• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

দু’টি গাড়ির মুখোমুখি ধাক্কায় মৃত ১, জখম ৩০

death
প্রতীকী ছবি।

নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে দু’টি গাড়ির মুখোমুখি ধাক্কায় গাড়ি চালকের মৃত্যু হল। জখম হয়েছেন ৩০ জন। কাকদ্বীপ ও ডায়মন্ড হারবার জেলা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে তাঁদের। ৪ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। বুধবার বিকেলে দুর্ঘটনাটি ঘটেছে সাগরের গঙ্গাসাগর-কচুবেড়িয়া রোডে, বইচবাড়ি মোড়ের কাছে। পুলিশ জানিয়েছে, মৃত্যু হয়েছে একটি গাড়ির চালক রাধাকান্ত দাসের (৪০)। তাঁর বাড়ি ওই এলাকাযর কৃষ্ণনগর গ্রামে।

পুলিশ জানায়, এ দিন বিকেল সাড়ে ৫টা নাগাদ গঙ্গাসাগর থেকে ভাড়া করা ছোট গাড়িতে হুগলি জেলার জনা তিরিশ পুণ্যার্থী কচুবেড়িয়া ঘাটের দিকে আসছিলেন। গাড়ির ছাদেও ঝুলছিল অনেকে। কচুবেড়িয়া ঘাট থেকে কয়েকজন যাত্রীকে নিয়ে অন্য একটি গাড়ি গঙ্গাসাগরের দিকে দিকে যাচ্ছিল।

বইচবাড়ি মোড়ের কালভার্টের উপরে রাস্তায় কিছুটা বাঁক রয়েছে। পাশেই আবার দাঁড়িয়েছিল বাস, মোটর ভ্যান। দু’টি গাড়ির ধাক্কা লাগে। কচুবেড়িয়াগামী গাড়ির ছাদে ঝুলে থাকা যাত্রীরা ছিটকে পড়েন রাস্তায়। গাড়ির অংশ কেটে দুই গাড়ির চালককে বের করতে হয়। রুদ্রনগর গ্রামীণ হাসপাতাল নিয়ে যাওয়া হয় সকলকে। সেখান থেকে ৩০ জনকে ‘রেফার’ করা হয়েছে কাকদ্বীপ ও ডায়মন্ড হারবার জেলা হাসপাতালে।

ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী যতীন্দ্রনাথ হালদার, আশিস সাউ, সুমন সাউয়েরা জানান, বিকট শব্দে সকলে ছুটে আসেন। দেখেন বহু লোক রক্তাক্ত অবস্থায় রাস্তায় পড়ে ছফট করছে। চালকেরা রক্তে ভেসে যাচ্ছে।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসেন সাগরের বিধায়ক বঙ্কিম হাজরা, বিডিও সুদীপ মণ্ডল। এলাকার পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে মাইকে প্রচার শুরু হয়। জখমদের গাড়িতে দ্রুত কচুবেড়িয়া ঘাটে পাঠানোর জন্য ওই পথে অন্য সমস্ত গাড়ি বন্ধ রাখা দেওয়া হয়। ঘটনাস্থলে পৌঁছয় পুলিশ।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন