বলিউডের পত্নীনিষ্ঠ স্বামীদের তালিকায় অক্ষয়কুমার প্রথম দিকেই থাকবেন। ক্যাসানোভা ইমেজ ছেড়ে সংসারী জীবনে থিতু হওয়ার কৃতিত্ব তিনি দেন তাঁর স্ত্রী টুইঙ্কল খন্নাকে। ক্যামেরার সামনে, টক শোয়ে সব সময়েই তাঁকে শোনা যায় স্ত্রীর প্রশংসা করতে। এক সময়ে অনেক সম্পর্কে থাকলেও এখন তাঁর চোখে শুধুই টুইঙ্কল। তবে রোশনাই বেশি হলে চোখ ধাঁধানোর সম্ভাবনাও বাড়ে বইকী!

বলিউডের অন্দরের খবর, সাজিদ খানের ‘হাউসফুল ফোর’-এর শুটিংয়ের সময়ে জয়সলমেরে টুইঙ্কলও ছিলেন অক্ষয়ের সঙ্গে। তবে এক-দু’দিন নয়। গোটা একটা সপ্তাহ। মুখে তাঁরা বলবেন, স্বামীকে সঙ্গ  দিতেই গিয়েছিলেন। তবে নিন্দুকরা বলছেন, স্বামীর উপর নজরদারি করতেই টুইঙ্কল সেখানে ছিলেন। এমনিতে অন্য সময়ে ছবির নায়িকারা কৃতী শ্যানন, পূজা হেগড়ে আড্ডা দিতে চলে আসতেন অক্ষয়ের ঘরে। তবে যত দিন টুইঙ্কল ছিলেন, তখন অক্ষয়ের একেবারে অন্য রূপ। যে খোলামেলা অক্ষয়কে সেটে দেখতে সকলে অভ্যস্ত, টুইঙ্কলের উপস্থিতিতে তিনি যেন একটু গুটিয়ে থাকতে‌ন। অক্ষয়-টুইঙ্কল থাকতেনও আলাদা বাংলোয়। আসলে ভাল স্বামীর ইমেজ ধরে রাখতেও তো খিলাড়ি হতে হয়!