Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৩ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

লাইফস্টাইল

Weight Loss: রেমোর স্ত্রী লাইজেল থেকে সারা আলি খান, বলিউড তারকাদের ওজন কমানোর রূপকথা

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১ ১২:০৬
ছোটবেলায় বহু বলিউড তারকারই যেমন ওজন ছিল, সিনেমায় আসার পর সেই ওজনের অনেকটাই কমিয়ে ফেলেন তাঁরা।

বলিউড তারকাদের ওজন কমানোর কোনও কোনও উদাহরণ অত্যন্ত বিস্ময়কর। এতটাই বিস্ময়কর, যে সেগুলি রূপকথাকেও হার মানায়।
Advertisement
ভূমি পেডনেকর: প্রথম ছবি ‘দম লাগা কে হাইশা’র প্রয়োজনে ২০ কিলোগ্রাম ওজন বাড়ান ভূমি। যদিও তার আগে ছিপছিপে চেহারা ছিল তাঁর।

সিনেমার প্রয়োজন মিটে যাওয়ার পরেই প্রায় ৩৩ কিলোগ্রাম ওজন কমিয়ে ফেলেন ভূমি। তাও মাত্র চার মাসেই। পরে অবশ্য তিনি বলেন, অত দ্রুত ওজন কমানোটা খুব একটা স্বাস্থ্যকর সিদ্ধান্ত নয়।
Advertisement
ভারতী সিংহ: অভিনেত্রী ভারতী হালে আলোচনায় চলে এসেছেন। দিনে ১৭ ঘণ্টা না খেয়ে থাকেন বলে জানিয়েছেন তিনি। এ ভাবেই নাকি ওজন কমাচ্ছেন তিনি।

রোজ ১৭ ঘণ্টা না খেয়ে থেকে দ্রুত ১৫ কিলোগ্রাম ওজন কমিয়ে ফেলেছেন তিনি। তবে ভারতীও বলেছেন, ওজন কমানোর  এই পদ্ধতি সকলের জন্য ঠিক নয়। তাতে হিতে বিপরীত হতে পারে।

লাইজেল ডি’সুজা: রেমো ডি’সুজার স্ত্রী লাইজেলও হালে আলোচনায়। তাঁর ওজন কমানোর ছবি প্রকাশ করেছেন রেমোও। বলেছেন, লাইজেল তাঁকে অনুপ্রাণিত করেছেন।

শরীরচর্চা আর খাদ্যাভ্যাসে বদল— ওজন কমাতে এই দুইয়েই ভরসা রেখেছেন লাইজেল। তেমনটাই জানিয়েছেন সংবাদমাধ্যমকে।

অর্জুন কাপুর: ছোটবেলায় নাকি ১৪০ কিলোগ্রামের উপর ওজন ছিল অর্জুনের। ভুগতেন অতিরিক্ত মেদের সমস্যায়। এমনকি মেদের কারণে শরীরে অন্য নানা সমস্যাও দেখা দেয় অর্জুনের।

অভিনয় জীবন শুরু আগেই শরীরচর্চা করেই মেদ পুরোপুরি ঝেরে ফেলেন অর্জুন। বানিয়ে ফেলেন ছিপছিপে চেহারা। যদিও বিভিন্ন সাক্ষাৎকারে অর্জুন জানিয়েছেন, অনেক নিয়ম মেনে তাঁকে চলতে হয়। সামান্য এ দিক ও দিক হলে আবার ওজন বাড়তে থাকে তাঁর।

হৃতিক রোশন: ওজন কমানোর গল্প যেমন রয়েছে, সিনেমার প্রয়োজনে ওজন বাড়ানোর গল্পও আছে। যেমন হৃতিক রোশন।  ‘সুপার ৩০’ ছবির জন্য ওজন বাড়াতে হয় তাঁকে।

ছবির শ্যুটিং শেষ হতেই দ্রুত ওজন কমিয়ে আগের চেহারায় ফিরে আসেন হৃতিক। তার জন্য দিনের অনেকটা সময় শরীরচর্চা করেই কাটাতে হত তাঁকে।

সোনাক্ষী সিংহ: স্কুলে পড়ার সময়ে ৯৫ কিলোগ্রাম ওজন ছিল সোনাক্ষীর। সোনাক্ষীর সেই সময়ের ছবি দেখলে তাঁকে চেনা মুশকিল।

‘দাবাং’ ছবির সূত্রে অভিনয়ে এসেই ৩০ কিলোগ্রাম ওজন কমিয়ে ফেলেন সোনাক্ষী। খাওয়াদাওয়া নিয়ন্ত্রণ নিয়ে আসেন তিনি। সঙ্গে চলত শরীরচর্চা।

সারা আলি খান: কলোম্বিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ার সময়ে সারার ওজন ছিল ৯৬ কিলোগ্রাম। সারা বলেছেন, সে সময়ে তিনি না কি নিয়মিত পিৎজা খেতেন। আর সেই ভালবাসার পিৎজা হয়ে দাঁড়িয়েছিল ওজন বৃদ্ধির প্রধান কারণ।

কিন্তু সিনেমার জগতে কাজ করতে এসেই চেহারা পাল্টে ফেলেন তিনি। প্রথমেই বাদ দেন ভালবাসার পিৎজা। সঙ্গে চলতে থাকে ব্যাপক হারে শরীরচর্চা। এ ভাবেই ৩৫ কিলোগ্রামের বেশি ওজন কমিয়ে ফেলেন সারা।