• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ভুল খবরে আইপিএল নিলাম থেকেই বাদ গেলেন হরপ্রীত সিংহ

Harpreet-Harmeet

সোমবারের ঘটনা। বেঙ্গালুরুতে ততক্ষণে ঢাকে কাঠি পড়ে গিয়েছে দশম আইপিএল নিলামের। নাম রয়েছে তাঁরও। তার মধ্যেই দূর্ঘটনা ঘটিয়ে ফেললেন আর একজন। একজনের নাম হরপ্রীত সিংহ ভাটিয়া অন্যজন হরমিত সিংহ।

সোমবার সকাল ৯.৩০ তখন। গাড়ি নিয়ে আন্ধেরি রেল স্টেশনের মধ্যে ঢুকে পড়েছেন এক ক্রিকেটার। ঠিক সেই সময় টেলিভিশনের পর্দায় চোখ রেখে বসেছিলেন আর এক ক্রিকেটার। যদিও তাঁকে কিনে নেয় কোনও ফ্র্যাঞ্চাইজি। কিন্তু তাঁর অজান্তেই ততক্ষণে তাঁর নাম ছড়িয়ে পড়েছে সর্বত্র।   খবর পৌঁছে যায় বেঙ্গালুরুর নিলাম কেন্দ্রেও। তাঁর নাম নিলামে উঠলেও কোনও ফ্র্যাঞ্চাইজি তখন আর তাঁকে নেওয়ার কথা ভাবেনি। যদিও মধ্য প্রদেশের এই ব্যাটসম্যান মুস্তাক আলি টি২০র সর্বোচ্চ রান সংগ্রহকারী। তাঁর দল পাওয়াটাই স্বাভাবিক ছিল। কিন্তি এমন একটা কাজের জন্য তাঁকে শাস্তি পেতে হল যেটা তিনি করেননি।

আরও খবর: পুণে টেস্টে প্রথম দিনেই বোলিংরাজ, অস্ট্রেলিয়া ২৫৬/৯ অস্ট্রেলিয়া

হরপ্রীত সিংহ ভাটিয়া।

সোমবার সকালে গাড়ি নিয়ে স্টেশনে ঢুকে পড়া ক্রিকেটারের নাম ছিল হরমিত সিংহ। সেই হরমিত অতীতে খেলেছেন মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের হয়েও। এমন কান্ড ঘটানোয় তাঁকে গ্রেফতারও করা হয়। নাম বিভ্রাটে তখন খবর প্রচার হয়ে যায়, আন্ধেরি রেল স্টেশনে গাড়ি নিয়ে ঢুকে পড়ে গ্রেফতার হয়েছেন হরপ্রীত সিংহ। টুইটারেও ছড়িয়ে পরে সেই খবর। পরদিন অবশ্য সেই খবর সংস্থার পক্ষ থেকে ক্ষমা চাওয়া হয় হরপ্রীতের কাছে। কিন্তু ততক্ষণে নিলাম শেষে দল গুছিয়ে নিয়েছে সব ফ্র্যাঞ্চাইজি। বাঁহাতি ব্যাটসম্যান হরপ্রীত নিজেই অবাক হয়ে যান পুরো ঘটনা শুনে। বলেন, ‘‘আমি হতবাক। আমি এখনও জানি না ঠিক কী ঘটেছে। আমি মুস্তাক আলিতে ভাল খেলেছি। আমি অবাক হয়ে গিয়েছিলাম দল না পেয়ে। এমন একটা কারণের জন্য আমি দল পেলাম না যেটা আমি করিইনি।’’

হরমিত সিংহ।

মুস্তাক আলিতে দক্ষিণাঞ্চলের হয়ে চার ম্যাচে মোট ২১১ রান করেছেন হরপ্রীত। সর্বোচ্চ ৯২। হরপ্রীত বলেন, ‘‘আমার নিজের থেকে বেশি পরিবারের জন্য খারাপ লাগছে। আমার পরিবারের কাছে পর পর ফোন আসতে থাকে এই ঘটনার কথা জানিয়ে যেখানে আমার ছবিও ব্যবহার করা হয়েছে। সবটাই সংবাদ মাধ্যমের ভুলের জন্য। আমি এই টুর্নামেন্টে আমার রান সব থেকে বেশি। আমাকে কোনও ফ্র্যাঞ্চাইজি নেয়নি সেটা নিয়ে আমার কোনও বক্তব্য নেই। কিন্তু আমার সম্মানহানি যেটা হল সেটার কী হবে।’’ সংবাদ মাধ্যমের উপর থেকে ভরসা হারিয়েছেন হরপ্রীত। হরমিত সিংহ বলেন, ‘‘আন্ধেরি রেল স্টেশনে ঢোকার মুখে একটা স্লোপ করা হয়েছে যেটাকে আমি পার্কিংয়ে যাওয়ার রাস্তা ভেবে ভুল করেছিলাম। কিন্তু সঙ্গে সঙ্গেই আমি বুঝতে পারি যে আমি প্ল্যাটফর্মে উঠে পড়েছি। আমি বেরিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেও তখন পারিনি। ততক্ষণে মানুষ আমাকে ঘিরে ধরেছে। পুলিশও চলে এসেছিল।’’ কিন্তু নেশা করে গাড়ি চালানোর তথ্য মিথ্যে বলে উড়িয়েছেন হরমিত। এবং হতাশাও প্রকাশ করেছেন, নিজের কথা জানাতে না পেরে।

ছবি: সংগৃহীত।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন