সম্প্রতি ভারতীয় মহিলা শুটার হিনা সিধু দাবি তোলেন, ২০২২ কমনওয়েলথ গেমসে অংশ নেওয়া উচিত নয় ভারতের। শনিবার সেই সুর শোনা গেল ভারতীয় অলিম্পিক সংস্থার প্রেসিডেন্ট নরেন্দ্র বাত্রার মুখেও। ইঙ্গিত দিলেন, তেমন পরিস্থিতি তৈরি হলে বার্মিংহাম গেমস বয়কটও করা হতে পারে।

বিতর্কের কেন্দ্রে রয়েছে কমনওয়েলথ গেমস সংস্থার (সিজিএফ) এক সিদ্ধান্ত। যেখানে ঠিক হয়, ২০২২ সালে বার্মিংহামে শুটিং ইভেন্ট থাকবে না। যা নিয়ে তীব্র প্রতিবাদ জানায় ভারতীয় অলিম্পিক সংস্থা। সম্প্রতি সেই বিষয়ে কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী কিরেণ রিজিজুকে একটি ই-মেল করেছেন বাত্রা। যেখানে তিনি স্পষ্ট করে দিয়েছেন, শুটিং ইভেন্ট সরিয়ে নেওয়ার যে সিদ্ধান্ত নিয়েছে সিজিএফ, তার প্রতিবাদ জানিয়ে ভারত বয়কটও করতে পারে কমনওয়েলথ গেমস। তিনি ওই ই-মেলে লিখেছেন, ‘‘আইওএ-র বৈঠকে সদস্যরা সর্বসম্মতিক্রমে যে সিদ্ধান্ত নিয়েছে, তাতে ২০২২ কমনওয়েলথ গেমস বয়কট করতে পারে ভারত। এই বিষয়ে আপনার মতামতও জানতে চায় আইওএ।’’

২০১৮ গোল্ড কোস্ট গেমস থেকে শুটিংয়ে ভারত ১৬টি পদক জিতেছিল। সোনা ছিল সাতটি। ১৯৭০ সাল থেকে কমনওয়েলথ গেমসে শুটিংকে গুরুত্বপূর্ণ ইভেন্ট হিসেবে চিহ্নিত করা হয়ছে। তা হলে কেন সেই ইভেন্টকে সরানো হবে, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। সর্বভারতীয় রাইফেল সংস্থার সচিব রাজীব ভাটিয়া জানিয়েছেন, তাঁরা সরকারের সিদ্ধান্তের দিকে তাকিয়ে রয়েছেন।