• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

পুকুর ভরাটের অভিযোগ বিধায়কের

Pond Filling
প্রতীকী ছবি।

এ বার নিজের এলাকায় পুকুর ভরাটের অভিযোগ তুললেন শাসকদলের বিধায়ক। মঙ্গলবার বিধানসভায় এই অভিযোগ করেন হাওড়ার শিবপুরের বিধায়ক জটু লাহিড়ী।

এ দিন অধিবেশনের উল্লেখ পর্বে অধ্যক্ষ বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়কে ওই বিধায়ক জানান, তাঁর বিধানসভা এলাকায় ২৫টি পুকুর রয়েছে। তার মধ্যে কয়েকটি ভরাটের তোড়জোড় চলছে। সেগুলি সবই সরকারি খাস জমি। কিছু সরকারি কর্মচারী আছেন, যাঁরা ওই জলাশয় ভরাটে সহযোগিতা করছেন। ওই ভরাটের কাজে স্থানীয় এক জমি মাফিয়া জড়িত রয়েছে বলেও জানান জটুবাবু। এ দিন তিনি অভিযোগের প্রতিলিপি অধ্যক্ষের কাছে জমা দেন।

পরে জটুবাবু জানান, শিবপুর বিধানসভার কোনা সিটিআইয়ের কাছে চাষির মাঠ রয়েছে। সেটা খাস জমি। ওই পাঁচ একর জমি ধাপে ধাপে বিক্রি করে দেওয়া হচ্ছে বলে তাঁর অভিযোগ। তিনি বলেন, ‘‘তারই প্রতিবাদ করেছিলাম বলে আমাকে ভয় দেখিয়ে হুমকি চিঠি দেওয়া হয়েছে। যাতে আমি আর প্রতিবাদ না করি।’’ বিধানসভায় যে ব্যক্তির নাম এ দিন জটুবাবু উল্লেখ করেছেন, তাঁর প্রসঙ্গ টেনে তিনি আরও দাবি করেন, ‘‘নিজেকে সমাজসেবীর পরিচয় দিয়ে ওই ব্যক্তি সরকারি সম্পত্তি বিক্রি করে চলেছেন। তাতে হাওড়া পুরসভার কিছু কর্মীর মদত রয়েছে।’’

যদিও এ বিষয়ে পুরসভার কাছে নির্দিষ্ট কোনও অভিযোগ আসেনি বলেই জানান পুর কমিশনার বিজিন কৃষ্ণ। তবে তিনি বলেন, ‘‘যদি নির্দিষ্ট ভাবে কোনও লিখিত অভিযোগ আসে, তা হলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’’

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন