যোগী-রাজ্য নিয়ে সংশয়ে বিজেপি
গত বার মোদী ঝড় থাকা সত্ত্বেও এসপি ও বিএসপি যে ভোট পেয়েছিল তা যোগ করলে বহু আসনে বিজেপি প্রার্থীর হেরে যাওয়ার কথা। এ বার হাত মিলিয়েছে দুই দল।
BJP

অবশেষে আগামিকাল সপ্তম দফা ভোটগ্রহণের মাধ্যমে শেষ হচ্ছে ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচন। 

শেষ দফায় উত্তরপ্রদেশ, বিহার, পশ্চিমবঙ্গ, পঞ্জাব-সহ সাতটি রাজ্যে ও একটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের মোট ৫৯টি কেন্দ্রে ভোট রয়েছে। এর মধ্যে ১৩টি আসন রয়েছে উত্তরপ্রদেশে। বিজেপির দাবি, বারাণসীতে মোদীর জয় নিয়ে কোনও সংশয় নেই। তাঁর জয়ের ব্যবধানের রেকর্ড গড়াই বিজেপির চ্যালেঞ্জ। তবে উত্তরপ্রদেশে এসপি-বিএসপি মহাজোট করায় আশঙ্কায় ভুগছেন দলীয় নেতৃত্ব। তাঁদের মতে, গত বার মোদী ঝড় থাকা সত্ত্বেও এসপি ও বিএসপি যে ভোট পেয়েছিল তা যোগ করলে বহু আসনে বিজেপি প্রার্থীর হেরে যাওয়ার কথা। এ বার হাত মিলিয়েছে দুই দল। নেই আগের মোদী হওয়া। ফলে আশঙ্কার চোরাস্রোত বইছে দলের ভিতরেও। 

বারাণসী সংলগ্ন গাজীপুরের ভবিষ্যত কী হবে তা নিয়ে সংশয় রয়েছে বিজেপির অন্দরমহলে। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী মনোজ সিন্‌হা ওই কেন্দ্র থেকে লড়ছেন। তাঁর প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী হলেন বিএসপি-র আফজল আনসারি। জেলে বন্দি থাকা বাহুবলী মুক্তার আনসারির ভাই তিনি। লড়াই যে কঠিন হবে তা ঘনিষ্ঠদের কাছে স্বীকার করে নিয়েছেন মনোজ সিন্‌হাও। অন্য দিকে মুখ্যমন্ত্রী আদিত্যনাথের কর্মভূমি গোরক্ষপুরেও বিজেপি ভোজপুরি অভিনেতা রবি কিষণকে দাঁড় করালেও অঙ্কের হিসেবে তাঁকে চাপে ফেলে দিয়েছেন এসপি-বিএসপি প্রার্থী রামভুয়াল নিষাদ। একে তিনি জোট প্রার্থী। তার উপরে তিনি নিজে নিষাদ গোষ্ঠীর হওয়ায় ওই 

গোষ্ঠীর সমস্ত ভোট তাঁর ভোট বাক্সে যাবে আশা করছেন রামভুয়াল। এসপি শিবিরের বক্তব্য, গোরক্ষপুরের মতো বেশ কিছু জায়গায় কংগ্রেসের ভোট তাদের ঝুলিতে এলে আরও সুবিধে হবে এসপি-বিএসপি জোট প্রার্থীর। শেষ মুহূর্তে কংগ্রেস প্রার্থীদের বোঝানোরও চেষ্টা চলছে। এসপি-বিএসপির আশা, কংগ্রেস প্রার্থীরা তাঁদের সমর্থকদের জোটকে ভোট দিতে বলতে পারেন। বিজেপির পাল্টা দাবি, উত্তরপ্রদেশে আশাতীত ভাল ফল করবে বিজেপি।

উত্তরপ্রদেশ নিয়ে সংশয় থাকলেও হিমাচলপ্রদেশ, বিহার ও ঝাড়খণ্ডে আগামিকালের ভোটে বিজেপি ভাল করবে বলেই আশা করছেন নরেন্দ্র মোদী-অমিত শাহেরা। পঞ্জাবে শেষ মুহূর্তে সানি দেওলকে সামনে রেখে হাওয়া ঘোরানোর একটি চেষ্টা করে বিজেপি। কিন্তু সেখানে মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরেন্দ্র সিংহ শেষ পর্যন্ত বাজিমাত করবেন বলে নিশ্চিন্তে কংগ্রেস শিবির। 

২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের ফল

আপনার মত