Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৮ জুন ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

রামকৃষ্ণ মিশনের নতুন অধ্যক্ষ স্বামী স্মরণানন্দজি

রামকৃষ্ণ মঠ ও মিশনের নতুন অধ্যক্ষ নির্বাচিত হলেন স্বামী স্মরণানন্দজি। সোমবার বেলুড় মঠের তরফে সাংবাদিক সম্মেলন করে এ কথা জানানো হয়েছে। আগামী

নিজস্ব সংবাদদাতা
১৭ জুলাই ২০১৭ ১৭:৪৯
Save
Something isn't right! Please refresh.
রামকৃষ্ণ মঠের নতুন অধ্যক্ষ স্বামী স্মরণানন্দজি মহারাজ। নিজস্ব চিত্র।

রামকৃষ্ণ মঠের নতুন অধ্যক্ষ স্বামী স্মরণানন্দজি মহারাজ। নিজস্ব চিত্র।

Popup Close

এত দিন মঠের সহ-অধ্যক্ষের পদ সামলাতেন তিনি। এ বার রামকৃষ্ণ মঠ ও মিশনের নতুন অধ্যক্ষ নির্বাচিত হলেন স্বামী স্মরণানন্দজি। সোমবার বেলুড় মঠের তরফে সাংবাদিক সম্মেলন করে এ কথা জানানো হয়েছে। আগামী ২১ জুলাই থেকে ষোলোতম অধ্যক্ষ হিসাবে দায়িত্ব গ্রহণ করবেন তিনি। পাশাপাশি এ দিন নাম ঘোষণা করা হয়েছে পাঁচ জন ভাইস প্রেসিডেন্টেরও। তাঁরা হলেন, স্বামী বাগীশানন্দ, স্বামী গৌতমানন্দ, স্বামী প্রভানন্দ, স্বামী সুহিতানন্দ এবং স্বামী শিবময়ানন্দ।

গত ১৮ জুন প্রয়াত হয়েছিলেন রামকৃষ্ণ মঠের প্রাক্তন অধ্যক্ষ স্বামী আত্মস্থানন্দ। এর পর থেকেই নতুন অধ্যক্ষ কে নির্বাচিত হবেন, তা নিয়ে জল্পনা ছিল। পরবর্তী অধ্যক্ষ ঠিক করতে অছি পরিষদও তৈরি করা হয়। অবশেষে মাসখানেক পর পূর্ণ হল সেই শূন্যপদ।

আরও পড়ুন: নেট-অপরাধ রুখতে সব জেলায় সাইবার থানা

Advertisement

১৯২৯ সালে তামিলনাড়ুর তাঞ্জাভুর জেলার আন্দামি গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন স্বামী স্মরণানন্দজি। রামকৃষ্ণ ও স্বামী বিবেকানন্দের আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে মাত্র ২০ বছর বয়সে মুম্বই রামকৃষ্ণ মিশনের সঙ্গে যোগাযোগ করেন তিনি। ১৯৫২ সালে ২২ বছর বয়সে স্বামী শঙ্করানন্দজি মহারাজের কাজ থেকে দীক্ষা নেন। ১৯৫৬ সালে ব্রহ্মচর্য নেন স্বামী স্মরণানন্দ।

১৯৫৮-তে কলকাতায় আসা। বহু বছর ‘অদ্বৈত আশ্রম’ এবং ‘প্রবুদ্ধ ভারত’-এ কাজ করেছেন তিনি। প্রায় ১৫ বছর ‘রামকৃষ্ণ মিশন সারদাপীঠ’-এর সেক্রেটারি ছিলেন। ১৯৮৩-তে রামকৃষ্ণ মিশনের গভর্নিং বডির সদস্য হন। ১৯৯১-এ চেন্নাই রামকৃষ্ণ মিশনের প্রধান হিসাবে নিযুক্ত হন তিনি।

এক সময় সাধারণ সম্পাদক এবং সহ-সংঘাধ্যক্ষ হিসেবে গোটা ভারত ও বিশ্বের নানা প্রান্ত ঘুরে ঠাকুর রামকৃষ্ণ, শ্রী শ্রী মা ও স্বামীজির বাণী প্রচার করেছেন স্মরণানন্দজি৷

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Something isn't right! Please refresh.

Advertisement