রাজনীতিতে নামার কথা ঘোষণার পর থেকে দু’জনকেই নাগাড়ে একই প্রশ্ন শুনতে হয়। একসঙ্গে হবেন? একই দিনে এ বার ইঙ্গিতপূর্ণ ভাবে একই উত্তর এল দক্ষিণী চলচ্চিত্রের দুই মহাতারকা রজনীকান্ত এবং কমল হাসনের থেকে। মানুষের কল্যাণে যদি প্রয়োজন  পড়ে, তা হলে রাজনীতিতে একে অপরের হাত ধরতে আপত্তি নেই বলে জানালেন দু’জনেই।

মঙ্গলবার সাম্মানিক ডক্টরেট নিতে ওডিশা গিয়েছিলেন কমল হাসন। সেখান থেকে ফেরার পথে চেন্নাই বিমানবন্দরে সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হন তিনি। যথারীতি ধেয়ে আসে সেই প্রশ্ন। রজনীর সঙ্গে জোট বাঁধার সম্ভাবনা নিয়ে কমল হাসন বলেন, ‘‘নতুন করে আমাদের মধ্যে বন্ধন তৈরি করার প্রয়োজন নেই। দীর্ঘ ৪৪ বছর ধরে বন্ধু আমরা। ভবিষ্যতে প্রয়োজন পড়লে, তামিলবাসীর স্বার্থে রাজনীতিতেও একজোট হতে পারি।’’

কমল হাসন বিমানবন্দর থেকে বেরিয়ে যাওয়ার ঘণ্টাখানেকের মধ্যেই সেখানে আসেন রজনীকান্ত। একই প্রশ্ন, এবং তাঁর গলাতেও একই সুর। রজনী বলেন,‘‘তামিলনাড়ুর মানুষের উন্নতির স্বার্থে তেমন পরিস্থিতি এলে কমল হাসনের সঙ্গে হাত মেলাতেই পারি।’’

আরও পড়ুন: এনআরসিতে কোনও ধর্ম টার্গেট নয়, রাজ্যসভায় বললেন অমিত, একই সঙ্গে শোনালেন নতুন নাগরিকত্ব বিলের কথাও​

এর আগে রবিবার কমল হাসনকে নিয়ে আয়োজিত একটি অনুষ্ঠানেও রজনী বলেন, ‘‘মিরাকল হতেই পারে। আগেও হয়েছে, এখনও হচ্ছে, আগামী দিনেও হতে পারে।’’ জয়ললিতার মৃত্যুর পর, পন্নির সেলভমের সঙ্গে দীর্ঘ দিনের বিরোধ মিটিয়ে তামিলনাড়ুতে সরকার গড়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী ই পলানিস্বামী। তাঁকে কটাক্ষ করেই রজনী এমন মন্তব্য করেন বলে জল্পনা শুরু হয়। তার জেরে দক্ষিণী তারকাকে এক হাত নেন এআইএডিএমকে মুখপাত্র বাবু মুরুগাভেলও। বলেন, ‘‘৪৫ বছর ধরে দলের হয়ে কাজ করছেন পলানিস্বামী। অনেক লড়াই করে এই জায়গায় পৌঁছেছেন। অভিনেতা হিসাবে এই মন্তব্য করেছেন রজনীকান্ত। আগে বরং সক্রিয় রাজনীতিতে নামুন।’’

আরও পড়ুন: মহারাষ্ট্রে বিজেপি-এনসিপি সরকার? মোদী-পওয়ার বৈঠকের পর জল্পনা তুঙ্গে

রজনীকান্তের সক্রিয় রাজনীতিতে যোগ দেওয়ার খবর বহু দিন ধরেই চলে আসছে। ২০১৭ সালে নিজেই রাজনীতিতে পা রাখার ঘোষণা করেন তিনি। কিন্তু এখনও পর্যন্ত নিজের দল গঠন করেননি বা করে উঠতে পারেননি। অন্য দিকে, ২০১৮ সালে নিজের দল মক্কল নিধি মইয়ম (এমএনএম)-এর প্রতিষ্ঠা করেন কমল হাসন। এ বছর লোকসভা নির্বাচনেও অংশ নেয় তাঁর দল। তাতে অবশ্য মাত্র ২ শতাংশ ভোট পেয়েছিল এমএনএম। একটা আসনও জেতেনি। তাই ২০২১-এ তামিলনাড়ুর বিধানসভা নির্বাচনের আগে রজনীর সঙ্গে তাঁর জোট বাঁধা নিয়ে জল্পনা তুঙ্গে।