Advertisement
০২ মার্চ ২০২৪
CoWin App

‘কো-উইন পোর্টাল নিরাপদ, তবু দেখা হচ্ছে’, টিকা গ্রহীতাদের তথ্য ফাঁস নিয়ে বিবৃতি দিল মোদী সরকার

সোমবার একটি বিবৃতিতে কেন্দ্রীয় সরকার জানিয়েছে, “কো-উইন পোর্টাল নিরাপদ।” একই সঙ্গে ওই বিবৃতিতে তথ্য ফাঁসের অভিযোগ প্রসঙ্গে জানানো হয়েছে, বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

CoWin portal safe, issue being looked into, Centre on alleged data leak

—প্রতীকী ছবি।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ১২ জুন ২০২৩ ১৮:০১
Share: Save:

কোভিডের টিকাগ্রহীতাদের যাবতীয় তথ্য নথিবদ্ধ করা হয়েছে যে পোর্টালে, সেই কো-উইন পোর্টালের তথ্য ফাঁস হয়ে গিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছিল। সোমবার কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে একটি বিবৃতি প্রকাশ করে বলা হয়েছে, “কো-উইন পোর্টাল নিরাপদ।” একই সঙ্গে ওই বিবৃতিতে তথ্য ফাঁসের অভিযোগ প্রসঙ্গে জানানো হয়েছে, বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

মূলত তথ্যের নিরাপত্তা নিয়ে কাজ করা নিউজ পোর্টাল ‘সাউথ এশিয়া ইনডেক্স’ তাদের টুইটারে হ্যান্ডলে একটি টুইট করে জানায়, ‘টেলিগ্রাম’ নামের একটি সমাজমাধ্যমে কোভিডের টিকা গ্রহীতাদের যাবতীয় তথ্য ফাঁস হয়ে গিয়েছে। টিকাগ্রহীতাদের মধ্যে সাধারণ মানুষের পাশাপাশি রাজনীতিক, আমলা এবং অন্যান্য পেশার মানুষও আছেন বলে দাবি করা হয়। অভিযোগ ওঠে যে, ‘টেলিগ্রামে’র একটি স্বয়ংক্রিয় চ্যাটবটে ভারতের সমস্ত টিকা গ্রাহকের আধার কার্ডের নম্বর, পাসপোর্টের নম্বর, এমনকি মোবাইল নম্বরও ফাঁস হয়ে গিয়েছে। এই অভিযোগ ঘিরে সারা দেশেই হইচই পড়ে যায়।

এই অভিযোগ প্রকাশ্যে আসার পরেই বিজেপির সমালোচনায় সরব হয় কংগ্রেস, তৃণমূলের মতো বিরোধী দলগুলি। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের তরফে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি তদন্ত করে দেখে রিপোর্ট জমা দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়। সোমবার কেন্দ্রীয় সরকারের বিবৃতিতে জানিয়ে দেওয়া হয়, এই বিষয়ে তদন্ত যেমন চলছে চলবে। তবে কো-উউন পোর্টাল যে নিরাপদ, তা আরও এক বার স্পষ্ট করে দেওয়া হল কেন্দ্রের তরফে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE