• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ফ্ল্যাটে ঢুকে বৃদ্ধার গয়না ছিনতাই

Crime
প্রতীকী ছবি।

প্রকাশ্য রাস্তায় এক প্রোমোটারকে গুলি করে খুনের পরে এ বার দিনের বেলায় জনবহুল এলাকায় ফ্ল্যাটে ঢুকে বৃদ্ধার থেকে গয়না ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটল। সোমবার বেলা ১১টার সময়ে এই ঘটনা ঘটেছে হাওড়ার গোলাবাড়ি থানা এলাকার ৫৮ নম্বর রোজ়মেরি লেনের একটি তেতলা ফ্ল্যাটে। শনিবার রাতে ব্যাঁটরা এলাকার ইস্ট-ওয়েস্ট বাইপাসে এক প্রোমোটারকে গুলি করে খুনের ঘটনার দু’দিনের মধ্যেই এই ঘটনা হাওড়ার আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে আরও এক বার প্রশ্ন তুলে দিয়েছে।  

পুলিশ সূত্রের খবর, রোজ়মেরি লেনের তেতলা ফ্ল্যাটে দুই ছেলে ও এক পুত্রবধূর সঙ্গে থাকেন শোভাদেবী মোহতা নামে বছর সত্তরের ওই বৃদ্ধা। সম্প্রতি তাঁর হাঁটুতে অস্ত্রোপচার হওয়ায় তিনি ঠিকমতো হাঁটতে পারেন না। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রের খবর, ঘটনার সময়ে ফ্ল্যাটে একাই ছিলেন ওই বৃদ্ধা। বেলা ১১টা নাগাদ এক অজ্ঞাতপরিচয় যুবক ফ্ল্যাটের সামনে এসে বৃদ্ধার কাছে জানতে চান, বাড়িতে আর কেউ আছেন কি না। বাড়িতে আর কেউ নেই, এ কথা জানার পরেই বৃদ্ধাকে ঠেলে জোর করে ফ্ল্যাটে ঢুকে পড়ে ওই দুষ্কৃতী। অভিযোগ, বৃদ্ধাকে টেনেহিঁচড়ে ওই দুষ্কৃতী ঘরের ভিতরে নিয়ে যায় এবং তাঁর গায়ে থাকা গয়না কেড়ে নেয়। কানের দুল টেনে খুলে নেওয়ার চেষ্টা করে। কিন্তু তত ক্ষণে বৃদ্ধার চিৎকারে প্রতিবেশীরা ছুটে এলে ওই ছিনতাইকারী চম্পট দেয়।

ওই আবাসনের এক বাসিন্দা রমেশ জৈন বলেন, ‘‘চিৎকার শুনে আমাদের যেতে দু’-তিন মিনিট দেরি হয়েছিল। তার মধ্যেই কাকিমার গয়না খুলে চম্পট দেয় ওই দুষ্কৃতী। এই ঘটনার পরে আমরা নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি।’’ পুলিশ জানায়, ওই বহুতলে কোনও নিরাপত্তারক্ষী বা সিসি ক্যামেরা নেই। এ দিকে খবর পেয়ে দ্রুত বাড়ি ফিরে শোভাদেবীর ছেলে বীরেন্দ্র মোহতা বলেন, ‘‘হাঁটুর অস্ত্রোপচারের পরে মা এখনও ঠিকমতো হাঁটতে পারেন না। ওই দুষ্কৃতী মাকে ঠেলে ফেলে দিয়ে চুড়ি-আংটি ছিনিয়ে নিয়েছে। পড়ে গিয়ে মায়ের আঘাত লেগেছে। মনে হয় পরিচিত কেউ এই ঘটনায় জড়িত। না-হলে মা ফ্ল্যাটে একা রয়েছেন, এটা জানল কী করে?’’

হাওড়া সিটি পুলিশের এক পদস্থ অফিসার বলেন, ‘‘আশপাশের সিসি ক্যামেরার ফুটেজ দেখা হচ্ছে। মনে হচ্ছে এলাকার কোনও ছিনতাইবাজের কাজ। ওই দুষ্কৃতীকে দ্রুত গ্রেফতারের চেষ্টা করছি।’

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন