Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২২ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

আমাদের হাতে জেতা ছাড়া কিছু নেই: শঙ্করলাল

একই সঙ্গে একই সময়ে খেলতে নামছে চার দল। চ্যাম্পিয়নশিপের দাবিদার চারই। এটাই আই লিগের শেষ ম্যাচ। কার্যত তিনটি ফাইনাল ম্যাচ খেলা হবে একই সময়ে।

নিজস্ব সংবাদদাতা
০৭ মার্চ ২০১৮ ২১:০১
Save
Something isn't right! Please refresh.
গোকুলামের বিরুদ্ধ নামার আগে অনুশীলনে মোহনবাগান। ছবি: মোহনবাগান।

গোকুলামের বিরুদ্ধ নামার আগে অনুশীলনে মোহনবাগান। ছবি: মোহনবাগান।

Popup Close

ইস্টবেঙ্গল যখন ঘরের মাঠে কোমর বেঁধে নামছে তখন সুদূর কেরলে গরমের সঙ্গে লড়াই করছে মোহনবাগান। যদিও কোনও অজুহাত দিতে রাজি নন বাগান কোচ শঙ্করলাল চক্রবর্তী। প্রায় ছিটকে গিয়ে আবার চ্যাম্পিয়ন শিপে ফিরে আসাটাও তো হঠাৎই। সবুজ-মেরুনকে বাঁচিয়ে রাখল শেষ ম্যাচ পর্যন্ত। না হলে চ্যাম্পিয়নশিপের আশা ছেড়েই দিয়েছিল মোহনবাগান। মিনার্ভার হার, ইস্টবেঙ্গলের ড্র আর মোহনবাগানের জয়, সব মিলে চ্যাম্পিয়নশিপের লড়াই দপ করে জ্বলে উঠেছে মোহনবাগান। তিন দলের লড়াই এসে দাড়িয়েছে চার দলের।

একই সঙ্গে একই সময়ে খেলতে নামছে চার দল। চ্যাম্পিয়নশিপের দাবিদার চারই। এটাই আই লিগের শেষ ম্যাচ। কার্যত তিনটি ফাইনাল ম্যাচ খেলা হবে একই সময়ে। তিনটি গ্রাউন্ডে খেলবে চারটি দল। দুই ফাইনালিস্ট ইস্টবেঙ্গল ও নেরোকা এফসি মুখোমুখি হবে কলকাতায়। মিনার্ভা ঘরের মাঠে খেলবে চার্চিলের বিরুদ্ধে। মোহনবাগান খেলবে কোঝিকোড়ে গোকুলামের বিরুদ্ধে।

মূলত মিনার্ভার হোম গ্রাউন্ডে ফ্লাড লাইট না থাকায় বাকি দুই ভেন্যুতেও খেলা হবে দুপুর তিনটেয়। না হলে কোঝিকোড়ের গরমে আগের সময় অনুযায়ী খেলা ছিল রাত আটটায়। যদিও ফেডারেশনকে দায়ী করতে নারাজ শঙ্কর। বলেন, ‘‘ফেডেরেশনকে কী ভাবে দোষ দেব। মিনার্ভার মাঠে ফ্লাড লাইট নেই। ওদের দিনেই খেলতে হবে। আর তিনটে খেলা একসঙ্গে হতে হবে।’’

Advertisement

আরও পড়ুন
আশা-আশঙ্কার দোলাচলে নেরোকা বধের প্রস্তুতি ইস্টবেঙ্গলে

এই অবস্থায় সব থেকে সমস্যায় মোহনবাগানই। কোচ শঙ্করলাল বলছিলেন, ‘‘আমাকে প্রথমে লড়তে হবে গোকুলামের সঙ্গে। ওরা বেশ ভাল খেলছে। যে তিনটি ম্যাচ হবে তার মধ্যে অন্যতম কঠিন ম্যাচ এটাই। এ ছাড়া আমাদের লড়তে হবে এখানকার গরমের সঙ্গে। এই দুটোকেই কাল আমাদের জয় করতে হবে।’’



এই অবস্থায় চ্যাম্পিয়নশিপের চাপ না নিয়ে শুধুই তিন পয়েন্টের কথা ভাবতে চাইছে মোহনবাগান। শঙ্কর বলেন, ‘‘তিন পয়েন্ট ছাড়া কিছু ভাবছি না। কারণ তার পরটা আমাদের হাতে নেই। আমাদের হাতে আর কোনও বিকল্পও নেই।’’ চ্যাম্পিয়নশিপ থেকে ছিটকে গিয়ে আবার এ ভাবে ফিরে আসাটাকেই কাজে লাগাতে চাইছে পুরো দল। তাই লক্ষ্যটা স্থির। মিনার্ভার হার আর ইস্টবেঙ্গলের ড্র। সঙ্গে তাদের জয়। সবটাই একসঙ্গে মোহনবাগানের পক্ষে গিয়েছে।

বুধবার মূল স্টেডিয়ামেই অনুশীলন করেছে মোহনবাগান। মাঠ বেশ শক্ত। জল না দিলে সমস্যায় পড়তে হতে পারে। দলে কোনও চোট-আঘাত নেই। আগের ম্যাচের দল নিয়েই গোকুলাম বধে নামছে মোহনবাগান। দল অনেকটা এ রকম হতে চলেছে, গোলে শিলটন পাল। রক্ষণে অরিজিৎ বাগুই, কিংশুক দেবনাথ, কিংসলে ও গুরজিন্দর কুমার। মাঝ মাঠে নিখিল কদম, ক্যামেরুন ওয়াটসন, ইউটা কিনোওয়াকি, রেনিয়ের ফার্নান্ডেজ। সামনে আক্রম মোঘরাভি ও দিপান্ডা ডিকা।



Tags:
Football Footballer I League 2018 Mohun Bagan Vs Gokulam Sankarlal Chakrabortyশঙ্করলাল চক্রবর্তী
Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement