যা গরম পড়েছে, সাজগোজ নিয়ে মাথা ঘামানোর কথা ভাবলেই শরীর ঘেমে উঠছে! কিন্তু তার মধ্যেও তো এখানে-ওখানে যেতে সাজতে হতেই পারে। এখন অফিসকর্মীদের পক্ষে কর্পোরেট পোশাক থেকে চট করে এথনিক পোশাকে লুক বদলে ফেলাটা সমস্যার। তা ছাড়া দেশীয় সাজের জন্য সঙ্গে করে অনেক কিছু রাখতেও হয়। তার বদলে যদি ওয়েস্টার্ন থেকেই চট করে বদলে ফেলা যায় এথনিকে? কী ভাবে? 

 

• অফিসে যদি ড্রেসকোড থাকে, তা হলে ফর্ম্যাল শার্টকেই অনেক ভাবে কায়দা করে পরা যেতে পারে। ধরুন, যে দিন আপনার অনুষ্ঠান রয়েছে, সে দিন রাফল্‌ড স্লিভসের ভিন্টেজ কাটের সাদা শার্ট পরে যান। তৈরি হওয়ার সময়ে শার্ট কোমরের কাছে বেঁধে গুটিয়ে নিয়ে, ভারী কাজ করা লেহঙ্গা পরে নিন। গরমকাল বলে প্যাস্টেল শেডস কিন্তু খুব সুন্দর খুলবে। মানানসই নেকলেস বেছে নিলেই সাজ সম্পূর্ণ। চুলে হালকা ওয়েভ করে খুলে রাখুন। মেকআপ হবে ছিমছাম, নুড বেসড।

 

• চান্দেরি সিল্ক গরমে অনায়াসে পরা যায়। তবে শাড়ি না পরতে চাইলে চান্দেরি সিল্কের এথনিক গাউন পরতে পারেন। বেসিক বেজ বা অফ হোয়াইট রঙের হলে, তা গরমের জন্য মানানসই হবে। তার সঙ্গে স্লিভস গুটিয়ে একটা ভাল ফিটের ব্ল্যাক শার্ট নিতে পারেন জ্যাকেট হিসেবে। ভারী সিলভার নেকপিস লেয়ার করে পরে নিন সঙ্গে। চুল থাকবে পরিষ্কার করে পনিটেল করা। ক্লিন টপ নটও চলতে পারে।

 

• অফিসে যদি ড্রেস কোডের তেমন জোরাজুরি না থাকে, তা হলে ক্রপ টপ, প্যান্টস আর কটন ব্লেজ়ার পরে দিব্যি চলে যাওয়া যায়। শুধু অনুষ্ঠানে যাওয়ার আগে সেই ক্রপ টপের সঙ্গে ধোতি প্যান্টস আর মানানসই কেপ পরে সাজটাকে পাল্টে দেশি গ্ল্যামার যোগ করুন। যদি বিয়েবাড়ি হয়, চুল মিডল পার্টিং করে একটা মাঙ্গটিকা পরে নিন। অন্য গয়না না পরলেও হবে। ককটেল রিং চলতে পারে আঙুলে। 

 

• যদি প্রাচ্য এবং পাশ্চাত্য মিলিয়ে ফিউশন করে সাজতে  চান, তা হলে একরঙা হালকা শাড়ি পরে তার সঙ্গে ফিউচারিস্টিক স্টাইলড কেপ পরতে পারেন। মানে ধরুন, ব্লেজ়ার কাটের কেপ, যার স্লি‌ভস নেই। মেটাল টোনের অ্যাকসেসরিজ় পরে নিলে কিন্তু বেশ স্টাইলিশ দেখাবে। এ ক্ষেত্রে বটল গ্রিন শাড়ির সঙ্গে ব্ল্যাক কেপ বা পিচ রঙের শাড়ির সঙ্গে বেজ বা সাদা কেপ সুন্দর দেখাবে।

 

• তবে শুধু অনুষ্ঠানের জন্যই নয়, দৈনন্দিন সাজেও ওয়েস্টার্ন পোশাকে আনা যায় এথনিক ছোঁয়া। ব্ল্যাক টপ, চেকার্ড লুজ় প্যান্টসের মোনোক্রোম লুক ক্যারি করলে তার সঙ্গে সিলভার চোকার পরে নিন একটা। একটু ভারীর ‌উপরে। চাইলে স্লিক ব্রেসলেটও পরতে পারেন রুপোর। ছিমছাম অথচ সুন্দর দেখাবে।

• এ ছাড়া পেপলাম বা কোল্ড শোল্ডার টপের সঙ্গে স্কিনি জিন্‌স পরে, তার সঙ্গে মানানসই শাড়ি পরে নিন। ড্রেপিং করুন যত্ন করে। ছিমছাম চুলের স্টাইলের সঙ্গে স্মোকি আইজ় করে নিলেই সাজ সম্পূর্ণ। তবে ভারী কারুকাজ করা নেকলেস অবশ্যই পরে নেবেন।

প্রাচ্য ও পাশ্চাত্যের মেলবন্ধনে এই সাজ। তাই মেকআপ করার সময়ে ঠোঁট নয়, গুরুত্ব দিন চোখে। আইশ্যাডো বা লিপস্টিকে চড়া রঙের বদলে বেছে নিন হালকা রং।

মডেল: বিবৃতি চট্টোপাধ্যায়
ছবি: দেবর্ষি সরকার
মেকআপ অ্যান্ড হেয়ার: মৈনাক দাস
স্টাইলিং: অঙ্কিতা বন্দ্যোপাধ্যায় 
পোশাক: কালীঘটা, সারঙ্গ
জুয়েলারি: আভামা