• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

কড়া নজরদারিতে সফল লকডাউন

pgn
পথে-পুলিশ: চলছে জিজ্ঞাসাবাদ। ছবি: সামসুল হুদা

সাপ্তাহিক লকডাউনে রাস্তাঘাট যেমন শুনশান থাকছে, বুধবারও দুই ২৪ পরগনা জুড়ে সেই ছবিই সর্বত্র চোখে পড়ল। সকাল থেকে দুই জেলার বিভিন্ন জায়গায় বৃষ্টির দাপট ছিল। বাজারহাটও ছিল বন্ধ। ফলে রাস্তায় ভিড় তেমন চোখে পড়েনি। তার পরেও লকডাউন ভেঙে যাঁরা রাস্তায় নেমেছিলেন, কোথাও পুলিশ তাঁদের ফেরত পাঠিয়েছে, কোথাও পাকড়াও করেছে। সব মিলিয়ে দুই জেলায় প্রায় ৩০০ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

বুধবার সকাল থেকেই কার্যত ক্যানিং, বাসন্তী, গোসাবার রাস্তাঘাট ফাঁকাই ছিল। বাজারহাট, দোকানপাট সবই বন্ধ ছিল এ দিন। লকডাউন সফল করতে এলাকার সমস্ত রাস্তার মোড়ে মোড়েই পুলিশ মোতায়েন ছিল। গোসাবা ও বাসন্তী ব্লকের সর্বত্র খেয়া পারাপার বন্ধ ছিল। একে লকডাউন তার উপর সকাল থেকে আকাশের মুখ ভার। সকাল থেকে টানা বৃষ্টিতে ভাঙড়ের অধিকাংশ এলাকা ছিল শুনশান। আগের লকডাউনের তুলনায় এ দিন ভাঙড়, ঘটকপুকুর, ভোজেরহাট, চন্দনেশ্বর, বিজয়গঞ্জ, পোলেরহাট বাজার-সহ সর্বত্র বাজারহাট বন্ধ ছিল। বানতলা চর্মনগরীও ছিল শুনশান। বাসন্তী হাইওয়েতে যান চলাচল প্রায় একেবারেই বন্ধ ছিল। মাস্ক না পরা এবং লকডাউন অমান্য করায় বারুইপুর পুলিশ জেলায় ৮৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

বনগাঁ মহকুমায় বাজারহাট বন্ধ থাকলেও সকালের দিকে বেশ কিছু এলাকায় চায়ের দোকানে জটলা চোখে পড়েছে। একই ছবি দেখা গিয়েছে হাবড়া ও অশোকনগরে। অহেতুক রাস্তায় নামা ঠেকাতে হাবড়া-অশোকনগর-গোবরডাঙা থানার পুলিশের ছিল থেকে চোখে পড়ার মতো। এই তিন থানা এলাকা থেকে ৯১ জনকে পাকড়াও করে পুলিশ। বনগাঁয় লকডাউন ভেঙে বাইক নিয়ে বেরিয়ে গ্রেফতার হয়েছে বেশ কয়েকজন। বনগাঁ পুলিশ জেলার সুপার তরুণ হালদার জানান, লকডাউন ভাঙার অভিযোগে বিকেল পর্যন্ত ২৪ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

সকাল থেকেই বৃষ্টি শুরু হয়েছিল  বসিরহাটে। তারপরেও বেশ কিছু মানুষ রাস্তায় নেমেছিল। পুলিশ তাদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ করে।  মাস্ক না পরেও অনেকে রাস্তায় বেরিয়েছিলেন। তাঁদের কয়েকজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাঁদের কয়েকজন জানান, মাস্ক কেনার ক্ষমতা নেই তাঁদের। পুলিশ তাঁদের মাস্ক দেয়। হাসনাবাদ-হেমনগর-হিঙ্গলগঞ্জ থানা এলাকার সর্বত্রই রাস্তাঘাট ছিল ফাঁকা বসিরহাট পুলিশ জেলার সুপার কঙ্করপ্রসাদ বারুই জানান, লকডাউন ভাঙায় ১৫২ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ব্যারাকপুরে এ দিন রাস্তাঘাট, বাজারহাট থেকে শুরু করে কলকারখানা বন্ধ ছিল। ব্যারাকপুরের পুলিশ কমিশনার মনোজ বর্মা জানান, লকডাউন ভাঙায় ২৮ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন