Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

৩০ জুন ২০২২ ই-পেপার

URL Copied

সমাজ

বিয়ের দিন সকালে টেনশন না করে এই কাজগুলো করুন

নিজস্ব প্রতিবেদন
২৯ জুলাই ২০১৭ ১৫:২০
বিয়ে জীবনের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ দিন। আর তাই এই দিন নিয়ে যেমন উত্তেজনা থাকে, তেমনই টেনশনও থাকে চরমে। বিয়ের দিন সকালে থেকেই হই-হুল্লোড়, আচার-অনুষ্ঠান, কাজের চাপে টেনশন করতে থাকেন বেশির ভাগ কনেই। এই দিন টেনশন না করে শান্ত থাকার চেষ্টা করুন। তা হলে দিনটা আরও ভাল ভাবে উপভোগ করতে পারবেন। এই কাজগুলো বিয়ের দিন সকালে করুন অবশ্যই।

ব্রেকফাস্ট: বিয়ের দিন ভোর বেলা উঠে খাওয়ার রেওয়াজ থাকে। বাঙাল বাড়িতে ভাত ও ঘটি বাড়িতে কনেকে দই-চিঁড়ে খাওয়ানো হয়। ভাল করে খেয়ে নিন। কারণ এর পর হয়তো সারা দিন খেতে পারবেন না। নিজেকে এনার্জেটিক রাখতে ভাল করে ব্রেকফাস্ট করা প্রয়োজন। আর যদি উপোসের নিয়ম না থাকে তা হলে পেট ভরে ব্রেকফাস্ট করারও সুযোগ পাবেন।
Advertisement
হাইড্রেটেড: বেশির ভাগ পরিবারেই বিয়ের দিন না খেয়ে থাকার নিয়ম। বিশেষ করে ভাত না খাওয়ার নিয়ম থাকে। না খেয়ে থাকলে অ্যাসিডিটি, মাথা যন্ত্রণার সমস্যা হতে পারে। তাই নিজেকে হাইড্রেটেড রাখা জরুরি। সারা দিন ফলের রস, দইয়ের ঘোল বা লেবু, আদা, শশা দেওয়া রিফ্রেশিং ওয়াটার খান।

তালিকা: এই দিন অনেক কাজ থাকবে। পার্লারে যাওয়ার জন্য জিনিসপত্র গোছানো, ফোটোগ্রাফারের সঙ্গে যোগাযোগ রাখা। সব মিলিয়ে টেনসন করা খুব স্বাভাবিক। কী কী কাজ করেছে তার একটা প্রায়োরিটি লিস্ট তৈরি করে রাখুন। তা হলে মাথায় রাখা সহজ হবে।
Advertisement
সাজ: সকালের আচার-অনুষ্ঠান শেষ হতে হতেই সাজতে পার্লারে যাওয়ার সময় এসে যাবে। শাড়ি, গয়না, জুতো সব কিছু গুছিয়ে পার্লারে নিয়ে যেতে হবে। আপনি বিদ্ধি, গায়ে হলুদ নিয়ে ব্যস্ত থাকবেন। তাই কোনও বন্ধু বা দিদি-বোনকে দায়িত্ব দিন আপনার জিনিসপত্র ঠিকঠাক গুছিয়ে দিতে ও নিজের দায়িত্বে রাখতে। বেরনোর সময় যাতে তাড়াহুড়ো না করতে হয়।

চার্জ: ফোনে চার্জ আছে কিনা অবশ্যই দেখে নিন। এ দিন ফ্লোরিস্ট, ফোটোগ্রাফার অনেকের জরুরি কন্ট্যাক্ট থাকবে আপনার ফোনে। আবার সন্ধেবেলা অনুষ্ঠানের সময়ও অনেক ফোন আসবে। ফোনের চার্জ ফুরিয়ে গেলে মুশকিলে পড়বেন। ফোন চার্জ দিয়ে রাখুন।

গুছিয়ে নিন: বিয়ে মানে কিন্তু পরদিনই আপনাকে বাড়ি থেকে চলে যেতে হবে। তারপর হনিমুন। আবার কবে বাড়িতে আসবেন জানেন না। তাই ব্যাগে সব জিনিস ঠিকঠাক গুছিয়েছেন কিনা দেখে নিন। অবশ্যই ব্যাগ আগে থেকে গুছিয়ে রাখবেন, বিয়ের দিনের জন্য ফেলে রাখবেন না। এ দিন শুধু আরেক বার দেখে নিন রোজকার কাজের সব প্রয়োজনীয় জিনিস, হনিমুনের দরকারি জিনিস নিয়েছেন কিনা।

রিল্যাক্স: যদি বেশি টেনসন করেন তা হলে কিন্তু চেহারায় কালি পড়ে যাবে। তাই সবচেয়ে আগে প্রয়োজন রিল্যাক্স করা। বাড়িতে অনেক হই হুল্লোড় চললেও নিজেকে রিল্যাক্সড রাখুন।