• শমীক ঘোষ
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ফতুয়া গায়েই হাজির উকিল! ক্ষুব্ধ আদালত

jaipur
প্রতীকী ছবি।

‘ভিডিয়ো কনফারেন্স’-এ জামিন মামলার শুনানি চলছে। চেম্বারে বসে রয়েছেন বিচারপতি। তাঁর স্থিরদৃষ্টি কম্পিউটারের বড় স্ক্রিনে। আচমকাই ভেসে এল আওয়াজ, ‘মাই লর্ড’। স্ক্রিনে দেখা গেল এক আইনজীবীকে। নিমেষে চোখ কপালে বিচারপতির। কারণ, ফতুয়া পরেই সওয়াল করতে চলে এসেছেন ওই আইনজীবী!

রাজস্থানের জয়পুর হাইকোর্ট সূত্রের খবর, সম্প্রতি এই ঘটনা ঘটেছে সেখানকার বিচারপতি সঞ্জীবপ্রকাশ শর্মার চেম্বারে। যে আইনজীবী ফতুয়া পরে জামিনের সওয়াল শুরু করেছিলেন তাঁর নাম রবীন্দ্রকুমার পালিওয়াল। লালারাম নামে এক অভিযুক্তের হয়ে তিনি সওয়াল শুরু করেছিলেন।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এড়াতে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে লকডাউন চলাকালীন দেশের বিভিন্ন হাইকোর্ট-সহ নিম্ন আদালতগতে ভিডিয়ো কনফারেন্সে জরুরি ভিত্তিতে শুনানি হচ্ছে। কলকাতা হাইকোর্টেও জরুরি ভিত্তিতে জামিনের আবেদন শুনছেন বিচারপতিরা। জয়পুর হাইকোর্টের ওই ঘটনা জানাজানি হতে চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে এ রাজ্যের আইনজীবীদের একাংশের মধ্যে।

জয়পুর হাইকোর্টের এক অফিসার শনিবার জানান, বিচারপতি শর্মা তাঁর ঘনিষ্ঠ মহলে জানিয়েছেন, তিনি প্রথমে ভেবেছিলেন আইনজীবীর পরিচিত কোনও ব্যক্তি ভিডিয়ো কনফারেন্স ব্যবস্থা ঠিক মতো চালু রাখার চেষ্টা করছেন। কোনও ভাবে ওই ব্যক্তিকে ‘স্ক্রিনে’ দেখা গিয়েছে। কিন্তু বিচারপতির ভুল ভাঙে যখন তিনি দেখতে পান, ফতুয়া পরিহিত ওই ব্যক্তি আদতে আইনজীবী।

আরও পড়ুন: দেশে ৯৬ শতাংশ পরিযায়ী শ্রমিকই রেশন পাচ্ছেন না, বলছে সমীক্ষা

আরও পড়ুন: আজ থেকে নতুন কী কী খুলছে, কী কী এখনও বন্ধ, দেখে নিন

তার পরে কী ঘটল? জয়পুর হাইকোর্ট সূত্রের খবর, আইনজীবী ইউনিফর্ম (কোর্ট গাউন বা শামলা) পরেননি দেখে বিচারপতি সঙ্গে সঙ্গে জামিনের শুনানির মামলাটি ৫ মে পর্যন্ত মুলতুবি করে দেন। একই সঙ্গে লিখিত এক নির্দেশে তিনি জানিয়ে দেন, করোনাভাইরাসের সংক্রমণের জেরে যখন সারা দেশে ভিডিয়ো কনফারেন্সের মাধ্যমে মামলার শুনানি হচ্ছে, তখন আইনজীবীরা তাঁদের কোর্ট গাউন পরেই সওয়াল করবেন, এটাই স্বাভাবিক। ‘অ্যাডভোকেটস অ্যাক্ট’-এও বলা রয়েছে, আইনজীবীরা তাঁদের মক্কেলদের হয়ে সওয়াল করবেন নির্দিষ্ট পোশাক বা ইউনিফর্ম পরেই। তার অন্যথা হওয়ার নয়। তিনি ইউনিফর্ম পরেননি, তাই মামলার শুনানি মুলতুবি রাখা হল।

কী বলছেন এ রাজ্যের আইনজীবীরা? তাঁদের একাংশ জানান, আইনজীবীরা কেবল কোর্ট গাউন পরেই সওয়াল করবেন তা নয়, তাঁরা যদি নিজেরাই কোনও মামলার আবেদনকারী হয়ে সওয়াল করেন, তা হলে তাঁদের কলার ব্যান্ড খুলে সওয়াল করতে হবে।

আইনজীবীদের অন্য একটি অংশ অভিযোগ করেন, এই রাজ্যেও কিছু নিম্ন আদালতে ছুটির দিনে কোনও মামলার সওয়াল করার সময় এক শ্রেণির আইনজীবীদের কোর্ট গাউন ছাড়াই সওয়াল করতে দেখা যায়। কিছু ক্ষেত্রে টি-শার্ট পরেও সওয়াল করতে দেখা গিয়েছে। এই প্রবণতা আদালতের রীতিনীতির পরিপন্থী বলে আইনজীবীদের একাংশ জানান।

(অভূতপূর্ব পরিস্থিতি। স্বভাবতই আপনি নানান ঘটনার সাক্ষী। শেয়ার করুন আমাদের। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিয়ো আমাদের ইমেলে পাঠিয়ে দিন, feedback@abpdigital.in ঠিকানায়। কোন এলাকা, কোন দিন, কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই দেবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।)

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন