কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী রাজ্যবর্ধন রাঠৌরের হ্যাশট্যাগ ‘হম ফিট তো ইন্ডিয়া ফিট’ চ্যালেঞ্জ ছেয়ে গিয়েছে টুইটারে। নিজের অফিসে পুশ-আপের ভিডিয়ো করে পোস্ট করেছিলেন রাজ্যবর্ধন। তার পর চ্যালেঞ্জ দিয়েছিলেন বিরাট কোহালি, হৃতিক রোশন এবং সাইনা নেহওয়ালকে। হৃতিকের পর একে একে বলিউডের অনেক সেলেব্রিটিই রাজ্যবর্ধনের ফিটনেস চ্যালেঞ্জ নিয়েছেন— অনুষ্কা শর্মা, দীপিকা পাড়ুকোন, টাইগার শ্রফ, ফারহান আখতার। এখন অবশ্য বলিউড পেরিয়ে ফিটনেসের ঢেউ লেগেছে টলিউ়ডেও।

সম্প্রতি টোটা রায়চৌধুরীও নাম লিখিয়েছেন ফিটনেস ব্যান্ডওয়াগনে। টুইটারে পোস্ট করেছেন হ্যান্ড ওয়াকিংয়ের একটি ভিডিয়ো। এবং সেই ভিডিয়োটি তিনি উৎসর্গ করেছেন ফিটনেস গুরু বলে যাঁকে মানেন, সেই অক্ষয়কুমারকে। অলিম্পিক মে়ডেলজয়ী রাজ্যবর্ধনের প্রতি নিজের শ্রদ্ধার কথাও সেখানে জানিয়েছেন টোটা। এ ব্যাপারে তাঁকে জিজ্ঞেস করা হলে টোটা বলেন, ‘‘রাজ্যবর্ধনের পদক্ষেপকে সম্মান জানাতেই ফিটনেস চ্যালেঞ্জ নিয়েছি। আর অক্ষয়কে নিজের ফিটনেস আইডল বলে মনে করি। অক্ষয়ের প্রথম ছবি ‘সৌগন্ধ’-এ ওর নিজের একটা স্টান্ট আছে হ্যান্ড ওয়াকিংয়ের, আমিও সেটাই করেছি ওই ভিডিয়োয়।’’

রীতি অনুযায়ী ফিটনেস চ্যালেঞ্জটা ইন্ডাস্ট্রির বাকিদেরও দিয়েছেন টোটা। তার মধ্যে রয়েছেন জিৎও। টোটার কথায়, ইন্ডাস্ট্রির অন্যতম ফিট অভিনেতা জিৎ। ‘‘ও কোনও সাপ্লিমেন্ট নেয় না,’’ মন্তব্য তাঁর। টোটার চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করেছেন জিৎ। নিজেদের মধ্যে ফিটনেস নিয়ে অনেক শলাপরামর্শও করেন দুই অভিনেতা। নিজের ফিটনেস ভিডিয়োয় জিৎ রাজ্যবর্ধনের এই পদক্ষেপকে স্বাগত জানিয়েছেন। এবং চ্যালেঞ্জ বাড়িয়ে দিয়েছেন প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায় এবং সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের দিকে।