তারাপীঠ মন্দিরে পুজো দিতে গিয়ে আবেগপ্রবণ হয়ে পড়লেন বীরভূম জেলা তৃণমূলের দাপুটে সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল। দীর্ঘক্ষণ গর্ভগৃহে বিগ্রহের সামনে দাঁড়িয়ে পুজো করতে দেখা গেল তাঁকে। করজোড়ে প্রার্থনা করার ভঙ্গিতে কেঁদেও ফেলেন অনুব্রত। আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে ৪২ টি আসনে জয়ের জন্যই প্রার্থনা করেছেন বলে জানালেন অনুব্রত।

কৌশিকী অমাবস্যা উপলক্ষে প্রতি বছরের মতো এ বছরেও বিশেষ পুজোর আয়োজন হয়েছে তারাপীঠে। সেই কারণেই রবিবার দুপরে পুজো দিতে মন্দির চত্বরে পৌঁছে যান বীরভূম জেলা তৃণমূলের সভাপতি। তাঁর সঙ্গে ছিলেন রামপুরহাটের তৃণমূল বিধায়ক তথা রাজ্যের কৃষি মন্ত্রী আশিস বন্দ্যোপাধ্যায় এবং জেলা তৃণমূলের সহ-সভাপতি অভিজিৎ সিংহ। 

মন্দিরের সামনে তখন বিপুল মানুষের ঢল। আর সেই কারণেই ভিআইপি গেট দিয়ে ঢোকানো হয় অনুব্রত ও তাঁর সঙ্গীদের। গর্ভগৃহে প্রায় আধ ঘণ্টার কাছাকাছি পুজো করেন অনুব্রত।  মন্দিরের প্রধান পুরোহিতই অনুব্রতকে মন্ত্র পাঠ করাচ্ছিলেন। পুজো দেওয়ার সময়েই আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েন অনুব্রত। দু’হাত জোড় করে কাঁদতেও দেখা যায় দাপুটে এই নেতাকে।

দেখুন ভিডিয়ো

 

 

পাঁচ রকমের ফুলের মালা দিয়ে সাজিয়ে, নতুন শাড়ি নিবেদন করেন তারা মা’কে।  শুধু গর্ভগৃহেই নয়। অনুব্রতকে দীর্ঘক্ষণ যজ্ঞও করতে দেখা যায়। স্ত্রী অসুস্থ। নিজেও অসুস্থ। অনুব্রত জানান, দেশ ও দশের এবং পরিবারের মঙ্গল কামনায় এই পুজো। সঙ্গে আরও জানান আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে যাতে ৪২ টি আসনেই জয়লাভ করতে পারেন, সেই জন্যই তিনি প্রার্থনা করতে এসেছেন। দাপুটে তৃণমূল নেতার চোখে জল,  এ যেন বিরল এক চিত্র। আর এমন বিরল দৃশ্যের সেই ভিডিয়ো হাতে হাতে ছড়িয়ে পড়ে ইন্টারনেটের মাধ্যমে।

আরও পড়ুন: কাল বন্‌ধে বাম-কংগ্রেস, বিরোধিতায় নামছে তৃণমূল, সঙ্ঘাতের আশঙ্কা রাজ্যে

আরও পড়ুন: ভাঙা সেতুর পাশ দিয়ে পুজোর আগেই বিকল্প রাস্তা!

(বাংলার রাজনীতি, বাংলার শিক্ষা, বাংলার অর্থনীতি, বাংলার সংস্কৃতি, বাংলার স্বাস্থ্য, বাংলার আবহাওয়া - পশ্চিমবঙ্গের সব টাটকা খবর আমাদের রাজ্য বিভাগে।)