Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৯ জুন ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

সংঘাত এড়িয়ে বিরাট-মন্তব্য, কুম্বলেকে শ্রদ্ধা করি

যদিও গত কয়েক দিন ধরে কোহালির দিকে নানা প্ররোচনা ছিল মুখ খোলার। কোচ কুম্বলে নিজে থেকে পদত্যাগের ঘোষণা করেন টুইটারে। সেখানে তিনি সাফ জানিয়ে দে

নিজস্ব সংবাদদাতা
২৩ জুন ২০১৭ ০৬:১০
Save
Something isn't right! Please refresh.
ফাইল চিত্র।

ফাইল চিত্র।

Popup Close

অনিল কুম্বলের সঙ্গে তাঁর সংঘাতের কারণ নিয়ে মুখ খুলেও খুলতে চাইলেন না বিরাট কোহালি। ওয়েস্ট ইন্ডিজে পাঁচ ম্যাচের এক দিনের সিরিজ শুরু হচ্ছে আজ, শুক্রবার। তার আগের দিন সাংবাদিক সম্মেলনে এসে ভারত অধিনায়ক বলে দিলেন, তাঁর কাছে ড্রেসিংরুমের পবিত্রতা এবং গোপনীয়তা রক্ষা করাটা সব চেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। তাই কুম্বলে নিয়ে জনসমক্ষে কিছু বলতে চাইবেন না।

উল্টে ক্রিকেটার কুম্বলেকে নিয়ে শ্রদ্ধার কথাই শোনা গেল কোহালির মুখে। বলে দিলেন, ‘‘ক্রিকেটার হিসেবে ওঁর যা প্রাপ্তি, সেটাকে আমি এবং আমরা খুবই সম্মান করি। দেশের হয়ে যে সব গৌরবজনক মুহূর্ত উপহার দিয়েছেন, সেটাকে শ্রদ্ধা করি। কোনও কিছুই সেই শ্রদ্ধার জায়গাকে কেড়ে নিতে পারবে না।’’

যদিও গত কয়েক দিন ধরে কোহালির দিকে নানা প্ররোচনা ছিল মুখ খোলার। কোচ কুম্বলে নিজে থেকে পদত্যাগের ঘোষণা করেন টুইটারে। সেখানে তিনি সাফ জানিয়ে দেন, অধিনায়ক কোহালি চাননি বলেই তাঁকে সরে যেতে হচ্ছে। কুম্বলে এমনও জানান যে, বোর্ড থেকে তাঁকে যখন বলা হয় যে, তাঁর কাজের ভঙ্গি নিয়ে অধিনায়কের আপত্তি আছে, তিনি বেশ অবাকই হয়েছিলেন। কারণ, বরাবর কোচ এবং অধিনায়কের সীমানা সম্পর্কে তিনি ওয়াকিবহাল। এ ক্ষেত্রেও সেই সীমা তিনি কখনও লঙ্ঘন করেননি।

Advertisement

সুনীল গাওস্কর-সহ অনেকে এর পরেই দাবি তোলেন, কোহালিও তাঁর দিকটা সামনে আনুন। কিন্তু কোহালি বুঝিয়ে দিলেন, কুম্বলে-বিতর্ক নিয়ে তিনি আপাতত ব্যাট তুলবেন না। সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং ওয়েবসাইটে প্রশংসিত হচ্ছে তাঁর কুম্বলের প্রতি শ্রদ্ধাজ্ঞাপন। বলা হচ্ছে, তাঁর জন্য কোচকে বিদায় নিতে হলেও সৌজন্য হারাননি অধিনায়ক।

আরও পড়ুন:নিজেই সরে গেল কুম্বলে: সৌরভ

কোহালিকে একাধিক বার প্রশ্ন করা হল কুম্বলে নিয়ে। তিনি বার বার একই কথা বলে গেলেন, ‘‘ড্রেসিংরুমে যা হচ্ছে, সেটাকে আমরা ড্রেসিংরুমে রাখতে চাই। অনিল ভাইয়ের যেটা মনে হয়েছে সেটা উনি বলেছেন। সেই মতকে আমি শ্রদ্ধা করি। ওঁর মতামত রয়েছে সকলের সামনে। কিন্তু আমি এ ব্যাপারে জনসমক্ষে কথা বলতে চাই না।’’ এ দেশের ক্রিকেট ইতিহাসে দেখা যাবে দুই ক্রিকেটারের মধ্যে কাজিয়া বা অধিনায়ক-কোচের ঝগড়া মানেই তা প্রকাশ্যে বেরিয়ে এসেছে খুব দৃষ্টিকটূ ভাবে। সে দিক থেকে দেখতে গেলে কোহালি ব্যতিক্রম। কোচের সঙ্গে ঝামেলার নানা ঘটনা ড্রেসিংরুমের চার দেওয়ালের মধ্যেই রাখতে চান তিনি।

নিরপেক্ষ মহলের পর্যবেক্ষণ হচ্ছে, কিছু না বলেও অনেক কিছু বলে দিয়েছেন কোহালি। অনুজ হয়েও বিরাট এক বার্তা দিয়ে দিলেন কুম্বলেকে যে, ক্রিকেট সংসারের মধ্যে যা ঘটে তা সংসারের মধ্যে রেখে দেওয়া উচিত। কুম্বলে যে দিন সরে দাঁড়ান কোচের পদ থেকে সে দিনই ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিমান ধরছিল ভারতীয় দল। কোচের টুইটের কথা তাঁরা জানতে পারেন ভিভ রিচার্ডসের দেশে পৌঁছে। সেই টুইটে কুম্বলের কয়েকটি কথা খুব প্রসন্ন করেনি কোহালি এবং তাঁর দলের সিনিয়র সদস্যদের।

কারও কারও মনে হয়েছে, অধিনায়কের সঙ্গে কোচের বনিবনা না হওয়া নিয়ে নানা কাহিনি থাকতে পারে। সেই ময়লা ঘাঁটাঘাঁটিতে গেলেন না কোহালি। বরং শ্রদ্ধার জায়গা অটূট রেখে বার্তা দিয়ে রাখলেন যে, কোচকে সহ্য করতে না পারলেও, এক সঙ্গে কাজ করতে না পারলেও সৌজন্য হারাব না। তাঁকে অসম্মান করব না।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Tags:
Virat Kohli Anil Kumble Social Mediaঅনিল কুম্বলেবিরাট কোহালি Cricket
Something isn't right! Please refresh.

Advertisement