• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

বইমেলায় এনআরসি প্রতিবাদ

CAA-NRC
প্রতিবাদী: এনআরসির- বিরুদ্ধে মালদহ বইমেলায় প্রচার। নিজস্ব চিত্র

জেলায় প্রতিবাদ মিছিল, বিক্ষোভ তো চলছেই। এ বার সেই রেশ ছুঁল বইমেলাকেও। বুধবার সন্ধে থেকে মালদহ জেলা বইমেলা প্রাঙ্গণে বুকে প্ল্যাকার্ড ঝুলিয়ে সিএএ ও এনআরসি বাতিলের দাবিতে প্রচার শুরু করলেন এপিডিআর ও একটি সংগঠনের কর্মীরা। ৩ ফেব্রুয়ারি মালদহের ইংরেজবাজারে তাঁরা এর প্রতিবাদে মিছিলের আয়োজন করেছেন আর তাতে শামিল হওয়ার আহ্বান জানিয়ে বইমেলায় লিফলেটও বিলি করেন তাঁরা। সিএএ ও এনআরসি কি এবং কেন তা বাতিল করতে হবে—সেই সংক্রান্ত বুকলেট বিলি করে তাঁদের দাবি, বইমেলার শেষদিন পর্যন্ত এই প্রচার চলবে। 

সিএএ ও এনআরসির বিরুদ্ধে এর মধ্যেই মালদহে তৃণমূল, সিপিএম, কংগ্রেস আন্দোলনে নেমেছে। চলছে মিছিল, বাইক র‌্যালি, পথসভা। জেলা জুড়ে অবস্থান-ধর্না বিক্ষোভ হচ্ছে। এ বার সিএএ এবং এনআরসির প্রতিবাদ শুরু হল জেলা বইমেলায়। ২১ তারিখ থেকে মালদহ কলেজ মাঠে শুরু হয়েছে মালদহ জেলা বইমেলা। সেখানে সিএএ এবং এনআরসি বিরোধী প্ল্যাকার্ড নিয়ে প্রতিবাদ দেখানো শুরু করেছে ওই দুই সংগঠনের সদস্যরা। 

এপিডিআর জানায়, ৩ ফেব্রুয়ারি ইংরেজবাজার শহরের বৃন্দাবনি মাঠ থেকে প্রতিবাদ মিছিলটি শুরু হবে। মেলায় আসা বাসিন্দাদের কাছে দলের সদস্যরা মিছিলটিকে সফল করার আহ্বান জানিয়ে লিফলেট বিলি করেন। এপিডিআরের মালদহ জেলা সম্পাদক প্রদীপকুমার বাগচী বলেন, ‘‘নতুন নাগরিকত্ব আইন এবং এনআরসির আতঙ্কে মালদহ জেলার হাজার হাজার মানুষ আতঙ্কিত। সেই আতঙ্কে আধার কার্ড, ভোটার কার্ড সংশোধন করাতে গিয়ে তাঁরা চূড়ান্ত নাজেহাল হচ্ছেন। মানুষকে ভাবতে হচ্ছে তিনি এ দেশে থাকতে পারবেন কিনা! তাই নতুন নাগরিকত্ব আইন এবং এনআরসি বাতিলের দাবিতে আমাদের এই আন্দোলন। বইমেলায় প্রচুর মানুষ আসেন, তাই প্রচারের মাধ্যম হিসেবে আমরা বইমেলাকে বেছে নিয়েছি।’’

 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন