কার্যত আগুন জ্বলছে ক্যাটালোনিয়ায়। স্পেনের সুপ্রিম কোর্ট ন’জন স্বাধীনতা সংগ্রামীর ৯ থেকে ১৩ বছর কারাবাসের শাস্তি দিয়েছে। তার পর থেকে সেখানে অগ্নিগর্ভ অবস্থা। 

ব্যতিক্রম নয় রাজধানী বার্সেলোনা। স্বাধীনতা সংগ্রামীদের মুক্তির দাবিতে শহরের সব রাস্তায় অবরোধ চলছে টানা পাঁচ দিন। সঙ্গে অগ্নিসংযোগ ও পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটছে অবিরত। বিক্ষোভকারীরা অবরোধ করে রাখায় কোনও দর্শনীয় স্থানে প্রবেশ করতে পারছেন না পর্যটকেরা। 

এমন একটা অবস্থায় স্পেনীয় ফুটবল সংস্থা বাধ্য হল ২৬ অক্টোবরে অনুষ্ঠিতব্য লা লিগার বার্সেলোনা বনাম রিয়াল মাদ্রিদের ‘এল ক্লাসিকো’ বাতিল করতে। ক্যাম্প ন্যুতে কবে নতুন করে ম্যাচের দিনক্ষণ ঠিক হবে তাও অনিশ্চিত। কমিটি ২১ অক্টোবরের মধ্যে যুযুধান দুই ক্লাবকে আলোচনা করে দিন চূড়ান্ত করার নির্দেশ দিয়েছে। তবে ঐকমত্য না হলে কবে খেলা হবে জানিয়ে দেবে লা লিগা কমিটিই।

স্পেনীয় সংবাদসূত্রের খবর, বার্সেলোনা চায় ক্লাসিকো হোক ১৮ ডিসেম্বর। নতুন একটা তারিখের কথা জানালেও বার্সেলোনা এখনও ২৬ অক্টোবরই ক্যাম্প ন্যুতে ম্যাচ চায়। ‘‘এই তারিখটা তো আমাদের সঙ্গে আলোচনা করে লিগ কমিটি আগেই ঠিক করে ফেলেছে। এখন হঠাৎ কেন নতুন দিনের ভাবনা?’’ বিবৃতিতে বলেছে বার্সেলোনা। 

লা লিগা কমিটি অবশ্য জানিয়েছে ‘এখন হঠাৎ’ কারণ ক্যাটালোনিয়ায় সাম্প্রতিক যা পরিস্থিতি তাতে কিছুতেই ২৬ অক্টোবর ম্যাচ করা যাবে না। বার্সেলোনা কিন্তু বলে দিয়েছে, ‘‘সমর্থকদের উপর আমাদের পূর্ণ আস্থা আছে। কোনও অস্বস্তিকর পরিস্থিতি সৃষ্টি হতে পারে এমন কিছুই ওরা করবে না। ম্যাচ হলে সব কিছুই শান্তিপূর্ণ থাকবে।’’ সঙ্গে বার্সা অবশ্য ক্যাটালোনিয়ার অস্থির পরিস্থিতির কথা স্বীকার করেছে। লা লিগা কমিটি ম্যাচ বাতিল করলেও তাই আপত্তি করেনি। ক্লাসিকো ১৮ ডিসেম্বরে খেলতেও তাদের কোনও আপত্তি নেই বলে জানিয়েছে।

রিয়াল মাদ্রিদের ম্যানেজার জ়িনেদিন জ়িদান বলেছেন, ‘‘আমাদের যা বলা হবে তাই করব। জানি এটা নিয়ে প্রচুর বিতর্ক সৃষ্টি হয়েছে কিন্তু আমাদের তো কিছুই করার নেই। কমিটি যখন বলবে, তখনই খেলতে হবে। আমার অবশ্য বাতিল ক্লাসিকোর জন্য নিজের পছন্দের একটা তারিখ রয়েছে। কিন্তু সেটা সবাইকে বলতে চাই না।’’

ক্যাটালোনিয়ায় নতুন করে স্বাধীনতার লড়াই শুরু হওয়ার পরে ক্যাম্প ন্যুতে নিজেদের মাঠে একটাও ম্যাচ খেলেনি বার্সা। এখন এই মুহূর্তে সেখানে ম্যাচ থাকলে কী হত, তা গভীর উদ্বেগের বিষয়। শনিবার লা লিগায় লিয়োনেল মেসিদের বাইরের মাঠে খেলা এইবারের সঙ্গে। বার্সেলোনার ‘এল-প্রাত’ বিমানবন্দর কার্যত বিক্ষোভকারীদের হাতে চলে যাওয়ায় মেসি, সুয়ারেসরা বাসেই ৫৮৯ কিলোমিটার গিয়ে এইবারের সঙ্গে ম্যাচ খেলবে। ক্যাটালোনিয়ায় এই ধরনের পরিস্থিতি অবশ্য নতুন নয়। ২০১৭-র স্বাধীনতা সংগ্রামের সময় বার্সা তাদের নিজেদের মাঠে ফাঁকা গ্যালারিতে ম্যাচ করতে বাধ্য হয়েছিল। কিন্তু এল ক্লাসিকোয় তেমন কিছু হলে লা লিগা কমিটির বিরাট আর্থিক ক্ষতি হবে। তাই তারা ম্যাচ বাতিল করতে বাধ্য হয়েছে। শনিবার খেলবে জ়িদানের রিয়াল মাদ্রিদও। তাদের খেলাও বাইরের মাঠে রিয়াল মায়োরকার সঙ্গে। লা লিগা টেবলে এখন শীর্ষে আছে রিয়ালই। ৮ ম্যাচে পয়েন্ট ১৮। দ্বিতীয় স্থানে বার্সেলোনা। ৮ ম্যাচে মেসিরা তুলেছেন ১৬।