উত্তরপ্রদেশের বিদ্যুৎ বিভাগের কর্মীদের প্রভিডেন্ট ফান্ডের (ইপিএফ) ২৬৩১ কোটি টাকা নিয়ম ভেঙে বেসরকারি সংস্থা দিওয়ান হাউজ়িং ফিনান্স লিমিটেড (ডিএইচএফএল)-এ বিনিয়োগ করার অভিযোগ ঘিরে উত্তাল রাজ্য রাজনীতি।

এই ঘটনায় দুই সরকারি কর্তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এ নিয়ে দুর্নীতির অভিযোগ এনে সরাসরি যোগী আদিত্যনাথের প্রশাসনের দিকে আঙুল তুলেছেন কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়ঙ্কা গাঁধী বঢরা। যদিও উত্তরপ্রদেশ সরকারের দাবি, ২০১৭ সালের মার্চে মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে যোগী আদিত্যনাথ শপথ নেওয়ার দু’দিন আগে ওই টাকা ডিএইচএফএল-এর অ্যাকাউন্টে পাঠানো হয়েছিল। তদন্তভার সিবিআইয়ের হাতে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য সরকার। 

রাজ্য বিদ্যুৎ বিভাগের কর্মীদের ইপিএফের টাকা যে বেসরকারি সংস্থায় পাঠানো নিয়ে শোরগোল, সেটি মাফিয়া ডন দাউদ ইব্রাহিমের প্রয়াত সঙ্গী ইকবাল মির্চির সঙ্গে যুক্ত বলে অভিযোগ। যোগী প্রশাসনের অভিযোগ, এই দুর্নীতির সঙ্গে পূর্বতন অখিলেশ যাদবের সরকার দায়ী। তদন্তেই সব সত্যি প্রকাশ পাবে। বিরোধীরা অবশ্য সরকারের দাবি মানতে নারাজ। 

আরও পড়ুন: এনআরসি বর্তমানের নথি নয়, ভবিষ্যতের ভিত্তি, বললেন প্রধান বিচারপতি