• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

কাশ্মীর নিয়ে মন্তব্যের পর আক্রমণ বিজেপির, পাল্টা কটাক্ষ শশীর

Shashi Tharoor
শশী তারুর। ছবি: সংগৃহীত।

ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয় নিয়ে রাজনীতি করার কোনও সুযোগই ছাড়ে না কংগ্রেস। মার্কিন কংগ্রেসে কাশ্মীর সংক্রান্ত প্রস্তাবের প্রশংসা করে শশী তারুরের টুইটের পর তাঁর দলকে এমন তীব্র আক্রমণ করল বিজেপি। সেই সঙ্গে কংগ্রেস নেতা তারুরকেও ভর্ৎসনা করতে ছাড়েনি নরেন্দ্র মোদীর দল। তবে বিজেপি যে তাঁর মন্তব্যের সঠিক অর্থ বুঝতে পারেনি, তা নিয়ে কটাক্ষ করে পাল্টা টুইট করেন তারুর।

সম্প্রতি জম্মু ও কাশ্মীরের সামগ্রিক পরিস্থিতি নিয়ে নরেন্দ্র মোদী সরকারের বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন মার্কিন কংগ্রেসের সদস্যরা। উপত্যকায় মানবাধিকার পরিস্থিতির অবনতি হয়েছে বলে দাবি করে ওই প্রস্তাবে মোদী সরকারের কাছে আবেদন করা হয়েছে, দ্রুত সেখানে ইন্টারনেট-সহ যোগাযোগ ব্যবস্থা স্বাভাবিক করতে হবে। পাশাপাশি, আটক করা সমস্ত রাজনৈতিক নেতানেত্রীর মুক্তিরও কথা বলা হয়েছে।

৬ ডিসেম্বর কংগ্রেসের হাউস অব রিপ্রেজেন্টেটিভস-এ ওই বাইপার্টিসান রেজিলিউশন পেশ হওয়ার পরের দিনই এর প্রশংসা করেন তারুর। টুইটারে তিনি লেখেন, ‘জম্মু ও কাশ্মীরে ইন্টারনেট ফিরিয়ে আনুন, বন্দিদশা শেষ করুন, মার্কিন হাউসে বাইপার্টিসান রেজিলিউশন-এর এমনটাই বলছে। মার্কিন জনপ্রতিনিধিদের প্রশংসনীয় প্রচেষ্টা, যেখানে আমাদের সংসদে গোটা শীতকালীন এখনও আমরা কাশ্মীর বিষয়ে একটা আলোচনাও করতে পারলাম না। লজ্জা!’

আরও পড়ুন: টাকা-বাড়ি চাই না, দোষীদের ৭ দিনের মধ্যে বিচার নিশ্চিত করুন, দাবি উন্নাও-কন্যার পরিবারের

শনিবার তারুরের এই টুইটের পরেই ঘণ্টা দেড়েকের মধ্যেই কংগ্রেসকে লক্ষ্য করে আক্রমণ চালায় বিজেপি। তা থেকে বাদ পড়েননি তারুরও। তারুরের নাম উল্লেখ না করেই বিজেপি সাংসদ শোভা কর্ণদলাজে লেখেন, ‘ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে আমেরিকার নাক গলানোর প্রশংসা করার জন্য লজ্জা হওয়া উচিত। এই প্রথম জম্মু ও কাশ্মীরে সন্ত্রাসবাদের বাড়বাড়ন্ত কমেছে। এবং মানুষজন অনেক সুরক্ষিত মনে করছেন। কিন্তু কংগ্রেস তো কখনই ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয় নিয়ে রাজনীতি বা দেশের বদনাম করার সুযোগ ছাড়ে না!’

আরও পড়ুন: ভিক্টোরিয়ার পাঁচিলে বসে তরুণীদের কটূক্তি, উইনার্সের আচমকা হানা, পাকড়াও ৬

আরও পড়ুন: পাসওয়ার্ড দুর্বল, বিপদে বিশ্বের সাড়ে চার কোটি মাইক্রোসফ্‌ট অ্যাকাউন্ট ইউজার!

শুধু শোভাই নন, বেঙ্গালুরু দক্ষিণ লোকসভা কেন্দ্রের সাংসদ তেজস্বী সূর্যও তারুরের সমালোচনায় মুখর হন। তিনি টুইট করেন, ‘বিরোধীদের প্রতিনিধি হিসাবে নিজের ভাষণে আমাদের সীমান্তের বাইরেও যিনি বহু বার ভারতীয় স্বার্থ বজায় রেখেছেন সেই শশী তারুর দেশের ঘরোয়া ব্যাপারে আমেরিকার নাক গলানো নিয়ে প্রংশসা করায় খুব হতাশ হয়েছি।’

টুইটারে বিজেপির এই আক্রমণের পাল্টা জবাব দিয়েছেন তারুর। রবিবার তিনি লিখেছেন, ‘বিজেপি যে কী শোচনীয় ভাবে আমার টুইটের ভুল অর্থ করেছে, তা ভেবে মজা লাগছে। যেটা লজ্জার তা হল, বিদেশি জনপ্রতিনিধিরা এই বিষয়ে মুখ খুললেও আমাদের সংসদে এ নিয়ে কোনও আলোচনায় করেনি। যেটা প্রশংসনীয় তা হল, মার্কিন কংগ্রেস এ নিয়ে আলোচনা করতে পারে, কিন্তু আমাদের সাংসদেরা তা পারেন না।’

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন