• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

কুমারপুরে কাজ দেখে খুশি বাবুল

babul supriyo
পরিদর্শনে বাবুল। নিজস্ব চিত্র

Advertisement

কুমারপুরে রেল উড়ালপুল নির্মাণের কাজ পরিদর্শন করলেন আসানসোলের বিজেপি সাংসদ তথা কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়। শনিবার দুপুরে তিনি সেখানে ইঞ্জিনিয়ারদের সঙ্গে বেশ কিছুক্ষণ আলোচনা করেন। এলাকার মানুষজনকে উড়ালপুলের প্রয়োজনীয়তার কথা বোঝান। পরিদর্শন শেষে বাবুল জানান, যে ভাবে কাজ চলছে তাতে তিনি খুশি। সেই সঙ্গে, দিল্লিতে সব রাজ্যের বনমন্ত্রীদের নিয়ে ডাকা বৈঠকে এ রাজ্যের মন্ত্রী ব্রাত্য বসু গরহাজির থাকায় অসন্তোষ জানান বাবুল। ব্রাত্য অবশ্য এ বিষয়ে কোনও প্রতিক্রিয়া দিতে চাননি।

উড়ালপুল না থাকায় কুমারপুরে লেভেল ক্রসিংয়ে দীর্ঘক্ষণ আটকে থাকতে হয়, অনেক দিন ধরে অভিযোগ জানিয়ে আসছেন শহরবাসী। বাবুল জানান, আসানসোলে প্রথম বার ভোটে দাঁড়ানোর পরে প্রচারে বেরিয়ে এই এলাকায় উড়ালপুল তৈরির আবেদন পেয়েছিলেন। ভোটে জেতার পরে রেল ও ইস্পাত মন্ত্রকের সঙ্গে কথা বলে উড়ালপুল তৈরির ব্যবস্থা করেছেন। 

তবে নানা জটিলতায় কাজ আটকে ছিল। রেল সূত্রে জানা যায়, তাদের জমিতে থাকা বেশ কয়েকটি দোকান ও ধাবা না সরালে কাজ শুরু করা যাচ্ছিল না। সম্প্রতি রেল ও জেলা প্রশাসনের আধিকারিকেরা বৈঠক করেন। তার পরে দখল উচ্ছেদে নোটিস জারি করা হয়। এর পরেই কাজ শুরু হয়েছে।

এ দিন দুপুর ২টো নাগাদ কুমারপুরে পৌঁছন বাবুল। তিনি প্রথমে নির্মাণ সংস্থার ইঞ্জিনিয়ারদের সঙ্গে আলোচনায় বসেন। পরে বাবুল বলেন, ‘‘এমন একটি কাজ করতে পেরে আমি খুব খুশি। নির্মাণের যাবতীয় খরচ বহন করছেন রেল এবং সেল কর্তৃপক্ষ। কাজের গতিতে আমি খুশি।’’ উড়ালপুল চালু হয়ে গেলে এলাকার আরও উন্নতি হবে, ব্যবসা-বাণিজ্যের প্রসার ঘটবে বলেও আশা করছেন তিনি।

কেন্দ্রীয় বন ও পরিবেশ প্রতিমন্ত্রী বাবুল এ দিন জানান, দেশের বনসৃজন প্রকল্পের জন্য দিল্লিতে সব রাজ্যের বনমন্ত্রীদের নিয়ে বৈঠক ডাকা হয়েছিল। প্রত্যেকের বক্তব্য শোনার পরে অর্থ বরাদ্দ করা হয়েছে। অন্য রাজ্যের বনমন্ত্রীরা থাকলেও এ রাজ্যের মন্ত্রী ব্রাত্য বসুর গরহাজির থাকা দুর্ভাগ্যজনক বলে দাবি করেন বাবুল। তিনি জানান, বনসৃজনের ক্ষেত্রে এ রাজ্যের চাহিদা বা পরিকল্পনা নিয়ে কোনও প্রস্তাব মেলেনি। তবু বনসৃজন বাবদ রাজ্যের প্রাপ্য টাকা বৈঠকে উপস্থিত সরকারি আধিকারিকদের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে। বাবুল আরও জানান, সুন্দরবন নিয়ে কোনও প্রস্তাব তাঁকে পাঠানো হলে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ করবেন। ব্রাত্য বলেন, ‘‘বাবুল সুপ্রিয় প্রতিমন্ত্রী। পূর্ণমন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকর এ বিষয়ে কিছু বললে আমি প্রতিক্রিয়া দেব।’’

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন