মুখ্যমন্ত্রী গত শুক্রবার কাঁচরাপাড়ায় বলেছিলেন, “সাত দিন সময় দিচ্ছি, যাঁরা বিজেপিতে যেতে চান, চলে যান।’’ এর দু’দিনের মধ্যেই, রবিবার উত্তর ২৪ পরগনার নোয়াপাড়ার বিধায়ক সুনীল সিংহ দিল্লি রওনা হলেন। তবে কি তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দেওয়ার তালিকায় এ বার কি যুক্ত হতে চলেছে তাঁর নাম? বিজেপির দাবি অবশ্য তেমনই। 

বিজেপি সূত্রে জানা গিয়েছে, সুনীলের সঙ্গে দিল্লি গিয়েছেন গারুলিয়া পুরসভার ১২ কাউন্সিলর। সোমবার সকলের বিজেপি যোগ দেওয়ার কথা। তবে সুনীল প্রকাশ্যে বিষয়টি নিয়ে কিছু বলতে রাজি হননি। শুধু বলেছেন, “আর একটু অপেক্ষা করুন। সব জানতে পারবেন।” জেলার তৃণমূল নেতা জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক এ ব্যাপারে বলেন, ‘‘এঁরা গেলে আমাদের ঘর সাফ হবে।’’

সুনীল ব্যারাকপুরের সাংসদ অর্জুন সিংহের আত্মীয়। লোকসভা ভোটের আগে অর্জুন বিজেপিতে যোগ দিলেও, সুনীল দল ছাড়েননি। তবে তৃণমূলের একটি অংশের ধারণা, অর্জুনই সুনীলকে তৃণমূলে রেখেছেন। অর্জুন অবশ্য নিজে সেই অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন। 

শনিবার দুপুরে কাউন্সিলরদের নিয়ে বৈঠকে বসেন সুনীল। সেখানেই তিনি দল ছাড়ার কথা ঘোষণা করেন। গারুলিয়া পুরসভার মোট কাউন্সিলর ২২ জন। তার মধ্যে ২১ জনই তৃণমূলের। এক জন কংগ্রেসের। কংগ্রেসের এক মাত্র কাউন্সিলরও দিল্লি গিয়েছেন বলে বিজেপির দাবি। সঙ্গে গিয়েছেন তৃণমূলের ১১ জন।