প্রত্যাশিত ভাবেই চিন ওপেনের কোয়ার্টার ফাইনালে উঠলেন পুসারলা বেঙ্কট সিন্ধু ও কিদম্বি শ্রীকান্ত। অবশ্য সিন্ধু যতটা সহজে ম্যাচ জিতলেন ততটা সহজে জিততে পারেননি শ্রীকান্ত।

রিয়ো অলিম্পিক্স ও দু’বার বিশ্বচ্যাম্পিয়নশিপে রুপোজয়ী সিন্ধু ২১-১২, ২১-১৫ ফলে হারান তাইল্যান্ডের বুসানান ওংবামরুংপানকে। সারা ম্যাচে সিন্ধুর একের পর এক মারা স্ম্যাশের সামনে এ দিন কার্যত অসহায় দেখিয়েছে তাই প্রতিপক্ষকে।  পাশাপাশি শ্রীকান্তের সঙ্গে খেলা ছিল ইন্দোনেশিয়ার নতুন প্রতিভা টমি সুগিয়ার্তোর। এই ম্যাচে কিন্তু তিন গেমের লড়াই হল। প্রথম গেম শ্রীকান্ত হারেন ১০-২১। পরের দু’টি গেমে অবশ্য ইন্দোনেশীয় প্রতিপক্ষ বিশেষ কিছু করতে পারেননি। শ্রীকান্ত গেম দুটি জেতেন ২১-৯ ও ২১-৯ ফলে। প্রসঙ্গত টমি হচ্ছেন প্রাক্তন বিশ্বচ্যাম্পিয়ন ইচুক সুগিয়ার্তোর ছেলে।

সিন্ধু এ বার তৃতীয় বাছাই। ২০১৬ সালে তিনি চিন ওপেনে চ্যাম্পিয়নও হয়েছিলেন। কোয়ার্টার ফাইনালে গোপীচন্দের ছাত্রীর লড়াইটা অবশ্য বেশ কঠিন। সিন্ধুকে খেলতে হবে অষ্টম বাছাই চিনের হে বিংজিয়াওয়ের সঙ্গে। যাঁর বিরুদ্ধে খেলতে নেমে সিন্ধু দু’বারই হেরেছেন। এখন দেখার আগামী কাল সিন্ধু বদলা নিতে পারেন কি না।

সিন্ধুর মতোই শ্রীকান্তও এখানে আগে (২০১৪ সালে) চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন। কোয়ার্টার ফাইনালে তাঁর লড়াই চিনা তাইপেইয়ের চৌ তিয়েন চেনের সঙ্গে। সিন্ধুর মতোই শ্রীকান্তের কাজটা বেশ কঠিন।