রোহিঙ্গাদের উপর নির্যাতনের কড়া মাসুল দিতে হবে বলে এ বার মায়ানমার সরকারকে বার্তা দিল জঙ্গি সংগঠন আল কায়দা। রোহিঙ্গাদের পাশে দাঁড়াতে আজ সারা বিশ্বের মুসলিমদের কাছেও আর্জি জানিয়েছে জঙ্গিরা। ভারত, বাংলাদেশ, পাকিস্তান এবং ফিলিপিন্সের ‘মুজাহিদ ভাইদের’ কাছে তাদের অনুরোধ— ‘‘প্রয়োজনে অস্ত্র এবং প্রশিক্ষণ নিয়ে পাড়ি দিতে হবে ও-দেশে। রোহিঙ্গাদের পরিণতির জন্য ভুগতে হবে মায়ানমার সরকারকে।’’

পাক জঙ্গি সংগঠনের একাংশও রোহিঙ্গাদের মধ্যে প্রভাব বাড়াচ্ছে। বিষয়টি খতিয়ে দেখতে বৈঠক করেন ভারতের প্রধানমন্ত্রীর প্রিন্সিপ্যাল সেক্রেটারি নৃপেন্দ্র মিশ্র, জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভাল ও আইবি, র-এর শীর্ষকর্তারা। রোহিঙ্গাদের আশ্রয় প্রসঙ্গে রাষ্ট্রপুঞ্জ যে ভাবে ভারতকে কড়া বার্তা দিয়েছে, আজ তা নিয়ে স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী কিরেন রিজিজুর টুইট, ‘‘ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ করতেই অযথা ভারতকে খলনায়ক বানানো হচ্ছে। এতে নিরাপত্তাও বিঘ্নিত হচ্ছে।’’