• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

পোগবাকে বর্ণবিদ্বেষী আক্রমণ নিয়ে তীব্র প্রতিক্রিয়া

Reaction against racial abuse to Pogba
চর্চায়: উলভসের বিরুদ্ধে আটকে গেল দল। হতাশ পোগবা। রয়টার্স

চেলসিকে ৪-০ হারানোর পরের ম্যাচেই আটকে গেল ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেড। ইপিএলে উলভারহ্যামটনের মলিনেয়াক্স স্টেডিয়ামে সোমবার খেলার ফল ১-১। ২৭ মিনিটে রেড ডেভিলসকে ১-০ এগিয়ে দেন অ্যান্থনি মার্সিয়াল। ৫৫ মিনিটে ১-১ করেন উলভসের রুবেন নিভস। কিন্তু সব ছাপিয়ে গেল পল পোগবার পেনাল্টি নষ্ট করা নিয়ে তৈরি হওয়া জটিলতা। সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং ওয়েবসাইটে অনেকেই ফরাসি তারকাকে বর্ণবিদ্বেষী আক্রমণ করে বসল। যা দেখে রীতিমতো ক্রুদ্ধ ম্যান ইউয়ে তাঁর সতীর্থেরা। বিরক্ত র‌্যাশফোর্ড লিখলেন, ‘‘ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেড একটা পরিবারের নাম। এই পরিবারের খুবই গুরুত্বপূর্ণ সদস্য পল পোগবা। ওকে কোনও খারাপ কথা বলা মানে আমাদেরও তা বলা।’’ 

কড়া বিবৃতি দিয়েছে ম্যান ইউ ক্লাবও। বলা হয়েছে, ‘‘যারা ব্যক্তিগত ভাবে এই ধরনের মন্তব্য করছে তারা কখনওই ক্লাবের মূল্যবোধের প্রতিনিধিত্ব করে না। আমরা এটা দেখে উৎসাহিত যে, সমর্থকদের একটা বড় অংশ তাদের নিন্দা করেছেন। যে কোনও ধরনের বর্ণবিদ্বেষ বা অসাম্যের আমরা বিরোধী। বহুদিন ধরেই আমাদের বর্ণবিদ্বেষ বিরোধী কমিটি এ সবের বিরুদ্ধে প্রচার করছে। এ বারের ঘটনায় জড়িতদের আমরা চিহ্নিত করার কাজ করব এবং দোষীদের বিরুদ্ধে কঠোরতম ব্যবস্থা নেওয়া হবে। আমরা খুশি হব, যে সমস্ত সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ধরনের কথা বলা হচ্ছে, তারাও যদি কড়া ব্যবস্থা নেয়।’’ এই ঘটনায় নিজের প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন ম্যান ইউয়ের সেন্টার-ব্যাক হ্যারি ম্যাগুইরও। তাঁর সাফ কথা, এই ধরনের ঘটনায় তিনি বীতশ্রদ্ধ। তিনি চান সোশ্যাল মিডিয়ায় কেউ নিজেদের নথিকরণ করতে চাইলে যেন তাদের পরিচিতি ইত্যাদি ভাল করে দেখে নেওয়া হয়। ইপিএলের সংগঠকেরাও উদ্বিগ্ন। কারণ গত মরসুমে ফুটবলারদের উপরে বর্ণবিদ্বেষী আক্রমণ ৪৩ শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছিল। গত সপ্তাহেই চেলসির ট্যামি আব্রাহামকেও একই পরিস্থিতির সামনে পড়তে হয়েছে। যার তীব্র নিন্দা করেন চেলসির ম্যানেজার ফ্রাঙ্ক ল্যাম্পার্ড।        

ম্যান ইউ ম্যানেজার ওয়ে গুন্নার সোলসারও কিন্তু পেনাল্টি নষ্টের জন্য ফরাসি তারকাকে দোষারোপ করার রাস্তায় হাঁটেননি। গত মরসুম থেকে ধরলে পোগবা এই নিয়ে চারটি পেনাল্টি নষ্ট করলেন। সোমবার তিনি নিজে পেনাল্টি মারতে চান। সোলসার ঠিক করে দিয়েছেন, সাধারণ অবস্থায় র‌্যাশফোর্ড বা পোগবার মধ্যে একজন পেনাল্টি মারবেন। কিন্তু পোগবা এ ক্ষেত্রে কাজটা ঠিকঠাক করতে পারলেন না। ফলে ইপিএলে টানা দ্বিতীয় ম্যাচ জয়ের সুযোগ হাতছাড়া হল ম্যান ইউয়ের। সোলসার বলেন, ‘‘ওদের দু’জনকেই পেনাল্টি মারতে বলেছি। এ-ও বলেছি, ওরা মাঠেই যেন ঠিক করে নেয় কে মারবে। তা ছাড়া আজ না পারলেও পল বহু ম্যাচে পেনাল্টি থেকে গোল করেছে। আমি কিন্তু উলভস গোলরক্ষক রুই প্যাত্রিসিয়োকে কৃতিত্ব দেব অসাধারণ সেভ করার জন্য।’’ সোলসার যোগ করেন, ‘‘পেনাল্টি থেকে গোল করার ব্যাপারে ওরা  অসম্ভব আত্মবিশ্বাসী। এই আত্মবিশ্বাসের ব্যাপারটা ভাল লাগে। কখনও-সখনও পেনাল্টি থেকে গোল না হওয়া নিয়ে তাই মাথা 
ঘামাতে চাই না।’’ ম্যান ইউয়ের প্রাক্তন তারকা গ্যারি নেভিল চান দু’জন নন, সোলসারের উচিত একজনকে দায়িত্ব দেওয়া। তা হলে অনেক জটিলতা নাকি শেষ হবে। নেভিল বলেন, ‘‘ড্রেসিংরুমেই সোলসার বলে দিক, কে পেনাল্টি মারবে। দু’জন নয়, বেছে রাখুক একজনকে। না হলে মাঠে এমন অস্বস্তিকর অবস্থা হয় যে তা দেখতে খারাপ লাগে।’’ 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন