পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলার কঠোর নিন্দা করে সন্ত্রাসে আর্থিক মদতের প্রশ্নে পাকিস্তানকে ধূসর তালিকাতেই রাখল ফিনান্সিয়াল অ্যাকশন টাস্ক ফোর্স (এফএটিএফ)। আন্তর্জাতিক আর্থিক নজরদারি সংস্থাটির এই রায় কূটনৈতিক ভাবে নয়াদিল্লিকে কিছুটা হলেও স্বস্তি দিল।

সন্ত্রাসবাদ যাতে আর্থিক মদত না পায় তা নিশ্চিত করে এফএটিএফ। পাক জঙ্গি সংগঠনগুলিকে পুঁজি সরবরাহ বন্ধ করার জন্য গত দু’বছর ধরে এই সংস্থাকে দিয়ে পড়শি দেশের উপরে ক্রমাগত চাপ তৈরি করছিল ভারত। গত বছর জুনে সংস্থার ধূসর তালিকায় নামে ওঠে পাকিস্তানের। এই তালিকায় নাম থাকলে আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলি থেকে ঋণ পেতে সমস্যা হয়। শুক্রবার প্যারিসে সাধারণ বৈঠকের শেষ দিনে এফএটিএফ জানিয়েছে, পাকিস্তানকে আপাতত ধূসর তালিকাতেই রাখা হচ্ছে। সন্ত্রাসে মদত বন্ধ করতে পাকিস্তান যে প্রতিশ্রুতি দিয়েছে তা ঠিক মতো মানা হচ্ছে কি না তা চলতি বছরের জুন ও অক্টোবরে খতিয়ে দেখা হবে। কথা রাখতে না পারলে পাকিস্তানকে কালো তালিকাভুক্ত করা হবে।

এমনিতেই ইমরান খানের সরকার দেনায় ডুবে। তার উপরে এফএটিএফ-এর কালো তালিকায় নাম উঠলে বিশ্ব ব্যাঙ্ক, আইএমএফ, ইউরোপীয় ইউনিয়নের মতো সংস্থাগুলি থেকে আর্থিক সহায়তা পাওয়ার রাস্তাও বন্ধ হয়ে যাবে। গত সপ্তাহে পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলার দায় নিয়েছে জইশ-ই-মহম্মদ। ইমরান সরকারকে ক্ষমতায় আনার ক্ষেত্রেও জইশ তথা মাসুদ আজহারের ভূমিকা রয়েছে। পুলওয়ামায় পাক-যোগ প্রমাণ করতে সেই থেকে উঠেপড়ে লেগেছে ভারত। এই সংক্রান্ত তথ্য-প্রমাণ তুলে দেওয়া হবে আইএমএফ-এর হাতে।