Advertisement
২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
Manipur Liquor Ban

আর ‘শুকনো’ নয়, উত্তর-পূর্বের রাজ্য থেকে মদে নিষেধাজ্ঞা তুলে নিল বিজেপি সরকার

গত ৩০ বছরেরও বেশি সময় ধরে মদ নিষিদ্ধ ছিল উত্তর-পূর্বের রাজ্যটিতে। ২০২২ সালে নিষেধাজ্ঞা আংশিক ভাবে তুলে নেওয়া হয়েছিল। এ বার তা পুরোপুরি তুলে নিল সরকার।

Liquor ban lifted after 30 years in Manipur

মদে নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়া হয়েছে মণিপুরে। —প্রতিনিধিত্বমূলক চিত্র।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৮ ডিসেম্বর ২০২৩ ১০:৩৯
Share: Save:

মদের উপর থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নিল বিজেপি সরকার। মণিপুরে গত ৩০ বছরের বেশি সময় ধরে মদ নিষিদ্ধ ছিল। সম্প্রতি সেই নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়া হয়েছে। মন্ত্রিসভায় সিদ্ধান্তের পর নিষেধাজ্ঞা তোলার কথা ঘোষণা করেছে সরকার। তারা জানিয়েছে, মূলত দু’টি কারণে মণিপুরে মদ সংক্রান্ত নীতির পরিবর্তন করা হচ্ছে। এক, সরকারের রাজস্বের পরিমাণ বৃদ্ধি এবং দুই, রাজ্যে বিষমদের প্রবেশ ঠেকানো।

এত দিন মদ নিষিদ্ধ থাকায় ‘শুকনো রাজ্য’ বলে পরিচিত ছিল মণিপুর। এ বার সে তকমা ঘুচতে চলেছে। মুখ্যমন্ত্রী এন বীরেন সিংহের নেতৃত্বাধীন মণিপুরের মন্ত্রিসভা মদ তৈরি, বিক্রি, পরিবহণ, আমদানি, রফতানি এবং খাওয়ার বিষয়ে ছাড়পত্র দিয়েছে। গত ৬ ডিসেম্বর এই সংক্রান্ত একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে মণিপুর সরকার। সেখানে মদের বৈধকরণের জন্য বিশদ বিধির রূপরেখা দেওয়া হয়েছে।

১৯৯১ সালে মণিপুরে মদ নিষিদ্ধ করা হয়েছিল। জনসাধারণের একটা বড় অংশ মদে নিষেধাজ্ঞার দাবি তুলেছিল সে সময়। বিশেষত, রাজ্যের মহিলা গোষ্ঠীর তরফ থেকে মদ নিষিদ্ধ করার দাবি ক্রমে জোরালো হচ্ছিল। পরিস্থিতি বিবেচনা করে তৎকালীন মণিপুর সরকার রাজ্যে মদ নিষিদ্ধ ঘোষণা করে দেয়। সেই নিষেধাজ্ঞা আংশিক ভাবে তুলে নেওয়া হয়েছিল ২০২২ সালের সেপ্টেম্বরে। সে সময় বলা হয়েছিল, অন্তত ২০টি শয্যা আছে, এমন হোটেলে মদ খাওয়া এবং বিক্রি করা যাবে। স্থানীয় ভাবে প্রস্তুত করা মদ রফতানিতেও ছাড়পত্র মিলেছিল। এ বার মদে নিষেধাজ্ঞা পুরোপুরি তুলে নেওয়া হল মণিপুরে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE