়েছে ৪৭ জনের। এর পরে রয়েছে গুজরাত। সেখানে আক্রান্তের সংখ্যা দু’হাজার ছুঁইছুঁই। মৃত্যু হয়েছে ৭১ জনের। করোনায় আক্রান্তের সংখ্যার নিরিখে মহারাষ্ট্র, দিল্লি ও গুজরাতের পর রয়েছে রাজস্থান (১৫৭৬), তামিলনাড়ু (১৫২০), মধ্যপ্রদেশ (১৪৮৫) এবং উত্তরপ্রদেশ (১১৮৪)। 

গ্রাফিক আপডেট হচ্ছে। 

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের হিসাব অনুযায়ী,  পশ্চিমবঙ্গে ৩৯২ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৫৩ জন। যদিও রাজ্য সরকারের দেওয়া হিসেব অনুযায়ী, এ রাজ্যে মোট আক্রান্ত ২৭৪ জন। মৃত্যু হয়েছে ১২ জনের। 

সোমবারই স্বাস্থ্য মন্ত্রকের তরফে দাবি করা হয়েছে, গত সাত দিনের পরিসংখ্যান বিশ্লেষণ করে দেখে গিয়েছে, দেশে সংক্রমণ বৃদ্ধির হার কমেছে। মন্ত্রকের যুগ্মসচিব লব আগরওয়াল জানিয়েছেন, লকডাউনের আগে যেখানে সারা দেশে গড়ে ৩.৪ দিনে আক্রান্তের সংখ্যা দ্বিগুণ হচ্ছিল, এখন তা কমে দাঁড়িয়েছে সাড়ে সাত দিনে। অর্থাত্ ৭.৫ দিনে দ্বিগুণ হচ্ছে দেশে আক্রান্তের সংখ্যা।   

আরও পড়ুন: রাজ্যে এল কেন্দ্রীয় দল, মোদীকে চিঠি ক্ষুব্ধ মমতার

আরও পড়ুন: রাজ্যে এক দিনে করোনা-আক্রান্তের সংখ্যা ৫০ ছাড়াল

লব আগরওয়াল আরও জানিয়েছেন, ১৯ এপ্রিল পর্যন্ত পাওয়া তথ্য অনুযায়ী জাতীয় গড়ের উপরে অর্থাৎ ৭.৫ দিনের বেশি সময়ে কিন্তু ২০ দিনের কম সময়ে আক্রান্ত দ্বিগুণ হচ্ছে, এমন রাজ্যগুলির মধ্যে রয়েছে দিল্লি, কর্নাটক, তেলঙ্গানা, অন্ধ্রপ্রদেশ, বিহারের মতো রাজ্য। আবার ২০ দিনেরও বেশি সময়ে দ্বিগুণ হওয়ার তালিকায় রয়েছে আন্দামান ও নিকোবর দ্বীপপুঞ্জ, হরিয়ানা, হিমাচল প্রদেশ, অসম, উত্তরাখণ্ডের মতো রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল।  অন্য দিকে, সারা দেশে আক্রান্ত দ্বিগুণ হওয়ার হারের চেয়ে ভাল জায়গায় রয়েছে ১৮টি রাজ্য।

(অভূতপূর্ব পরিস্থিতি। স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিয়ো আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, feedback@abpdigital.in ঠিকানায়। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।)

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন